আজ দ্বিমুখী বদলার ম্যাচে কলকাতার সামনে চেন্নাই

আজ দ্বিমুখী বদলার ম্যাচে কলকাতার সামনে চেন্নাই

ঘরের মাঠে ধোনি ধামালের কাছে নাস্তানাবুদ হয়েছিল নাইট বাহিনী। আজ ফিরতি খেলায় সিংহের গুহায় ঢুকে সেই পরাজয়ের প্রতিশোধ নেওয়ার কঠিন চ্যালেঞ্জ গম্ভীরদের সামনে। পরপর তিন ম্যাচ হারের পর আগের ম্যাচে কিংস XI ইলেভেন পাঞ্জাবকে হারিয়ে কিছুটা চনমনে কলকাতা নাইট রাইডার্স। কিন্তু সেই চনমনে ভাব বিধ্বংসী চেন্নাইয়ের উড়ান থামাতে কতখানি সক্ষম হবে সেই নিয়ে নাইটদের অন্দরমহলেই সন্দেহ প্রবল। খাতায় কলমে আজকের লড়াইটা লিগ টেবিলে দু`নম্বরে থাকা চেন্নাই কিংসের সঙ্গে সাত নম্বরে থাকা কলকাতা নাইট রাইডার্সের। এবারের আইপিএলের নিরিখে এটা কিং খানের দলের বদলার ম্যাচও বটে। কিন্তু এর আড়ালে আর একটি অমোঘ সত্যিও যে লুকিয়ে আছে। এই মাঠেই আইপিএল-৫-এর ফাইনালে ধোনির চেন্নাইকে পরাজিত করে চ্যাম্পিয়ন ট্রফিটা দখল করেছিল গম্ভীরের কলকাতা। সেই ইতিহাস মনে হয় না চেন্নাই দলের স্মৃতি থেকে মুছে গেছে। তাই এবারের হিসাবনিকাশের অলক্ষ্যেই আর একটা বদলার কাউন্টডাউনও কিন্তু শুরু হয়ে গেছে। আর ২২ গজে প্রতিশোধের মামলায় মহেন্দ্র সিং ধোনি নামক ব্যক্তিটি যে কতখানি নির্মম সে বিষয়ে সম্যক জ্ঞান আছে নাইট দলের সবারই। তাই আশা করা যায় আজ আরও অনেক ক্রিকেটিয় অঙ্কের সঙ্গে এই ফ্যাক্টরটিও মাথায় নিয়ে খেলতে নামবেন কলকাতার সৈন্যরা।

