মাধ্যমিক বাড়ল পাশের হার, কলকাতাকে টেক্কা দিল জেলা

Last Updated: Monday, May 27, 2013 - 15:55

মাধ্যমিক পাশের হার সামান্য বাড়ল। লিখিত পরীক্ষা শেষের ৮২ দিনের মাথায় প্রকাশিত হল মাধ্যমিকের ফল৷ এবার মাধ্যমিকে পাশের হার ৮১.৮১ শতাংশ৷ গতবারের চেয়ে পাশের হার বেড়েছে প্রায় .৭৫ শতাংশ।
জানান আপনার শুভেচ্ছা এখানে ক্লিক করে
এবছর মাধ্যমিকে যুগ্মভাবে সম্ভাব্য প্রথম হয়েছেন বর্ধমানের পারুলিয়া কেকে হাই স্কুলের সৌরাশিস বিশ্বাস ও হুগলী দিলিবাগান কে বি রায় হাইস্কুলের রূপায়ণ কুণ্ডু। দুজনেরই প্রাপ্ত নম্বর ৬৮২। দ্বিতীয় হয়েছেন অনিশা মণ্ডল। তিনি সিউড়ির কালীবতি নারী শিক্ষায়তনের ছাত্রী তাঁর প্রাপ্ত নম্বর ৬৮১।
জেলার জয়জয়কারে পাশের হার সবচেয়ে বেশি পূর্ব মেদিনীপুরে, ৯২.৯০ শতাংশ৷ পাশের হারে দ্বিতীয় দক্ষিণ ২৪ পরগনা৷ সাফল্যের নিরিখে তৃতীয় স্থানে কলকাতা৷ পাশের হার ৮৬.৮৪ শতাংশ। মেধা তালিকায় কলকাতার কারও নাম নেই৷
মাধ্যমিক পর্ষদের তরফে জানানো হয়েছে, আগামী বছর ২৪ ফেব্রুয়ারি থেকে মাধ্যমিক শুরু হবে৷ পরীক্ষা শেষ ৬ মার্চ৷
মোট ১০ লক্ষ ৩৬ হাজার ৬৫৯ জন পরীক্ষার্থী এবছর বসেছিলেন মাধ্যমিক পরীক্ষায়। ছয়ই মার্চ শেষ হয় লিখিত পরীক্ষা। ৪৩ হাজার ৮৯০ জন পরীক্ষক ছিলেন খাতা দেখার দায়িত্বে।

মাধ্যমিকে জেলা ভিত্তিক পাশের শতাংশের হিসাব
দার্জিলিং ৭০.৭১, জলপাইগুড়ি ৬৭.১১, উ: দিনাজপুর ৭৪.৩৩,
দ: দিনাজপুর ৭২.৫৬, মালদা ৮০.৭৭, মুর্শিদাবাদ ৭৫.১৭
বীরভূম ৬৯.৩৯, বর্ধমান ৭৬.৮৯, নদীয়া ৮০.৮১
বাঁকুড়া ৭৬.৫৫, পুরুলিয়া ৭২.৬৬, পশ্চিম মেদিনীপুর ৮৩.৩৪
হুগলী ৮৪.৪৭, ২৪ পরগনা (উ:) ৮৫.৪৩, হাওড়া ৮৫.৬০
২৪ পরগনা (দ:) ৮৬.৬০, পূ: মেদিনীপুর ৯২.৯০, দ: মেদিনীপুর ৮৩.৩৪
কলকাতা ৮৬.৮৪, কোচবিহার ৭১.৭০

সোমবার সকাল নটায় আনুষ্ঠানিকভাবে পরীক্ষার ফল প্রকাশ করেন মধ্যশিক্ষা
পর্ষদের প্রশাসক। সকাল দশটা থেকে বিভিন্ন ক্যাম্প অফিস থেকে স্কুলের
প্রতিনিধিদের হাতে মার্কশিট ও অ্যাডমিটকার্ড তুলে দেওয়া হয়।
ওয়েবসাইটের মাধ্যমেও বেলা এগারোটা থেকে ফল জানতে পারা যায়। যেসব
ওয়েবসাইটের মাধ্যমে ফল জানা গেল, সেগুলি হল-- www. wbbse.org www.
wbresults.nic.in www. examresults.net www. calcuttatelephones.com
ওয়েবসাইটের পাশপাশি এস এম এসের মাধ্যমেও ফল জানতে পারবে ছাত্রছাত্রীরা।
সেক্ষেত্রে ডব্লু বি ওয়ান জিরো লিখে স্পেশ দিয়ে রোল নম্বর দিয়ে তা পাঠিয়ে
দিতে হবে ৫৪২৪২, ৫৬৭৬৭৯৯৯, ৫৬২৬৩, ৫২০৭০ -এই নম্বরে। এছাড়া এই বছর থেকে
www. exametc.com এই ওয়েবসাইটে আগে থেকে রোল নম্বর ও মোবাইল নম্বর নথিভুক্ত
করিয়ে রাখলে ফল প্রকাশের সঙ্গে সঙ্গে এস এম এসের মাধ্যমে মোবাইলে তা জানতে
পারেন ছাত্রছাত্রীরা ।



First Published: Monday, May 27, 2013 - 18:08


comments powered by Disqus