টেট কেলেঙ্কারির কথা প্রধানমন্ত্রীও জানলেন, উঠল কেন্দ্রীয় হস্তক্ষেপের দাবি

Last Updated: Sunday, February 2, 2014 - 23:40

চব্বিশ ঘণ্টার স্টিং অপারেশনে ফাঁস হয়েছে টেট কেলেঙ্কারি। লক্ষ লক্ষ প্রার্থীর সঙ্গে প্রতারণার খবরে তোলপাড় রাজ্য রাজনীতি। এবার প্রধানমন্ত্রীও জানলেন দুর্নীতির খবর। টেট কেলেঙ্কারিতে কেন্দ্রীয় হস্তক্ষেপের দাবি জানিয়ে প্রধানমন্ত্রীর সঙ্গে দেখা করলেন প্রদেশ কংগ্রেস নেতারা।

শিক্ষা আধিকারিকের বিস্ফোরক অডিও। বেছে বেছে শাসকদলের নেতাকর্মীদের আত্মীয়দের চাকরি। তৃণমূলের শীর্ষ নেতাদের যুক্ত থাকার অভিযোগ। চব্বিশ ঘণ্টায় সম্প্রচার হয়েছে টেট দুর্নীতির একের পর এক খবর। রাজ্যজুড়ে ছড়িয়েছে চাকরি না পাওয়া প্রার্থীদের ক্ষোভ। সমালোচনায় সরব বিরোধীরাও।

লক্ষলক্ষ চাকরি প্রার্থীর সঙ্গে প্রতারণা। তবু প্রধান অভিযুক্তের ওপরই আস্থা রেখে দুর্নীতির তদন্তের সম্ভাবনা উড়িয়ে দিয়েছেন শিক্ষামন্ত্রী। সুবিচারের আশায় তাই হাইকোর্টের দ্বারস্থ হয়েছেন এক পরীক্ষার্থী। এবার প্রধানমন্ত্রীর কাছেও পৌছল দুর্নীতির তথ্য। প্রধানমন্ত্রীর হাতে টেট দুর্নীতির যাবতীয় নথি তুলে দিলেন প্রদেশ কংগ্রেস নেতারা।

টেট দুর্নীতিতে অভিযুক্তদের শাস্তি দিতে কেন্দ্রীয় হস্তক্ষেপ দাবি করেছেন প্রদেশ কংগ্রেস নেতারা। এর ফলে টেট ঘিরে রাজ্যের অস্বস্তি আরও বাড়ল বলেই মনে করছেন রাজনৈতিক বিশ্লেষকরা।

প্রধানমন্ত্রীর সঙ্গে দেখা করে রায়গঞ্জে এইমসের ধাঁচে হাসপাতাল তৈরির দাবি জানালেন প্রদেশ কংগ্রেস নেতারা। আজ রাজভবনে তাঁরা প্রধানমন্ত্রীর সঙ্গে দেখা করেন। রাজ্যে মহিলাদের ওপর একের পর এক নির্যাতনের ঘটনার অভিযোগ করেন।

রাজ্যে মহিলা কমিশনের চেয়ারপার্সনকে পাঠানোর আশ্বাস দিয়েছেন প্রধানমন্ত্রী। কংগ্রেস প্রতিনিধি দলে ছিলেন প্রদীপ ভট্টাচার্য, সোমেন মিত্র, মানস ভুঁইঞা, আবদুল মান্নান। ছিলেন এআইসিসি নেতা শাকিল আহমেদ খান।

প্রধানমন্ত্রীর অনুরোধে অনশন প্রত্যাহার করতে পারেন কংগ্রেস নেত্রী দীপা দাশমুন্সি। আজ দুপুরে সাংবাদিক সম্মেলন করে অনশন ভাঙবেন দীপা। রায়গঞ্জে এইমস এর ধাঁচে হাসপাতাল গড়ার দাবিতে গত তিন দিন ধরে অনশন করছিলেন দীপা।

কলকাতায় এসে অনশন তুলে নিতে দীপা দাশমুন্সিকে অনুরোধ করেন প্রধানমন্ত্রী মনমোহন সিং। আজ রাজভবন থেকে দীপা দাশমুন্সির সঙ্গে ফোনে কথা বলেন প্রধানমন্ত্রী। প্রধানমন্ত্রী জানিয়েছেন, রায়গঞ্জে যাতে এইমস হয় তার জন্য উদ্যোগ নেওয়া হবে। প্রধানমন্ত্রীর ফোনের পরই অনশন তোলার সিদ্ধান্ত নেন দীপা দাসমুন্সি।

প্রধানমন্ত্রীর সঙ্গে দেখা করে রায়গঞ্জে এইমসের ধাঁচে হাসপাতাল তৈরির দাবি জানিয়েছেন প্রদেশ কংগ্রেস নেতারা। এদিনই রাজভবনে তাঁরা প্রধানমন্ত্রীর সঙ্গে দেখা করেন। রাজ্যে মহিলাদের ওপর একের পর এক নির্যাতনের ঘটনার অভিযোগ করেন।

রাজ্যে মহিলা কমিশনের চেয়ারপার্সনকে পাঠানোর আশ্বাস দিয়েছেন প্রধানমন্ত্রী। কংগ্রেস প্রতিনিধি দলে ছিলেন প্রদীপ ভট্টাচার্য, সোমেন মিত্র, মানস ভুঁইঞা, আবদুল মান্নান। ছিলেন এআইসিসি নেতা শাকিল আহমেদ খান।



First Published: Sunday, February 2, 2014 - 18:56


comments powered by Disqus