মিটারে অটো চালাতে নারাজ চালকেরা

মিটারে চালাতে হবে অটো। ভাড়া ঠিক করবে রাজ্য সরকার। তিন মাসের মধ্যে কার্যকর করতে হবে এই ব্যবস্থা। হাইকোর্টের এই নির্দেশ মানতে নারাজ কলকাতার অটো চালকেরা। প্রয়োজনে আদালতে যাওয়ার কথাও ভাবছেন তাঁরা। অটোতে মিটার চালু হলে আয় কমবে তাঁদের, এই যুক্তিতে আদালতে যাওয়ার কথা ভাবছেন ট্যাক্সি মালিকেরাও।

Updated: Mar 9, 2013, 08:46 PM IST

মিটারে চালাতে হবে অটো। ভাড়া ঠিক করবে রাজ্য সরকার। তিন মাসের মধ্যে কার্যকর করতে হবে এই ব্যবস্থা। হাইকোর্টের এই নির্দেশ মানতে নারাজ কলকাতার অটো চালকেরা। প্রয়োজনে আদালতে যাওয়ার কথাও ভাবছেন তাঁরা। অটোতে মিটার চালু হলে আয় কমবে তাঁদের, এই যুক্তিতে আদালতে যাওয়ার কথা ভাবছেন ট্যাক্সি মালিকেরাও।
কলকাতায় অটো চালাতে হবে মিটারে। অটোর ভাড়া ঠিক করে দেবে রাজ্য সরকার। অটোর সামনে কোনও যাত্রীকে বসানো যাবে না। গন্তব্যের আগে কোনও যাত্রীকে ওঠানো বা নামানোও যাবে না। দুটি জনস্বার্থ মামলার ভিত্তিতে  শুক্রবারই এই নির্দেশ দিয়েছে কলকাতা হাইকোর্ট। কিন্তু আদালতের নির্দেশ মানতে নারাজ অটো চালকরা। তাঁদের মতে,  মিটার চালু হলে একলাফে ভাড়া বেড়ে যাবে অনেকটাই। এর জেরে কমবে অটোর যাত্রী সংখ্যা। কমবে তাঁদের আয়।  
 
আইএনটিটিইউসি অনুমোদিত অটো চালক ইউনিয়নের মতে, আদালতের নির্দেশ একতরফা। আদালতের নির্দেশ মানতে নারাজ সিআইটিইউ অনুমোদিত অটো ইউনিয়নও।
 
 
এই মুহূর্তে কুড়ি হাজার অটোকে মিটারের আওতায় আনতে গেলে পরিবহণ ক্ষেত্রে চুড়ান্ত অব্যবস্থা তৈরি হবে বলেও মনে করছেন ইউনিয়ন নেতারা। ডিজেলের তুলনায় গ্যাসের দাম অনেকটাই কম। ফলে মিটারে অটো চললে ট্যাক্সির চেয়ে ভাড়া কম হবে। আর এতেই রুটিরুজিতে টান পড়ার আশঙ্কা করছেন ট্যাক্সি চালক ও মালিকেরা। বিষয়টি নিয়ে আদালতে যেতেও প্রস্তুত তাঁরা। অটোতে মিটার বসানো নিয়ে আদালতের নির্দেশের জেরে পাল্টা মামলা রুজু হতে পারে। এর জেরে গোটা প্রক্রিয়াই আইনি জটের ফাঁসে আটকে পড়ার আশঙ্কা তৈরি হয়েছে।

Tags: