তৃণমূলে এবার রায় কাজিয়া, সৌগত বনাম মুকুলের বিবৃতির লড়াই

মঞ্চে বসিয়ে নাম না করে  সৌগত রায়কে বোদ্ধা বললেন মুকুল রায়। তাঁর দাবি, তৃণমূলের জন্মলগ্নে অনেক বোদ্ধাই দলে যোগ দেননি। সেবারের লোকসভা নির্বাচনে মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়ের বিরুদ্ধে প্রার্থী হয়েছিলেন সৌগত রায়। কিন্তু তাঁকে, এভাবে প্রকাশ্যে বোদ্ধা বলা দারুন ক্ষুদ্ধ সৌগত অনুগামীরা। দলের জন্মদিনে প্রতিবছরই নিজে সমাবেশ করতেন তৃণমূল সুপ্রিমো মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়। রাজ্যের পরিবর্তনের পর এখন আর সমাবেশ নয়, ফেসবুকেই শুভেচ্ছা জানিয়েছেন তিনি।

Updated: Jan 1, 2013, 07:29 PM IST

মঞ্চে বসিয়ে নাম না করে  সৌগত রায়কে বোদ্ধা বললেন মুকুল রায়। তাঁর দাবি, তৃণমূলের জন্মলগ্নে অনেক বোদ্ধাই দলে যোগ দেননি। সেবারের লোকসভা নির্বাচনে মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়ের বিরুদ্ধে প্রার্থী হয়েছিলেন সৌগত রায়। কিন্তু তাঁকে, এভাবে প্রকাশ্যে বোদ্ধা বলা দারুন ক্ষুদ্ধ সৌগত অনুগামীরা। দলের জন্মদিনে প্রতিবছরই নিজে সমাবেশ করতেন তৃণমূল সুপ্রিমো মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়। রাজ্যের পরিবর্তনের পর এখন আর সমাবেশ নয়, ফেসবুকেই শুভেচ্ছা জানিয়েছেন তিনি।
 
মুখ্যমন্ত্রীর শুভেচ্ছার মূলকথা...
 
মা মাটি মানুষের সরকার চলছে, সাধারণ মানুষের স্বার্থের জন্য সবকিছু ত্যাগ করতে রাজি এই সরকার। ঐক্যবদ্ধভাবে লড়াই করছেন তৃণমূলের কর্মীরা।
 মুখ্যমন্ত্রী যখন তাঁর ফেসবুক বার্তায় ঐক্যবদ্ধ তৃণমূলের ছবিটা তুলে ধরার চেষ্টা করেছেন ঠিক তখনই দলের দুই শীর্ষনেতার কাজিয়া উঠে এল প্রকাশ্যে। মধ্যমগ্রামে তৃণমূল দলীয় কার্যালয়ে উদ্বোধনে উপস্থিত ছিলেন মুকুল রায় এবং সৌগত রায়। দলের সাংসদের দাবি, ২০০৯ সালের আগে যাঁরা তৃণমূলে এসেছেন তাঁরাই থাক প্রথম সারিতে। এরপরই নাম না করে সৌগতবাবুর বিরুদ্ধে সরাসরি কটাক্ষ মুকুল রায়ের।
সৌগতবাবুকেই কী বোদ্ধা বলে কটাক্ষ করলেন মুকুল রায়? শুরু হয়েছে জল্পনা। কেন  জল্পনা? ১৯৯৮ সালে তৃণমূলের জন্মের পরের বছর কংগ্রেস-এর প্রতীকে মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়ের বিরুদ্ধে প্রার্থী হয়েছিলেন সৌগত রায়। মুকুলবাবুর কথায়, বোদ্ধারা তখন দলে যোগ দেননি। অর্থাত্‍, সৌগত রায়কেই বোদ্ধা বলে কটাক্ষ করলেন মুকুল রায়। তৃণমূল ক্ষমতায় আসার পর থেকে আদি তৃণমূলের সঙ্গে নব্য তৃণমূলের লড়াই এখন  সবর্ত্র। আর এই লড়াইটা যে এখন শীর্ষস্তরেও পৌঁছে গিয়েছে তা আরও একবার দেখিয়ে দিল মুকুল সৌগত কাজিয়া।