দিল্লি গণধর্ষণ: ষষ্ঠ অভিযুক্ত নাবালক, রায় জুভেনাইল বোর্ডের

দিল্লি গণধর্ষণ কাণ্ডে ষষ্ঠ অভিযুক্তকে নাবালক হিসেবেই গণ্য করা হবে। সোমবার ভারতের জুভেনাইল জাস্টিস বোর্ড এই রায় দিয়েছে। ষষ্ঠ অভিযুক্তর বয়সের প্রমাণ স্বরূপ তার হাড়ের বিশেষ ধরণের পরীক্ষা (অসিফিকেশন) করানোর জন্য আদালতে আবেদন জানানো হয়েছিল।

Updated: Jan 28, 2013, 08:52 PM IST

দিল্লি গণধর্ষণ কাণ্ডে ষষ্ঠ অভিযুক্তকে নাবালক হিসেবেই গণ্য করা হবে। সোমবার ভারতের জুভেনাইল জাস্টিস বোর্ড এই রায় দিয়েছে। ষষ্ঠ অভিযুক্তর বয়সের প্রমাণ স্বরূপ তার হাড়ের বিশেষ ধরণের পরীক্ষা (অসিফিকেশন) করানোর জন্য আদালতে আবেদন জানানো হয়েছিল। কিন্তু এ দিন জুভেনাইল জাস্টিস বোর্ড জানিয়েছে, অভিযুক্তর স্কুলের সার্টিফিকেটে উল্লিখিত জন্ম তারিখের ভিত্তিতে তাকে নাবালক হিসেবেই গণ্য করা হবে। হাড়ের পরীক্ষার প্রয়োজন নেই।
অভিযুক্তর সার্টিফিকেটে তার জন্ম তারিখ রয়েছে ৪ জুন, ১৯৯৫। সেই হিসেবে সংঘটিত অপরাধের দিন, অর্থাত্‍ ১৬ ডিসেম্বর ২০১২ তারিখে তার বয়স ছিল ১৭ বছর ৬ মাস ১১ দিন। এ দিন শুনানির পর আইনজীবী ইশকরণ সিং ভান্ডারী বলেন, "অভিযুক্ত নাবালক। তার স্কুলের সার্টিফিকেটে উল্লিখিত জন্ম তারিখ ৪ জুন, ১৯৯৫-এর ভিত্তিতে তাকে নাবালক হিসেবে ঘোষিত করেছে জুভেনাইল জাস্টিস বোর্ড। আগামী জুন মাসে তার ১৮ বছর বয়স পূর্ণ হবে"।
আইন অনুযায়ী বয়সের প্রমাণপত্রের অনুপস্থিতিতে হাড়ের পরীক্ষার মাধ্যমে অভিযুক্তের বয়স নির্ধারণ করা হয়। কিন্তু এক্ষেত্রে অভিযুক্ত আদালতে বয়সের প্রমাণপত্র পেশ করায়, সেটাকেই চূড়ান্ত হিসেবে ধরে নেওয়া হবে।
রিপোর্ট অনুযায়ী দিল্লি গণধর্ষণ কাণ্ডে ষষ্ঠ অভিযুক্তর ভূমিকাই ছিল সবথেকে নৃশংস। যাঁরা ষষ্ঠ অভিযুক্তের অসিফিকেশন পরীক্ষার জন্য আবেদন করেছিলেন, এ দিনের শুনানির পর, তাঁরা উচ্চতর আদালতে যাওয়ার সিদ্ধান্ত নিয়েছেন।