মুখ্যমন্ত্রীর পক্ষে দাবি তুলে এজলাসে বিশৃঙ্খলা ছড়ালেন এক ব্যক্তি

মুখ্যমন্ত্রীর বিরুদ্ধে আদালত অবমাননার মামলার শুনানিতে কলকাতা হাইকোর্টে নজিরবিহীন ঘটনা ঘটে গেল। এজলাসে ঢুকেই গন্ডগোল শুরু করে দিলেন এক ব্যক্তি। বিচার ব্যবস্থার ওপর তীব্র ক্ষোভ প্রকাশ করে ওই ব্যক্তি গ্রেফতার হলেন। পরে ছাড়াও পেলেন।  এই ঘটনায় প্রশ্নের মুখে এসে দাঁড়াল কলকাতা হাইকোর্টের নিরাপত্তা। 

Updated: Dec 7, 2012, 06:25 PM IST

মুখ্যমন্ত্রীর বিরুদ্ধে আদালত অবমাননার মামলার শুনানিতে কলকাতা হাইকোর্টে নজিরবিহীন ঘটনা ঘটে গেল। এজলাসে ঢুকেই গন্ডগোল শুরু করে দিলেন এক ব্যক্তি। বিচার ব্যবস্থার ওপর তীব্র ক্ষোভ প্রকাশ করে ওই ব্যক্তি গ্রেফতার হলেন। পরে ছাড়াও পেলেন।  এই ঘটনায় প্রশ্নের মুখে এসে দাঁড়াল কলকাতা হাইকোর্টের নিরাপত্তা। 
বিধানসভার অনুষ্ঠানে বিচারবিভাগ নিয়ে মুখ্যমন্ত্রীর বক্তব্যের প্রেক্ষিতেই আদালতে মামলা দায়ের করেন আইনজীবী বিকাশরঞ্জন ভট্টাচার্য। প্রধান বিচারপতি প্রতাপ রায় ও বিচারপতি সুবল বৈদ্যর ডিভিশন বেঞ্চে সেই মামলার শুনানি ছিল। শুনানি চলাকালীন এজলাসে ঢুকে পড়েন এক ব্যক্তি।
 
ইন্দ্রজিত বিশ্বাস নামে ওই ব্যক্তি দাবি তোলেন,  "বিচারবিভাগ নিয়ে মুখ্যমন্ত্রী যা বলেছেন তা সত্যি।" এরপরই সাংবাদিকদের উদ্দেশ্যে বেশ কিছু কাগজ ছুঁড়ে দেন তিনি। এজলাসে বিশৃঙ্খলা ছড়ানোর অভিযোগে ওই ব্যক্তিকে গ্রেফতার করে পুলিস। পরে অবশ্য ওই ব্যক্তিকে ছেড়েও দেওয়া হয়।
 
মুখ্যমন্ত্রীর বিরুদ্ধে আদালত অবমাননার এই মামলার শুনানি নতুন করে শুরু হয়েছে শুক্রবার। মামলায় আগেই সামিল করা হয়েছে কয়েকটি টিভি চ্যানেল ও সংবাদপত্রকে। আদালত বন্ধু হিসেবে নিযুক্ত দুই আইনজীবী নিজেদের মতামতও জানিয়েছেন আদালতে। কিন্তু তত্কালীন ভারপ্রাপ্ত প্রধান বিচারপতি কল্যানজ্যোতি সেনগুপ্ত বদলি হয়ে যাওয়ায় মামলাটি এই অবস্থাতেই থেকে যায়। এরপরই  নতুন করে  শুনানি শুরু হয়।  মামলার পরবর্তী শুনানির দিন ১৪ ডিসেম্বর।