বন্যা পরিস্থিতি খতিয়ে দেখতে গোপীবল্লভপুরে মমতা, মুখ্যমন্ত্রীর নালিশের জেরে জল ছাড়ার পরিমাণ কমাল ডিভ

বন্যা পরিস্থিতি খতিয়ে দেখতে গোপীবল্লভপুরে মমতা, মুখ্যমন্ত্রীর নালিশের জেরে জল ছাড়ার পরিমাণ কমাল ডিভিসি

বন্যা পরিস্থিতি খতিয়ে দেখতে গোপীবল্লভপুরে মমতা, মুখ্যমন্ত্রীর নালিশের জেরে জল  ছাড়ার পরিমাণ কমাল ডিভিসিবন্যা পরিস্থিতি খতিয়ে দেখতে গোপীবল্লভপুর পৌঁছে গিয়েছেন মুখ্যমন্ত্রী। শুরু হয়েছে ত্রাণ বিলির কাজ। বন্যায় ক্ষতিগ্রস্ত বাড়ি পুনর্গঠনের জন্য পনেরো হাজার টাকা আর্থিক সাহায্যের কথা ঘোষণা করেছেন তিনি। বিডিওদের বাড়ি বাড়ি গিয়ে পরিস্থিতি খতিয়ে দেখার নির্দেশ দিয়েছেন মুখ্যমন্ত্রী। তিনি বিডিওদের ব্লক ছেড়ে না যাওয়ার নির্দেশও দিয়েছেন। আজ  দাঁতন ও নয়াগ্রামেও যেতে পারেন মুখ্যমন্ত্রী। গতকাল রাতেই ঝাড়গ্রাম পৌঁছন মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়। মুখ্যমন্ত্রীর নিরাপত্তা নিয়ে আজ যথেষ্টই সতর্ক প্রশাসন। পশ্চিম মেদিনীপুরের পাশাপাশি পূর্ব মেদিনীপুরেও বন্যাদুর্গত এলাকা পরিদর্শনে যেতে পারেন তিনি। ত্রাণ পরিষেবা নিয়ে বৈঠক করতে পারেন জেলা প্রশাসনের কর্তাদের সঙ্গে।

মুখ্যমন্ত্রীর নালিশের পর জল ছাড়ার পরিমাণ কমাল ডিভিসি। আজ মাইথন থেকে সতেরো হাজার কিউসেক ও পাঞ্চেত জলাধার থেকে পঁয়তাল্লিশ হাজার কিউসেক জল ছাড়া হয়েছে। অর্থাত্ মোট বাষট্টি হাজার কিউসেক জল ছাড়া হয়েছে। এর আগে দুটি জলাধার থেকে এক দফায় এক লক্ষ কিউসেকের বেশি জল ছাড়া হয়। দুই মেদিনীপুর, হুগলি সহ কয়েকটি জেলার বিভিন্ন অংশে বন্যা পরিস্থিতি তৈরি হয়েছে। ডিভিসির জল ছাড়া নিয়ে অসন্তোষ প্রকাশ করে কেন্দ্রকে চিঠি দিয়েছিলেন মুখ্যমন্ত্রী। আজ মাইথন ও পাঞ্চেত থেকে আগের তুলনায় অনেক কম জল ছাড়া হয়েছে।

First Published: Wednesday, October 16, 2013, 14:25


comments powered by Disqus