বারাসাতে ধর্ষণ করে খুন

বারাসাতে ধর্ষণ করে খুন, এলাকায় উত্তেজনা

বারাসাতে ধর্ষণ করে খুন, এলাকায় উত্তেজনাফের ধর্ষণ করে খুনের অভিযোগ উঠল বারাসত থানা এলাকায়। গতকাল দ্বিতীয় বর্ষের
এক ছাত্রীর ক্ষতবিক্ষত দেহ উদ্ধার হয় এলাকার কামদানির একটি ভেড়ির ধার
থেকে। পরিবারের অভিযোগ ধর্ষণ করে খুন করা হয়েছে ওই ছাত্রীকে। রাতে দোষীদের
শাস্তির দাবিতে রাজারহাট মোড় অবরোধ করেন ক্ষুব্ধ বাসিন্দারা। পরিবারের
অভিযোগের ভিত্তিতে তিনজনকে গ্রেফতার করেছে পুলিস। অন্যদিকে এই  ঘটানায় আজ
সকাল থেকেই ক্ষুব্ধ এলাকাবাসী রাস্তায় নেমে প্রতিবাদ জানাচ্ছেন। ঘটনাস্থলে
সিআইডির প্রতিনিধি দল উপস্থিত হয়েছে।

উত্তেজিত জনাতা স্থানীয় বিধায়কের গাড়ি ভাঙচুর করেছেন। বার বার বারাসাতে নারী নিগ্রহের ঘটনায় এলাকার সামগ্রিক নিরাপত্তা নিয়ে প্রশ্ন তুলেছেন তাঁরা।

রাজারহাটের খড়িবাড়ি রোডের কামদানি মোড়। পরীক্ষা দিয়ে দুপুরেই বাড়ি ফেরার কথা ছিল দ্বিতীয় বর্ষের ছাত্রীটির। সন্ধের পরেও মেয়ে ঘরে না ফেরায়  খোঁজখবর নিতে শুরু করেন ছাত্রীর পরিবার। অনেক খোঁজাখুঁজির পর শুক্রবার রাত সাড়ে আটটা নাগাদ স্থানীয় একটি ভেড়ির পাশে রক্তাক্ত অবস্থায় উদ্ধার হয় ছাত্রীর দেহ। ধর্ষণের পর খুন করা হয়েছে বলে অভিযোগ ছাত্রীর পরিবারের।

দোষীদের গ্রেফতারের দাবিতে রাজারহাট রোড অবরোধ করেন ক্ষুব্ধ

ঘটনায় চারজনের বিরুদ্ধে বারাসত থানায় অভিযোগ দায়ের করেন ছাত্রীর পরিবার। রাতেই তিনজনকে গ্রেফতার করে পুলিস।
পুলিসের নজর এড়িয়ে এলাকায় দীর্ঘদিন ধরেই অসামাজিক কাজকর্ম চলছে বলে অভিযোগ জানিয়েছেন বাসিন্দারা।







First Published: Saturday, June 08, 2013, 12:45


comments powered by Disqus