মঞ্চ শাহরুখের, অ্যাওয়ার্ড সলমনের

বেশ কয়েক বছর ধরে সিঙ্গাপুর, লন্ডন, ম্যাকাও, মরিশাস ও দুবাইতে আসর জমিয়ে আবার ভারতের মাটিতে ফিরে এল জি সিনে অ্যাওয়ার্ডস। গত রবিবার এবছরের জি সিনে অ্যাওয়ার্ডসের আসর বসেছিল মুম্বইয়ের ঐতিহ্যশালী সেই যশরাজ ফিল্মস স্টুডিওতেই। ভারতীয় চলচ্চিত্রের ১০০ বছর উপলক্ষে শ্রদ্ধা আর ভালবাসায় মোড়া ছিল জি সিনে অ্যাওয়ার্ডসের রেড কার্পেট।

Updated: Jan 8, 2013, 08:22 PM IST

বেশ কয়েক বছর ধরে সিঙ্গাপুর, লন্ডন, ম্যাকাও, মরিশাস ও দুবাইতে আসর জমিয়ে আবার ভারতের মাটিতে ফিরে এল জি সিনে অ্যাওয়ার্ডস। গত রবিবার এবছরের জি সিনে অ্যাওয়ার্ডসের আসর বসেছিল মুম্বইয়ের ঐতিহ্যশালী সেই যশরাজ ফিল্মস স্টুডিওতেই। ভারতীয় চলচ্চিত্রের ১০০ বছর উপলক্ষে শ্রদ্ধা আর ভালবাসায় মোড়া ছিল জি সিনে অ্যাওয়ার্ডসের রেড কার্পেট।
অভিষেক বচ্চন আর রিতেশ দেশমুখের সঞ্চালনায় পুরো অনুষ্ঠানই ছিল ফুরফুরে মেজাজের বিনোদনে ভরা। শুরু থেকেই যেন বোঝা যাচ্ছিল এবারের সেরা কৌতূক অভিনেতার দাবিদার অভিষেকেই। শেষ পর্যন্ত হলও তাই। প্রতিবছরের মতো এবছরও সেরার সেরাদের মাথায় স্বীকৃতির মুকুট উঠলেও গোটা বছর জুড়ে ১০০ কোটির ব্যবসা দেওয়া আট পরিচালককে বিশেষ পুরস্কার দিয়েছে জি সিনে অ্যাওয়ার্ডসের মঞ্চ। যা ভারতের অ্যাওয়ার্ডের ইতিহাসে এই প্রথম।
একগুচ্ছ নতুন চমকের পাশাপাশি ছিল চিরাচরিত ঝকঝকে স্টেজ পারফরম্যান্সও। বহুদিন পর এক মঞ্চে নাচলেন শাহরুখ-করিশমা। ছিলেন পুনম ধিঁলোর মতো অভিনেত্রী থেকে ক্যাটরিনা, অনুষ্কার মতো তরুণ তুর্কীরাও। অনুষ্ঠানে স্মরণ করা হয় গত বছরের প্রয়াত কিংবদন্তীদেরও। সবমিলিয়ে ঐতিহ্য, অভিনবত্ব আর আয়োজনের জাঁকজমকে বছরের প্রথম চলচ্চিত্র পুরস্কারের অনুষ্ঠানে দর্শক পেল তাদের সেরা নিউ ইয়ার্স গিফ্ট। আগামী ২০ জানুয়ারি টেলিভিশনে সম্প্রচারিত হবে জি সিনে অ্যাওয়ার্ডস ২০১৩।

একশো কোটির ব্যবসা দেওয়ার জন্য যেইসব পরিচালকেরা বিশেষ পুরস্কার পেলেন-
রোহিত শেঠি(বোল বচ্চন)
করণ মালহোত্র(অগ্নিপথ)
সাজিদ খান(হাউসফুল টু)
প্রভু দেবা(রাউডি রাঠোর)
কবীর খান(এক থা টাইগার)
অনুরাগ বসু(বরফি)
অশ্বিনী ধীর(সন অফ সর্দার)
আরবাজ খান(দাবাং টু)
জনপ্রিয়তার নিরিখে সেরা হলেন যারা-(জি সিনে অ্যাওয়ার্ডস ২০১৩ পপুলার ক্যাটেগরি)
সেরা নায়ক- সলমন খান(দাবাং টু)
সেরা নায়িকা-প্রিয়াঙ্কা চোপড়া(বরফি)
সেরা ছবি-বরফি
সেরা পরিচালক-অনুরাগ বসু(বরফি)

