কংগ্রেস চাইছে তৃণমূলের বিরুদ্ধে জোর আন্দোলন

সোনিয়া গান্ধী চান সর্বশক্তি দিয়ে তৃণমূলের বিরুদ্ধে পশ্চিমবঙ্গে লড়াই করুক তাঁর দল। তিন কেন্দ্রীয় মন্ত্রীও জানিয়ে দিয়েছেন, রাজ্যের বিরুদ্ধে সব ধরনের আন্দোলনে পাওয়া যাবে তাঁদের। কিন্তু বর্তমান সাংগঠনিক শক্তির জেরে পঞ্চায়েতেরে সব আসনে আদৌও কী লড়াই করা সম্ভব, আজ দিনভর কংগ্রেসের সাধারণ সভায় এটাই ছিল মূল আলোচ্য বিষয়।

Updated: Dec 24, 2012, 09:42 PM IST

সোনিয়া গান্ধী চান সর্বশক্তি দিয়ে তৃণমূলের বিরুদ্ধে পশ্চিমবঙ্গে লড়াই করুক তাঁর দল। তিন কেন্দ্রীয় মন্ত্রীও জানিয়ে দিয়েছেন, রাজ্যের বিরুদ্ধে সব ধরনের আন্দোলনে পাওয়া যাবে তাঁদের। কিন্তু বর্তমান সাংগঠনিক শক্তির জেরে পঞ্চায়েতেরে সব আসনে আদৌও কী লড়াই করা সম্ভব, আজ দিনভর কংগ্রেসের সাধারণ সভায় এটাই ছিল মূল আলোচ্য বিষয়।
প্রদেশ কংগ্রেস সভাপতি প্রদীপ ভট্টাচার্যের অভিযোগ, কেন্দ্রীয় প্রকল্পের টাকা নিয়ে দুর্নীতি করছে রাজ্য সরকার। আবার রেলমন্ত্রী অধীর চৌধুরীর অভিযোগ, রেল প্রকল্পের কাজে অসহযোগিতা করছে রাজ্য। আর এক কেন্দ্রীয় মন্ত্রী দীপা দাশমুন্সি ধর্ষণকাণ্ড নিয়ে ফের আঙ্গুল তুলেছেন মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়ের দিকে।
 
কেন্দ্রীয় প্রকল্প, রেল এবং রাজ্যের আইনশৃঙ্খলা পরিস্থিতি, এই ত্রিফলা অস্ত্রেই পঞ্চায়েত নির্বাচনে তৃণমূলের বিরুদ্ধে লড়াই করতে চায় কংগ্রেস। সোমবার প্রদেশ কংগ্রেসের সাধারণ সভা থেকে শুরু হল সেই প্রস্তুতি। শাকিল আহমেদ সহ তিন কেন্দ্রীয় প্রতিমন্ত্রীর উপস্থিতিতে প্রদেশ নেতৃত্ব সিদ্ধান্ত নিয়েছে পঞ্চায়েত নির্বাচনে সর্বশক্তি নিয়োগ করবে তারা। তবে একটা আশঙ্কার মেঘ কিন্তু থেকেই যাচ্ছে কংগ্রেস শিবিরে। একথায় অধীর, দীপা চান তৃণমূলের বিরুদ্ধে জোরদার আন্দোলন।