Updated: Apr 28, 2013, 11:23 AM IST

ঘরের মাঠে ধোনি ধামালের কাছে নাস্তানাবুদ হয়েছিল নাইট বাহিনী। আজ ফিরতি খেলায় সিংহের গুহায় ঢুকে সেই পরাজয়ের প্রতিশোধ নেওয়ার কঠিন চ্যালেঞ্জ গম্ভীরদের সামনে। পরপর তিন ম্যাচ হারের পর আগের ম্যাচে কিংস XI ইলেভেন পাঞ্জাবকে হারিয়ে কিছুটা চনমনে কলকাতা নাইট রাইডার্স। কিন্তু সেই চনমনে ভাব বিধ্বংসী চেন্নাইয়ের উড়ান থামাতে কতখানি সক্ষম হবে সেই নিয়ে নাইটদের অন্দরমহলেই সন্দেহ প্রবল।
খাতায় কলমে আজকের লড়াইটা লিগ টেবিলে দু`নম্বরে থাকা চেন্নাই কিংসের সঙ্গে সাত নম্বরে থাকা কলকাতা নাইট রাইডার্সের। এবারের আইপিএলের নিরিখে এটা কিং খানের দলের বদলার ম্যাচও বটে। কিন্তু এর আড়ালে আর একটি অমোঘ সত্যিও যে লুকিয়ে আছে। এই মাঠেই আইপিএল-৫-এর ফাইনালে ধোনির চেন্নাইকে পরাজিত করে চ্যাম্পিয়ন ট্রফিটা দখল করেছিল গম্ভীরের কলকাতা। সেই ইতিহাস মনে হয় না চেন্নাই দলের স্মৃতি থেকে মুছে গেছে। তাই এবারের হিসাবনিকাশের অলক্ষ্যেই আর একটা বদলার কাউন্টডাউনও কিন্তু শুরু হয়ে গেছে। আর ২২ গজে প্রতিশোধের মামলায় মহেন্দ্র সিং ধোনি নামক ব্যক্তিটি যে কতখানি নির্মম সে বিষয়ে সম্যক জ্ঞান আছে নাইট দলের সবারই। তাই আশা করা যায় আজ আরও অনেক ক্রিকেটিয় অঙ্কের সঙ্গে এই ফ্যাক্টরটিও মাথায় নিয়ে খেলতে নামবেন কলকাতার সৈন্যরা।
কলকাতা দলের হাল হকিকত
গত ম্যাচে পাঞ্জাবের বিরুদ্ধে দুরন্ত জয়ের পর কলকাতার ভেঙে পড়া আত্মবিশ্বাস এখন কিঞ্চিৎ স্বাবলম্বী। গত ম্যাচে অভিজ্ঞ কালিস, বিসলা, মর্গ্যান আর সুনীল নারিনের ফর্ম কিছুটা স্বস্তিতে রেখেছে নাইট আধিনায়ক গৌতম গম্ভীরকে।
নজরে যাঁরা: আজকেও কেকেআর -এর ভাগ্য নির্ভর করছে মর্গ্যান, গম্ভীর, বিসলার ব্যাট, নারিনের বোলিং এবং কালিসের অলরাউন্দ পারফর্মেন্সের উপর।
সুপার ফ্লপ: এবারের আইপিএল `গোল্ডেন কেলা আওয়ার্ড` জাতীয় কোনও পুরষ্কার থাকলে তার এক নম্বর দাবিদার হতেন ইউসুফ পাঠান মহাশয়। দূর্ভাগ্যবশত তিনি কলকাতা নাইট রাইডার্স দলেই ক্রিকেট নামক খেলাটি খেলার চেষ্টা করছেন ইদানিং।
চেন্নাই দলের হাল হকিকত
চেন্নাই এই আইপিএল যথার্ত `টিম` হিসাবে খেলছে। প্রত্যেকের মধ্যে দলের জন্য প্রাণ উজাড় করে দেওয়ার প্রবণতাই আটটি ম্যাচে ছ`টাতেই জয় এনে দিয়েছে চেন্নাইকে। লিগ টেবিলেও তাই বর্তমানে দ`নম্বর জায়গাটাতে জাঁকিয়ে বসেছে তারা। স্বাভাবিক ভাবেই আজকের ম্যাচটাও চেন্নাই খেলতে নামছে ক্লিয়ার ফেভারিট হিসাবে। আজকের ম্যাচে নাইটদের কাছে পরাজিত হলে তা চরম অপ্রত্যাশিত হবে। একমাত্র চেন্নাইয়ের অতিরক্ত আত্মবিশ্বাসে সঙ্গে নাইটদের কোনও ম্যাজিকাল পারফর্মেন্সই ধোনিদের হারের কারণ হতে পারে।
নজরে যাঁরা: এই দলে কাকে ছেড়ে কার দিকে নজর দেওয়া যায়? ক্যাপ্টেন ধোনিতো আছেনই। তাঁর `স্যার` জাদেজাও দুরন্ত ফর্মে। বিধ্বংসী মেজাজে মাইকেল হাসি। বোলিং বিভাগের দায়িত্ব অসাধারণ সামলাচ্ছেন অশ্বিন, ক্রিস মরিস, মোহিত শর্মা।
সুপার ফ্লপ: মুরলি বিজয়। আট ম্যাচে সংগ্রহ মাত্র ১২২।