দীর্ঘ ৫২ ঘণ্টা পর মৃত পুলিস কর্মীর বাড়িতে মুখ্যমন্ত্রী

Last Updated: Thursday, February 14, 2013 - 17:14

দুষ্কৃতীদের গুলিতে কলকাতা পুলিসের স্পেশাল ব্রাঞ্চের এস আই তাপস চৌধুরীর নিহত হওয়ার ৫২ ঘণ্টা পর তাঁর বাড়িতে গেলেন মুখ্যমন্ত্রী মমতা বন্দোপাধ্যায়। জানালেন, গোটা ঘটনায় তিনি গভীর ভাবে শোকাহত। সেখানে সাংবাদিকদের তিনি বলেন, আইন আইনের পথে চলবে। একইসঙ্গে তাঁর হুশিয়ারি, এখনও কয়েকজনের নামে মামলা হয়নি। বিষয়টি তিনি দেখবেন। ঘটনার পর থেকেই মন্ত্রী ফিরহাদ হাকিম বলে আসছেন গার্ডেনরিচের ঘটনায় জড়িত সিপিআইএম। কয়েকজনের নামে মামলা এখনও হয়নি, এই বক্তব্যের মাধ্যমে মুখ্যমন্ত্রী ফিরহাদ হাকিমের পাশেই দাঁড়ালেন কিনা, উঠছে সেই প্রশ্ন।
নিহত এসআই তাপস চৌধুরীর বাড়িতে গিয়ে তাঁর মেয়ের কলকাতা পুলিসের ক্লারিকাল ডিপার্টমেন্টে চাকরির কথা ঘোষণা করলেন মুখ্যমন্ত্রী। তার সঙ্গেই ২০১৭ পর্যন্ত নিহত তাপস বাবুর স্ত্রী প্রমোশন ও ইনক্রিমেন্ট সহ তাঁর মাস মাইনের অধিকারি হবেন। তবে এত জন্য তাঁকে চাকরি করতে হবে না। প্রসঙ্গত, ২০১৭ পর্যন্তই তাপসবাবুর চাকরীর কার্যকাল ছিল। অন্যদিকে বীমার ১৫ লক্ষ টাকার সঙ্গেই সরকার থেকে অতিরিক্ত ৫ লক্ষ টাকা পাবেন তাপসবাবুর পরিবার। এছাড়াও মুখ্যমন্ত্রীর ত্রাণ তহবিল থেকে তাপস বাবুর বৃদ্ধা মায়ের জন্য এককালীন ৫ লক্ষ টাকারও ঘোষণা করলেন মমতা বন্দোপাধ্যায়।
এর আগে গার্ডেনরিচকাণ্ডে নিহত এসআই তাপস চৌধুরীর বাড়িতে যান বিরোধী দলনেতা সূর্যকান্ত মিশ্র। দুপুর সাড়ে বারোটা নাগাদ নিহত এসআইয়ের বাড়িতে যান তিনি। নিহত এসআইয়ের পরিবারের প্রতি সমবেদনা জানান। সঙ্গে ছিলেন দক্ষিণ ২৪ পরগনা জেলার সম্পাদক সুজন চক্রবর্তী ও রবিন দেব। তাপস বাবুর স্ত্রী, পুত্র ও কন্যার সঙ্গে দেখা করেন তাঁরা। বিরোধী দলনেতার সঙ্গে দেখা হওয়ার পরেই কান্নায় ভেঙে পড়েন তাপস বাবুর স্ত্রী।



First Published: Thursday, February 14, 2013 - 17:14


comments powered by Disqus