মুখ্যমন্ত্রীর দাবি উড়িয়ে দিয়ে কলকাতায় বাড়ছে অপরাধ

গত দুবছরে কলকাতায় পাল্লা দিয়ে বেড়েছে অপরাধ। মুখ্যমন্ত্রী যতই কলকাতার সুরক্ষা নিয়ে গর্ব করুন, কলকাতা পুলিসের তথ্য বলছে, রাজ্যের ক্ষমতা পরিবর্তনের পর মহানগরীতে অপরাধ ক্রমশ বাড়ছে। গত দুবছরে পাল্লা দিয়ে বেড়েছে ধর্ষণ সহ চুরি, ছিনতাই, ও সংঘর্ষের ঘটনা। পরপর অপরাধ যেভাবে বাড়ছে তাতে আতঙ্কিত সাধারণ মানুষ।    

Updated: Feb 3, 2013, 10:23 AM IST

গত দুবছরে কলকাতায় পাল্লা দিয়ে বেড়েছে অপরাধ। মুখ্যমন্ত্রী যতই কলকাতার সুরক্ষা নিয়ে গর্ব করুন, কলকাতা পুলিসের তথ্য বলছে, রাজ্যের ক্ষমতা পরিবর্তনের পর মহানগরীতে অপরাধ ক্রমশ বাড়ছে। গত দুবছরে পাল্লা দিয়ে বেড়েছে ধর্ষণ সহ চুরি, ছিনতাই, ও সংঘর্ষের ঘটনা। পরপর অপরাধ যেভাবে বাড়ছে তাতে আতঙ্কিত সাধারণ মানুষ।    
পরিসংখ্যান বলছে, ২০১০ সালে কলকাতায় ডাকাতির ঘটনা ঘটেনি। চুরির ঘটনা ১৮টি, ছিনতাই ১৫১টি, সংঘর্ষ বা হামলার ঘটনা ২৮২টি এবং ৩২টি ধর্ষণের ঘটনা ঘটেছে।
দুহাজার এগারোর মে মাস পর্যন্ত কলকাতায় ডাকাতির ঘটনা ঘটেনি। সাতটি চুরির ঘটনা ঘটেছে। ছিনতাই হয়েছে ৬২টি। সংঘর্ষের ঘটনা ১০৬টি। ধর্ষণের সংখ্যা ১৪টি।
কলকাতা পুলিসের তথ্য বলছে, জুন থেকে ২০১১ শেষ পর্যন্ত ডাকাতির ঘটনা এক। চুরি ২৭টি, ১৪৫টি ছিনতাইয়ের ঘটনা, ২৪০টি সংঘর্ষের ঘটনা এবং ৩২টি ধর্ষণের ঘটনা ঘটেছে।
পরিসংখ্যান অনুযায়ী ২০১২ সালে অপরাধের সংখ্যা আরও বেড়েছে। পরিসংখ্যান বলছে, ওই বছরে ডাকাতির সংখ্যা আটটি, চুরি ৪৪টি, ৩০৩টি ছিনতাইয়ের ঘটনা, সংঘর্ষের ঘটনা ৩৭৩টি, এবং ধর্ষণের ঘটনা ঘটেছে ১০৯টি। 
মুখ্যমন্ত্রী বলছেন, রাজ্যের মানুষ শান্তিতে আছেন, অথচ কলকাতা পুলিসের দেওয়া অপরাধের পরিসংখ্যান মুখ্যমন্ত্রীর দাবিকে কার্যত প্রশ্নের মুখে দাঁড় করিয়ে দিয়েছে।