রাজবাজার সায়েন্স কলেজের ঘটনায় কুটাকে কটাক্ষ শিক্ষামন্ত্রীর

রাজাবাজারের ঘটনায় কলকাতা বিশ্ববিদ্যালয়ে শিক্ষক সংগঠন কুটার অবস্থান নিয়ে এবার কটাক্ষ করলেন খোদ শিক্ষামন্ত্রী।

Updated: Jul 14, 2014, 11:49 PM IST

রাজাবাজারের ঘটনায় কলকাতা বিশ্ববিদ্যালয়ে শিক্ষক সংগঠন কুটার অবস্থান নিয়ে এবার কটাক্ষ করলেন খোদ শিক্ষামন্ত্রী। সোমবার যোগেশচন্দ্র চৌধুরি কলেজের এক অনুষ্ঠানে শিক্ষামন্ত্রী বলেন, সকলেই তাঁদের দাবি নিয়ে সচেতন, সকলেই অবস্থানে বসছেন। কিন্তু নিজেদের দায়িত্ব নিয়ে কেউই ভাবছে না। এদিকে শিক্ষা মন্ত্রীর এই ঘোষণার ২৪ ঘন্টার মধ্যেই তৃণমূলের অধ্যাপক সংগঠন মঙ্গলবারই কলকাতা বিশ্ববিদ্যালয়ের কলেজস্ট্রীট ক্যাম্পাসে উপাচার্যের কাছে স্মারকলিপি জমা দিতে চলেছে।

শিক্ষামন্ত্রী ছাত্রদের উদ্দেশ্য বলেছিলেন ঘেরাও থেকে সরে আসতে। সেই ঘোষণার কয়েক ঘন্টার মধ্যে তার দলের ছাত্র সংগঠনের কলকাতা বিশ্ববিদ্যালয়ে ঢুকে দাপাদাপি রীতিমত প্রশ্ন তুলেছিল শিক্ষামন্ত্রীর আবেদন কি তাহলে বিফলে গেল। শিক্ষামন্ত্রীও পড়েছিলেন অস্বস্তিতে। যদিও তৃণমূল ছাত্র নেতা শঙ্কুদেব পন্ডা নিজের অবস্থানেই স্থির ছিলেন। বরং শঙ্কু আরও সুর চড়িয়েছিলেন সেদিন অবস্থানে বসা বিশ্ববিদ্যালয়ের অধ্যাপক সংগঠন কুটার বিরুদ্ধে। আর এবার দলের চাপে সেদিন অবস্থানে বসা অধ্যাপকদের কটাক্ষ করলেন শিক্ষামন্ত্রী।

এর আগেও একাধিকবার তৃণমূল ছাত্র পরিষদের চাপে কার্যত ঢোক গিলতে হয়েছে শিক্ষামন্ত্রীকে। রাজাবাজারের ঘটনায় প্রথমে ছাত্রদের সরে আসতে বলেও শেষপর্যন্ত অধ্যাপকদের সমালোচনার মধ্যে কার্যত সেই ঘটনারই পুনরাবৃত্তি দেখছেন অনেকে। এদিকে শিক্ষামন্ত্রী র এই বক্তব্যের ২৪ ঘন্টার মধ্যেই রাজাবাজারের ঘটনায় আসরে নামতে চলেছে তৃণমূলেরই অধ্যাপক সংগঠন ওয়েবকুপা। রীতিমত বিশ্ববিদ্যালয়ের কলেজস্ট্রীট ক্যাম্পাসে জমায়েত তৃণমূল ছাত্র পরিষদের সুরে সুর মিলিয়ে মঙ্গলবার উপাচার্যের কাছে তারা স্মারকলিপি জমা দেবে।

শিক্ষামন্ত্রী ছাত্রদের উদ্দেশ্য বলেছিলেন ঘেরাও থেকে সরে আসতে। সেই ঘোষণার কয়েক ঘন্টার মধ্যে তার দলের ছাত্র সংগঠনের কলকাতা বিশ্ববিদ্যালয়ে ঢুকে দাপাদাপি রীতিমত প্রশ্ন তুলেছিল শিক্ষামন্ত্রীর আবেদন কি তাহলে বিফলে গেল । শিক্ষামন্ত্রীও পড়েছিলেন অস্বস্তিতে। যদিও তৃণমূল ছাত্র নেতা শঙ্কুদেব পন্ডা নিজের অবস্থানেই স্থির ছিলেন। বরং শঙ্কু আরও সুর চড়িয়েছিলেন সেদিন অবস্থানে বসা বিশ্ববিদ্যালয়ের অধ্যাপক সংগঠন কুটার বিরুদ্ধে। আর এবার দলের চাপে সেদিন অবস্থানে বসা অধ্যাপকদের কটাক্ষ করলেন শিক্ষামন্ত্রী।

এর আগেও একাধিকবার তৃণমূল ছাত্র পরিষদের চাপে কার্যত ঢোক গিলতে হয়েছে শিক্ষামন্ত্রীকে। রাজাবাজারের ঘটনায় প্রথমে ছাত্রদের সরে আসতে বলেও শেষপর্যন্ত অধ্যাপকদের সমালোচনার মধ্যে কার্যত সেই ঘটনারই পুনরাবৃত্তি দেখছেন অনেকে। এদিকে শিক্ষামন্ত্রী র এই বক্তব্যের ২৪ ঘন্টার মধ্যেই রাজাবাজারের ঘটনায় আসরে নামতে চলেছে তৃণমূলেরই অধ্যাপক সংগঠন ওয়েবকুপা। রীতিমত বিশ্ববিদ্যালয়ের কলেজস্ট্রীট ক্যাম্পাসে জমায়েত তৃণমূল ছাত্র পরিষদের সুরে সুর মিলিয়ে মঙ্গলবার উপাচার্যের কাছে তারা স্মারকলিপি জমা দেবে।