কপুর vs কপুর

গোটা ছবি জুড়ে আইটেম নম্বর, সাহসী অভিব্যক্তি, উত্তেজক ফিনফিনে শাড়ি, সর্বোপরি মধুর ভান্ডারকরের মতো পরিচালক।

Updated: Sep 28, 2012, 09:43 PM IST

গোটা ছবি জুড়ে আইটেম নম্বর, সাহসী অভিব্যক্তি, উত্তেজক ফিনফিনে শাড়ি, সর্বোপরি মধুর ভান্ডারকরের মতো পরিচালক। কিন্তু এতোকিছু সত্ত্বেও শেষরক্ষা হল না। সারা ছবি জুড়ে করিনার চাঁছাছোলা সংলাপের বন্যা থাকলেও বক্সঅফিসে তাঁকে ছাপিয়ে যেতে একটিও বাক্যব্যয় করতে হল না বরফি রণবীরকে। বলিউডে কপুর বনাম কপুর লড়াইয়ে দিদি করিনাকে অনেক পিছনে ফেলে দিলেন ঋষিপুত্র।
১৪ সেপ্টেম্বর মুক্তি পায় অনুরাগ বসুর ৩০ কোটির ছবি বরফি। দুসপ্তাহে ভারতের বক্সঅফিস থেকে বরফির প্রাপ্তি ৮২.০৫ কোটি। অন্যদিকে বরফির এক সপ্তাহ পর রিলিজ করে প্রথম সপ্তাহে হিরোইনের ঝুলিতে মাত্র ৩২ কোটি। দুটি ছবিই তৈরি হয়েছে ডিজনি ইউ টিভির ব্যানারে। বরফির সাফল্যে উচ্ছ্বসিত ডিজনি ইউটিভির এক্সিকিউটিভ ডিরেক্টর অমৃতা পাণ্ডেও। অমৃতা বলেন, "আন্তর্জাতিক বাজারে বরফি খুব ভালো ব্যবসা করছে। দর্শকরা বরফির সঙ্গে একাত্ম হতে পারছে। শুধু ছুটির দিনে নয়, সপ্তাহের বাকি দিনগুলোতেও এরকম হল উপচে পড়া ভিড় এখন প্রায় দেখাই যায় না"।
শুধু ভারতের বাজারে নয়। আন্তর্জাতিক বাজারেও হিরোইনকে টেক্কা দিয়েছে বরফি। দ্বিতীয় সপ্তাহের পর বরফির আয় যেখানে ৪.৮২ মিলিয়ন ডলার, সেখানে প্রথম সপ্তাহে মাত্র ১.৭৬ মিলিয়ন ডলারেই খুশি থাকতে হয়েছে হিরোইনকে। তারওপর উপরি পাওনা অস্কার নমিনেশন তো আছেই।
এমনিতেই বছরটা শুরু থেকেই ভালো যাচ্ছিল না বেবোর। এক ম্যায় অউর এক তু, এজেন্ট বিনোদ কোনও ছবিতেই ঠিক জুত করতে পারেননি করিনা। আর এবার তো কেরিয়ারের `সবথেকে সাহসী চরিত্রে` অভিনয় করেও ভাগ্যে শিকে ছিঁড়লো না। দেড় বছর ধরে দর্শকদের উত্তেজনার পারদ চড়িয়েও শেষমুহূর্তে ক্ষীর খেয়ে গেলেন রণবীর। কী আর করা যাবে বেবো‌‌! শুধু এটাই বলতে পারি, বেটার লাক নেক্সট টাইম।