সুটিয়াকাণ্ডে সুনন্দ সান্যালকে আইনি নোটিস তৃণমূলের

শিক্ষাবিদ সুনন্দ সান্যালকে আইনি নোটিস পাঠালেন মন্ত্রী জ্যোতিপ্রিয় মল্লিক। অভিযোগ, সুটিয়াকাণ্ডে তৃণমূল কংগ্রেসের যুক্ত থাকার অভিযোগ করেছেন প্রবীণ শিক্ষাবিদ সুনন্দ সান্যাল। সে কারণেই তাঁকে আইনি নোটিস পাঠানো হয়।

Updated: Mar 29, 2013, 08:44 PM IST

শিক্ষাবিদ সুনন্দ সান্যালকে আইনি নোটিস পাঠালেন মন্ত্রী জ্যোতিপ্রিয় মল্লিক। অভিযোগ, সুটিয়াকাণ্ডে তৃণমূল কংগ্রেসের যুক্ত থাকার অভিযোগ করেছেন প্রবীণ শিক্ষাবিদ সুনন্দ সান্যাল। সে কারণেই তাঁকে আইনি নোটিস পাঠানো হয়।
পাঁচই জুলাই ২০১২। এলাকায় সমাজবিরোধীদের দৌরাত্মের প্রতিবাদ করায় খুন হতে হয়েছিল প্রতিবাদী যুবক বরুণ বিশ্বাসকে। সুঁটিয়ায় ক্রমশ দখল হয়ে যাচ্ছিল  যমুনা খাল। প্রতিবাদ করেছিলেন বরুণ বিশ্বাস। গড়ে উঠেছিল সুঁটিয়া প্রতিবাদী মঞ্চ। এই মঞ্চেরই সম্পাদক ছিলেন বরুণ বিশ্বাস। প্রতিবাদের মাসুলও দিতে হয়েছিল তাঁকে। বাড়ি ফেরার পথে মছলন্দপুর স্টেশনে খুন করা হয়েছিল বরুণ বিশ্বাসকে। খুনের ঘটনায় সুশান্ত চৌধুরী সহ বেশকিছু দুষ্কৃতীর নাম উঠে আসে। এই ঘটনার নিন্দা করেন শিক্ষাবিদ সুনন্দ সান্যাল। তিনি বলেন, "বরুণ বিশ্বাসের হত্যাকারীরা প্রত্যক্ষ বা পরোক্ষভাবে তৃণমূল কংগ্রেসের সঙ্গে যুক্ত।" এই মন্তব্যের পরিপ্রেক্ষিতে এবার শিক্ষাবিদ সুনন্দ সান্যালকে আইনি নোটিস পাঠালেন মন্ত্রী জ্যোতিপ্রিয় মল্লিক।
তবে এখনও নিজের মন্তব্যে অনড় রয়েছেন সুনন্দ সান্যাল। আইনি পরামর্শও নিচ্ছেন তিনি। কথা বলছেন আইনজীবীর সঙ্গে। কয়েকদিনের মধ্যেই আইনি জবাব দেওয়ার প্রস্তুতিও নেওয়া হচ্ছে। একসময়  তৃণমূল কংগ্রেসের প্রায় সব আন্দোলনেরই প্রথম সারিতে ছিলেন শিক্ষাবিদ সুনন্দ সান্যাল। কিন্তু তৃণমূল কংগ্রেস ক্ষমতায় আসার পর থেকেই ক্রমশ দূরত্ব বাড়তে থাকে।  এবার একদা পরিপর্তনপন্থী সুনন্দ সান্যালকেই পড়তে হল তৃণমূলের আইনি কোপে।