ছাত্রীর শ্লীলতাহানিকাণ্ডের অপরাধীরা এখনও অধরা

চব্বিশ ঘণ্টা পরও রাজাবাজার সায়েন্স কলেজের ছাত্রীর শ্লীলতাহানিকাণ্ডে গ্রেফতার হয়নি একজনও। বৃহস্পতিবার কলেজ যাওয়ার পথে চলন্ত বাসে কয়েকজন মদ্যপ দুষ্কৃতী ওই ছাত্রীর শ্লীলতাহানি করে বলে অভিযোগ। আজ কলেজের গেটের বাইরে দুই পুলিসকর্মীকে মোতায়েন করা হলেও সন্তুষ্ট নন ছাত্রছাত্রীরা। এই ঘটনায় পুলিসের কোনও শীর্ষকর্তাকে দিয়ে তদন্ত করানোর নির্দেশ দিয়েছে রাজ্য মানবাধিকার কমিশন।

Updated: Jan 11, 2013, 09:52 PM IST

চব্বিশ ঘণ্টা পরও রাজাবাজার সায়েন্স কলেজের ছাত্রীর শ্লীলতাহানিকাণ্ডে গ্রেফতার হয়নি একজনও। বৃহস্পতিবার কলেজ যাওয়ার পথে চলন্ত বাসে কয়েকজন মদ্যপ দুষ্কৃতী ওই ছাত্রীর শ্লীলতাহানি করে বলে অভিযোগ। আজ কলেজের গেটের বাইরে দুই পুলিসকর্মীকে মোতায়েন করা হলেও সন্তুষ্ট নন ছাত্রছাত্রীরা। এই ঘটনায় পুলিসের কোনও শীর্ষকর্তাকে দিয়ে তদন্ত করানোর নির্দেশ দিয়েছে রাজ্য মানবাধিকার কমিশন।
বৃহস্পতিবার দিনেদুপুরে শিয়ালদার মতো জনবহুল এলাকায় চলন্ত বাসে এক ছাত্রীর শ্লীলতাহানির অভিযোগ উঠেছে। দুষ্কৃতীদের হাত থেকে বাঁচতে চলন্ত বাস থেকেই ঝাঁপ দেন রাজাবাজার সায়েন্স কলেজের ওই ছাত্রী। কলেজের পক্ষ থেকে থানায় লিখিত অভিযোগ দায়ের করা হয়। কিন্তু এফআইআর করা হয়নি মেয়েটির বা পরিবারের পক্ষ থেকে। তাঁদের এগিয়ে না আসার পিছনে সমাজব্যবস্থাকেই দূষছেন ছাত্রছাত্রীরা।     
 
ঢিলেঢালা নিরাপত্তার অভিযোগ করা হয়েছে কলেজ কর্তৃপক্ষের পক্ষ থেকেও। তবে কলেজের গেটে পুলিসকর্মী মোতায়েন কোনও নতুন পদক্ষেপ নয় বলে দাবি কর্তৃপক্ষের। ছাত্রীর শ্লীলতাহানির ঘটনার প্রতিবাদে শুক্রবার প্রতিবাদ মিছিল করে ডিএফও। কলেজ কর্তৃপক্ষর কাছে ডেপুটেশনও জমা দেওয়া হয়।