যশদের বিরুদ্ধে আইনি লড়াইয়ে হার অজয়ের

Last Updated: Tuesday, November 6, 2012 - 19:55

রেসে প্রথম ল্যাপটা খানিক পিছিয়েই গেলেন অজয় দেবগন। `জব তক হে জান`-এর প্রযোজক সংস্থা যশ রাজ ফিল্মের বিরুদ্ধে তাঁর আনা অভিযোগ খারিজ করে দিল সিসিআই (কম্পিটিশন কমিশন অফ ইন্ডিয়া)। তাদের তরফ থেকে পরিষ্কার জানিয়ে দেওয়া হল যশ রাজ ফিল্ম প্রতিযোগিতা মূলক আইনের কোন লঙ্ঘন করেনি। আজ দেবগনদের সব অভিযোগকেই ভিত্তিহীন বলে রায় দিল সিসিআই।
আগামী ১৩ নভেম্বর দেওয়ালির সময় একই সঙ্গে রিলিজ হতে চলেছে যশ চোপরার শেষ পরিচালনা ` জব তক হে জান` এবং অজয় দেবগনের নিজস্ব প্রোডাকশন হাউসের ফসল `` সন অফ সর্দার``। বক্স অফিসে দেওয়ালির রোশনাই কে দখল করে নেবে তা নিয়ে বি টাউনে বেশ কয়েকদিন ধরেই গুঞ্জন চলছিল। একদিকে শাহরুখ আর ক্যাটরিনার প্রথমবার একসঙ্গে পর্দায় আবির্ভাব অন্যদিকে বলিউডের নতুন মক্ষীরাণি সোনাক্ষী সিনহার সঙ্গে কাজল-পতি অজয়। কোন জুটির ম্যাজিকে দর্শক মোহাবিষ্ট হবে তা নিয়েই চলছিল জল্পনাকল্পনা। কিন্তু হঠাৎ করে অজয় দেবগণের যশ রাজ ফিল্মের বিরুদ্ধে আনা অভিযোগ এই দুই সিনেমা নিয়ে প্রত্যাশিত ফিসফিসের অভিমুখ খানিক পরিবর্তিত করে দিয়েছিল। অজয় দেবগন ফিল্ম প্রাইভেটের তরফ থেকে সিসিআই-এর কাছে অভিযোগ আনা হয় নিজেদের ক্ষমতার প্রভাব খাটিয়ে যশ রাজ ফিল্ম নাকি বেশি সংখ্যক স্ক্রিনে `` যব তক হে জান`` -এর প্রদর্শনের জন্য ডিস্ট্রিবিউটরদের উপর চাপ তৈরি করছে। যদিও যশ রাজ ফিল্মের তরফ থেকে এই অভিযোগ তৎক্ষণাৎ গুরুত্বহীন বলে উড়িয়ে দেওয়া হয়। এই বিতর্কে মুখ খোলেন শাহরুখও। পুরো ঘটনাটাই অতন্ত্য তুচ্ছ, ভিত্তিহীন ও বোকাবোকা বলে মন্তব্য করেন বলিউডের বাদশা।
আসলে সমস্যার সূত্রপাত হয়েছিল বেশ কিছুদিন আগেই। যশ রাজের ঠিক এর আগের সিনেমা `এক থা টাইগার`-এর রিলিজের সময় `সিঙ্গল স্ক্রিন` মালিকদের সঙ্গে তাদের একটা চুক্তি হয়। এই চুক্তি অনুযায়ি যে সব হল গুলি ` এক থা টাইগার` -এর প্রদর্শনে ইচ্ছুক তাদেরকে দেওয়ালির সময় `` যব তক হে জান``-এর প্রদর্শন করতে হবে। এই চুক্তির কথা বাইরে আসার পরই দেবগনরা যশ রাজের বিরুদ্ধে সিসিআইয়ের দ্বারস্থ হন।
কিন্তু সিসিআই-এর পক্ষ থেকে স্পষ্ট জানিয়ে দেওয়া হয়েছে যে কয়েকটি `সিঙ্গল স্ক্রিন` প্রেক্ষাগৃহে ছবি প্রদর্শন দু`টি এই মাত্রার বড় সিনেমার মার্কেটের খুব একটা হেরফের ঘটাতে পারে না। তাছাড়া সামগ্রিক ভাবে একটা দেওয়ালি বা ইদের উপর সিনেমার সামগ্রিক ফ্লপ হিটের বিচার হয় না। সারা বছরের ব্যবসার উপর নির্ভর করে কোন সিনেমার বাজার কতখানি। তাই প্রতিযোগিতা মূলক আইনের নজরে এই অভিযোগের কোন মানেই হয় না।
আইনি লড়াইয়ে পিছিয়ে গেলেও অবশ্য `দেবগণ গ্যাং`-এর এখনই হতাশ হওয়ার কিছু নেই। এখনও কিন্তু বিগ বাজেট প্লাস বিগ এক্সপেকটেশনে ভরপুর এই দুই ছবির মধ্যেকার আসল লড়াইটা বাকি আছে। দুটি সিনেমারই ভাগ্য কিন্তু শেষ পর্যন্ত বিচার করবেন দর্শকরাই। যশরাজ-শাহরুখ হিট কম্বো এবারেও জাদু করবে নাকি সর্দার রূপে অজয়ের নয়া অবতার সব লাইমলাইট নিজের দিকেই ছিনিয়ে নেবে তার উত্তর কিন্তু এ মাসের ১৩ তারিখের পরেই পাওয়া যাবে।



First Published: Tuesday, November 6, 2012 - 19:55


comments powered by Disqus
Live Streaming of Lalbaugcha Raja