এলাহাবাদের পথে রেলমন্ত্রী, পদত্যাগ আজম খানের

এলাহাবাদ রেল স্টেশনে পদপিষ্ট হয়ে মৃত্যুর ঘটনায় কুম্ভমেলার দায়িত্ব থেকে সরে দাঁড়ালেন আজম খান। আজ সকালেই পদত্যাগের সিদ্ধান্তের কথা জানান উত্তরপ্রদেশ মন্ত্রিসভার ওই গুরত্বপূর্ণ সদস্য। অন্যদিকে পরিস্থিতি খতিয়ে দেখতে সোমবারই এলাহাবাদের উদ্দেশে রুনা দিয়েছেন কেন্দ্রীয় রেলমন্ত্রী পবন কুমার বনসল।

Updated: Feb 11, 2013, 07:28 PM IST

এলাহাবাদ রেল স্টেশনে পদপিষ্ট হয়ে মৃত্যুর ঘটনায় কুম্ভমেলার দায়িত্ব থেকে সরে দাঁড়ালেন আজম খান। আজ সকালেই পদত্যাগের সিদ্ধান্তের কথা জানান উত্তরপ্রদেশ মন্ত্রিসভার ওই গুরত্বপূর্ণ সদস্য। অন্যদিকে পরিস্থিতি খতিয়ে দেখতে সোমবারই এলাহাবাদের উদ্দেশে রুনা দিয়েছেন কেন্দ্রীয় রেলমন্ত্রী পবন কুমার বনসল।
এ দিন দিল্লিতে সাংবাদিকদের মুখোমুখি হয়ে তিনি বলেন, "স্টেশনে কোনও ফুট ব্রিজ ভেঙে পড়েনি। আমি এ কথা পরিষ্কার করে দিতে চাই, দুর্ঘটনাটি ঘটে বহু সংখ্যক মানুষের সমাগমের কারণে। কুম্ভ মেলা শুরুর আগে থেকেই আমরা যাবতীয় ব্যবস্থা গ্রহণ করেছিলাম।" তবে এত সংখ্যক পুণ্যার্থীর ভিড় সামলানো সম্ভব হয়নি বলেও স্বোকার করে নেন রেলমন্ত্রী।
তিনি আরও বলেন, "প্রধানমন্ত্রীর ঘোষণা করা ক্ষতিপূরণের পাশাপাশি রেলমন্ত্রক দুর্ঘটনায় মৃত পরিবার পিছু এক লক্ষ টাকা, আহতদের পরিবার পিছু ৫০ হাজার এবং সামান্য আঘাত লেগেছে এমন আহতদের পরিবার পিছু ২৫ হাজার টাকা ক্ষতিপূরণ দেবে।"
রেলওয়ে বোর্ডের চেয়ারম্যান বিনয় মিত্তলও বেলমন্ত্রীর সঙ্গে দুর্ঘটনা পর্যবেক্ষণের জন্য ঘটনাস্থলে যাচ্ছেন।
ঘটনার তদন্তে রেলের রাজস্ব বোর্ডের চেয়ারম্যানের নেতৃত্বে কমিটি গঠন হয়েছে। তদন্তের নির্দেশ দিয়েছে উত্তরপ্রদেশ সরকারও। রাজ্যের মুখ্যমন্ত্রী অখিলেশ যাদব ঘটনায় শোকপ্রকাশ করেছেন। রাজ্যের উচ্চপদস্থ আধিকারিকদের ঘটনার ওপর নজর রাখতে বলা হয়েছে। ঘটনার জন্য রেলের ওপরই দায় চাপিয়েছে শাসক দল সমাজবাদী পার্টি। ঘটনার তদন্ত এবং দুর্ঘটনাগ্রস্তদের দ্রুত ক্ষতিপূরণের দাবিতে সরব বিজেপি নেতৃত্ব।