ব্যঙ্ক থেকে টাকা হাতিয়ে ফেরার ভুয়ো প্রকাশক

Last Updated: Friday, December 7, 2012 - 22:03

প্রকাশনা সংস্থার প্রতিনিধি পরিচয় দিয়ে অভিনব প্রতারণার ঘটনা ঘটল সন্তোষপুরের ইস্ট এন্ড পার্ক এলাকায়। দুপুরে স্বামীর সঙ্গে বাড়িতে ছিলেন সন্তোষপুর মর্ডান ল্যান্ড স্কুলের প্রাক্তণ প্রধান শিক্ষিকা বৃদ্ধা গীতা কর।
দুপুর পৌনে একটা নাগাদ ইন্টারন্যাশনাল পাবলিকেশন সেন্টারের প্রতিনিধি পরিচয় দিয়ে বাড়িতে হাজির হন এক প্রৌঢ়। গীতা দেবীকে প্রকাশনী সংস্থার গ্রাহক হতে অনুরোধ করেন ওই ব্যক্তি। অনুরোধে রাজি হয়ে যান গীতা দেবীও। মেম্বারশিপ বাবদ ওই ব্যক্তিকে ৩০ টাকা দিতে যান তিনি। অভিযোগ, এরপর সংস্থার নিয়মের দোহাই দিয়ে ওই ব্যক্তি গীতা দেবীকে ৩০ টাকার চেক লিখে দিতে বলেন ওই ব্যক্তি।
চেক নিয়ে ওই ব্যাক্তি চলে গেলে সন্দেহ হয় কর পরিবারের। ওই ব্যক্তির দেওয়া ব্যাগ খুলে গীতা দেবী দেখেন, তাতে রয়েছে একটি টেবিল ক্যালেন্ডার, ডায়েরি এবং একটি ডকুমেন্টরি বই। ওই ব্যক্তিকে দেওয়া চেক বাতিল করতে, স্বামীকে নিয়ে ইউকো ব্যাঙ্কের সন্তোষপুর শাখায় ছুটে যান গীতা দেবী। সেখানেই জানা যায় ৩০ টাকার চেকটিকে ৪৫ হাজার ৬৩০টাকার চেক বানিয়ে ব্যাঙ্ক থেকে নগদ টাকা তুলে নিয়েছে ওই প্রতারক। গোটা অপারেশনটি সারা হয়েছে ৪০ মিনিটের মধ্যে। কর পরিবারের অভিযোগের ভিত্তিতে তদন্তে নেমেছে গড়ফা থানার পুলিস। ব্যাঙ্কের সিসিটিভিতে ধরা পড়েছে প্রতারকের ছবিও।



First Published: Friday, December 7, 2012 - 22:03


comments powered by Disqus