শহরে এবার সোয়াইন ফ্লুয়ের থাবা

Last Updated: Sunday, April 14, 2013 - 16:02

তিন বছর পর ফের উদ্বেগ বাড়াচ্ছে সোয়াইন ফ্লু। উত্তর চব্বিশ পরগনার জগদ্দলের পর এবার সোয়াইন ফ্লুয়ের থাবা কলকাতায়। আক্রান্ত জোড়াসাঁকো দর্পনারায়ণ স্ট্রিটের বাসিন্দা ৬২ বছরের এক পৌর।  নাম রঞ্জিত রায়। বেলেঘাটা আইডি হাসপাতালে চিকিতসাধীন তিনি। আক্রান্তের সংখ্যা বাড়ার আশঙ্কায় রাজ্যের হাসপাতালগুলিকে সতর্ক থাকতে বলা হয়েছে।
প্রবল শ্বাসকষ্ট নিয়ে বৃহস্পতিবার রাতে সল্টলেকের একটি বেসরকারি হাসপাতালে ভর্তি হন জোড়াসাঁকোর দর্পনারায়ণ স্ট্রিটের বাসিন্দা রঞ্জিত রায়। সোয়াব টেস্টের জন্য নমুনা পাঠানো হয় বেলেঘাটার নাইসেডে। শনিবার রিপোর্টে ধরা পড়ে এইচওয়ান এনওয়ান ভাইরাসে আক্রান্ত তিনি। রবিবার স্বাস্থ্য দফতরের নির্দেশে বেলেঘাটা আইডি হাসপাতালে স্থানান্তরিত করা হয় তাঁকে।
 
গত সপ্তাহে চন্দ্রা খাতুন নামে শ্যামনগরের এক বালিকার দেহে সোয়াইন ফ্লুয়ের সংক্রমণ ধরা পরে। রাজ্যে তিন বছর পর ফের এইচওয়ান এনওয়ান ভাইরাসের সংক্রমণ বাড়তে থাকায় উদ্বিগ্ন স্বাস্থ্য দফতর। আক্রান্তের সংখ্যা বাড়ার আশঙ্কায় প্রস্তুত থাকতে বলা হয়েছে বেলেঘাটা আইডি হাসপাতালকে। সতর্ক করা হয়েছে কলকাতার মেডিক্যাল কলেজ হাসপাতালগুলিকেও। সোয়াইন ফ্লু লক্ষ্ণন নিয়ে আউটডোরে রোগী এলে সোয়াব টেস্টের জন্য নাইসেডে নমুনা পাঠাতে বলা হয়েছে। এইচওয়ান এনওয়ান ভাইরাস পজিটিভ হলে সঙ্গে সঙ্গে তা স্বাস্থ্য দফতরকে জানাতে বলা হয়েছে।
 
কীভাবে এই ব্যক্তি এইচওয়ান এনওয়ান ভাইরাসে আক্রান্ত হলেন তা পরীক্ষা করতে  জোড়াসাঁকো এলাকায় বিশেষজ্ঞ দল পাঠাচ্ছে স্বাস্থ্য দফতর। সংক্রমণের আশঙ্কায় কোনও রকম ঝুঁকি নিতে নারাজ স্বাস্থ্য কর্তারা। সল্টলেকের বেসরকারি হাসপাতালের যে ওয়ার্ডে ভর্তি ছিলেন রঞ্জিত রায়, সেখানকার অন্যান্য রোগী, চিকিতসক, নার্স এবং স্বাস্থ্য কর্মীদের ট্যামি ফ্লু ট্যাবলেট  দেওয়ার সিদ্ধান্ত নেওয়া হয়েছে। 



First Published: Sunday, April 14, 2013 - 16:02


comments powered by Disqus