নেতাজির স্মৃতিসৌধ গড়তে চান মমতা, বিরোধিতায় অশোক ঘোষ

নেতাজির স্মৃতিসৌধ গড়া নিয়েও বিতর্কে জড়ালেন মুখ্যমন্ত্রী। সুভাষচন্দ্রের জন্মভিটে কোদালিয়ায় স্মতিসৌধ গড়বে রাজ্য সরকার। বুধবার নেতাজি ভবনে আয়োজিত অনুষ্ঠানে এ কথা ঘোষণা করেন মুখ্যমন্ত্রী। মুখ্যমন্ত্রীর এই সিদ্ধান্তের তীব্র বিরোধিতা করেছেন ফরওয়ার্ড ব্লকের রাজ্য সম্পাদক অশোক ঘোষ। তাঁর স্পষ্ট ঘোষণা, "মৃত্যু নিয়ে ধোঁয়াশা থাকায় নেতাজির নামাঙ্কিত স্মৃতিসৌধ মেনে নেবেন না বাংলার মানুষ।"

Updated: Jan 23, 2013, 08:27 PM IST

নেতাজির স্মৃতিসৌধ গড়া নিয়েও বিতর্কে জড়ালেন মুখ্যমন্ত্রী। সুভাষচন্দ্রের জন্মভিটে কোদালিয়ায় স্মতিসৌধ গড়বে রাজ্য সরকার। বুধবার নেতাজি ভবনে আয়োজিত অনুষ্ঠানে এ কথা ঘোষণা করেন মুখ্যমন্ত্রী। মুখ্যমন্ত্রীর এই সিদ্ধান্তের তীব্র বিরোধিতা করেছেন ফরওয়ার্ড ব্লকের রাজ্য সম্পাদক অশোক ঘোষ। তাঁর স্পষ্ট ঘোষণা, "মৃত্যু নিয়ে ধোঁয়াশা থাকায় নেতাজির নামাঙ্কিত স্মৃতিসৌধ মেনে নেবেন না বাংলার মানুষ।"
সোমবার ক্যানিংয়ে সভা সেরে ফেরার পথে নেতাজি সুভাষচন্দ্রের জন্মভিটে কোদালিয়ায় গিয়েছিলেন মুখ্যমন্ত্রী। পরদিনই ওই বাড়িটিতে গিয়েছিলেন জেলা প্রশাসনের আধিকারিকেরা। বুধবার নেতাজির ১১৮তম জন্মদিবসে নেতাজি ভবনে আয়োজিত সরকারি অনুষ্ঠান মঞ্চে মুখ্যমন্ত্রী ঘোষণা করেন, আগামী বছরেই কোদালিয়ায়  জন্মভিটেতে নেতাজির স্মৃতি সৌধ তৈরি করবে রাজ্য সরকার।
 
মুখ্যমন্ত্রীর এই ঘোষণার পরই শুরু হয়ে যায় বিতর্ক। রেড রোডে নেতাজিমূর্তিতে মাল্যদান পর্ব শেষ হওয়ার পরপরই স্মৃতিসৌধ নির্মাণ কর্মসূচির বিরোধিতা করা হবে বলে জানিয়ে দেন প্রবীণ ফরওয়ার্ড ব্লক নেতা অশোক ঘোষ। নেতাজির অন্তর্ধান রহস্য নিয়ে ফরওয়ার্ড ব্লকের ঘোষিত অবস্থান জানা রয়েছে মুখ্যমন্ত্রীর। এরপরেও তিনি কীভাবে স্মৃতিসৌধ নির্মাণের কর্মসূচি ঘোষণা করলেন তা নিয়ে প্রশ্ন দেখা দিয়েছে নানা মহলে। বুধবার নেতাজির ১১৮তম জন্মদিবস উপলক্ষ্যে একাধিক অনুষ্ঠানের আয়োজন করা হয়। সকালে শক্তিসংঘ ক্লাবের তরফে বেলতলা গার্লস হাইস্কুল থেকে একটি পদযাত্রায়  অংশ নেন মুখ্যমন্ত্রী। এরপর রাজ্য সরকারের উদ্যোগে নেতাজি ভবনে শুরু হয় মূল অনুষ্ঠান। সেখানে নেতাজির প্রতি শ্রদ্ধাজ্ঞাপন করেন রাজ্যপাল ও মুখ্যমন্ত্রী। উপস্থিত ছিলেন নেতাজি কন্যা অনিতা পাফও। মুখ্যমন্ত্রী জানান আগামী বছরও নেতাজি ভবনেই হবে মূল সরকারি অনুষ্ঠান।