৩১ জুলাই ধর্মঘটের ডাক সিটুর, লাইসেন্স বাতিলের হুমকি মুখ্যমন্ত্রীর

Last Updated: Thursday, July 26, 2012 - 18:54

পেট্রোপণ্যের মূল্যবৃদ্ধির প্রতিবাদে সিটুর ডাকা ৩১ জুলাইয়ের পরিবহণ ধর্মঘটের কড়া বিরোধিতা করবে সরকার। মহাকরণে একথা জানালেন মুখ্যমন্ত্রী মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়। সাংবাদিকদের মুখোমুখি হয়ে তিনি বলেন, সরকার কখনই ধর্মঘট সমর্থন করবে না। পরিবহণ ধর্মঘটের নামে হুলিগানিজম বরদাস্ত করা হবে না। যাঁরা সিপিআইএম, সিটুর দৌরাত্বর কাছে মাথা নত করে সেই দিন বাস, গাড়ি নিয়ে রাস্তায় নামবেন না, তঁদের লাইসেন্স বাতিল করারও হুমকি দেন মুখ্যমন্ত্রী।
সেইসঙ্গেই সরকারি পরিবহণ কর্মচারীদের বেতন আগামী মাস থেকে অনিশ্চিত হতে পারে বলেও জানিয়েছেন মুখ্যমন্ত্রী। এমনকী, পরিবহণে সরকারি ভর্তুকি তুলে নেওয়ার হুমকিও দিয়েছেন তিনি। ধর্মঘট নিয়ে মুখ্যমন্ত্রীর হুমকিকে চ্যালেঞ্জ জানিয়েছেন সিটু নেতা শ্যামল চক্রবর্তী। মুখ্যমন্ত্রীর বক্তব্যের পরই সাংবাদিক সম্মেলন করে শ্যামল চক্রবর্তী বলেন, লাইসেন্স বাতিলের কথা বলে কাকে কী ভয় দেখাচ্ছেন মুখ্যমন্ত্রী? ধর্মঘটের বিরোধিতা করে বাস মালিকদের প্রতি মুখ্যমন্ত্রী সহমর্মিতা দেখাচ্ছেন না বলেও মন্তব্য করেন সিটু নেতা। এর আগে ২৮ ফেব্রুয়ারির ধর্মঘটের দিনও ফতোয়া জারি করেছিলেন মুখ্যমন্ত্রী। কিন্তু তা সত্ত্বেও ধর্মঘট সফল হয়েছিল বলে দাবি করেন শ্যামল চক্রবর্তী।

পেট্রোল ডিজেলের মূল্যবৃদ্ধির প্রতিবাদে আগামী ৩১ জুলাই পরিবহণ ধর্মঘটের ডাক দিয়েছে সিআইটিইউ। সরকারি বাসও থাকবে এই ধর্মঘটের আওতায়। সিটু নেতৃত্বের দাবি, জ্বালানি তেলের অস্বাভাবিক মূল্যবৃদ্ধির পরেও দ্বিচারিতার রাজনীতি করছেন মুখ্যমন্ত্রী। বাসের ভাড়া না বাড়িয়ে পরিবহণে ভর্তুকির দাবিও তুলেছেন সিটু নেতৃত্ব। সিআইটিইউ নেতৃত্বের অভিযোগ, দফায় দফায় জ্বালানি তেলের মূল্যবৃদ্ধির জেরে সাড়ে তিন হাজারেরও বেশি বাস বসে গেছে। ইতিমধ্যেই বন্ধ হয়ে গেছে বহু ট্যাক্সি। সঙ্কটে পরিবহণ শ্রমিকরাও। ভাড়া না বাড়িয়ে পরিবহণে সরকারি ভর্তুকির দাবিতেই সিআইটিইউয়ের তরফে এই ধর্মঘটের ডাক।
মঙ্গলবার পেট্রোপণ্যের মূল্যবৃদ্ধি ঘোষণার পরই কেন্দ্রের বিরুদ্ধে রাস্তায় নামার হুমকি দেন মুখ্যমন্ত্রী। রাজ্য সরকার এক পয়সাও দাম বাড়ায়নি বলে তিনি দাবি করলেও বিরোধী নেতা সূর্যকান্ত মিশ্র তাঁর বক্তব্যের সমালোচনা করে বলেন রাজ্য সরকার কখনই এই মূল্যবৃদ্ধির দায় এড়াতে পারে না। বুধবার জ্বালানি তেলের মূল্যবৃদ্ধির প্রতিবাদে মুখ্যমন্ত্রীর রাস্তায় নেমে আন্দোলনের হুঁশিয়ারিকেও কটাক্ষ করেন সিটু নেতা শ্যামল চক্রবর্তীও। সিটু নেতৃত্ব জানিয়েছেন, ৩১ জুলাই ধর্মঘটে সামিল হওয়ার জন্য অন্যান্য শ্রমিক সংগঠনগুলির সঙ্গেও আলোচনায় বসবেন তাঁরা।
 



First Published: Thursday, July 26, 2012 - 21:14


comments powered by Disqus
Live Streaming of Lalbaugcha Raja