সমালোচকদের বিচারে সেরা-(জি সিনে অ্যাওয়ার্ডস ২০১৩ ক্রিটিকস অ্যাওয়ার্ডস)
সেরা অভিনেতা-রণবীর কপুর(বরফি)
সেরা অভিনেত্রী-বিদ্যা বালন(কাহানি)
সেরা ছবি-কাহানি
সেরা পরিচালক-সুজয় ঘোষ(কাহানি)
অন্যান্য পুরস্কার-
পার্শ্বচরিত্রে সেরা অভিনেতা-নওয়াজউদ্দিন সিদ্দিকি(তালাস)
পার্শ্বচরিত্রে সেরা অভিনেত্রী-অনুষ্কা শর্মা(জব তক হ্যায় জান)
নেগেটিভ চরিত্রে সেরা-ঋষি কপুর(অগ্নিপথ)
কমিক চরিত্রে সেরা-অভিষেক বচ্চন(বোল বচ্চন)
নবাগত পরিচালক-গৌরী শিন্ডে(ইংলিশ ভিংলিশ)
নবাগত অভিনেতা-অর্জুন কপুর(ইশাকজাদে), আয়ুষ্মান খুরানা(ভিকি ডোনার)
নবাগতা অভিনেত্রী-ইয়ামি গৌতম(ভিকি ডোনার), ইলিয়ানা ডি`ক্রুজ(বরফি)

মিউজিক অ্যাওয়ার্ডস-
সেরা মিউজিক-প্রীতম(ককটেল)
সেরা গীতিকার-কৌসর মুনির(পরেশান, ইশাকজাদে)
সেরা গায়িকা-শ্রেয়া ঘোষাল(সাঁস, জব তক হ্যায় জান)
সেরা গায়ক-সোনু নিগম(অভি মুঝ মে হ্যায়, অগ্নিপথ)
সেরা কোরিওগ্রাফি-গণেশ আচারিয়া(চিকনি চামেলি, অগ্নিপথ)
সেরা ব্র্যাকগ্রাউন্ড স্কোর- অজয়-অতুল(অগ্নিপথ)
সা রে গা মা পা সেরা প্রতিভা-শাল্মলী খোলগাড়ে(পরেশান, ইশাকজাদে)

টেকনিক্যাল অ্যাওয়ার্ডস

সেরা অ্যাকশন-রাউডি রাঠোর
সেরা অ্যাকশন পরিচালক-প্রভু দেবা(রাউডি রাঠোর)
সেরা গল্পো-সুজয় ঘোষ, অদ্বৈত কালা(কাহানি)
সেরা চিত্রনাট্য-অনুরাগ বসু(বরফি)
সেরা সংলাপ-তিগমাংশু ধুলিয়া, সঞ্জয় চৌহান(পান সিং তোমার)
সেরা সাউন্ড ডিজাইন-কুণাল শর্মা(গ্যাংস অফ ওয়াসেপুর)
সেরা সিনেমাটোগ্রাফি-রবি বর্মন(বরফি)
সেরা এডিটিং-নম্রতা রাও(কাহানি)
সেরা প্রোডাকশন ডিজাইন-রজত পোদ্দার(বরফি)
বিশেষ পুরস্কার-
ইন্টারন্যাশনাল আইকন(পুরুষ)-শাহরুখ খান
ইন্টারন্যাশনাল আইকন(মহিলা)-ক্যাটরিনা কাইফ
বছরের সেরা গান-রাধা(স্টুডেন্ট অফ দ্য ইয়ার)
সেরা বাণিজ্যিক ছবি-এক থা টাইগার
মিডিয়ার সেরা ব্যবহার-সলমন খান(এক থা টাইগার ও দাবাং টু)