হোলি@কেয়ার

হোলি@কেয়ার

হোলি@কেয়ার হোলির মজা যেরকম প্রচুর সেরকমই এদিন দুর্ঘটনা ঘটার সম্ভাবনাও থাকে প্রচুর। রঙের প্রভাবে ত্বক, চুলের সমস্যা হওয়া ছাড়াও মজার ঘোরে ঘটে যেতে পারে বড়সড় রকমের অঘটনও। একটা রঙিন দিনের জন্য আগামী কয়েকটা দিন যাতে বেরঙ না হয়ে যায় সেই জন্য রইল বিশেষজ্ঞ চিকিতসকদের দশটি টিপস।

১.রং লাগানোর পর যদি জ্বালা করতে থাকে বা চুলকোতে শুরু করে সঙ্গে সঙ্গে রং ধুয়ে ফেলুন। জল দিয়ে ভাল করে ধোয়ার পর বরফ লাগিয়ে ক্যালামাইন লোশন লাগিয়ে নেবেন। এই অবস্থায় রোদে একেবারেই থাকবেন না। ঘরে পাখার তলায় বসে থাকুন।

২. রং তুলতে ত্বক বেশি ঘষাঘষি করবেন না। পুরো রং না গেলেও অসুবিধা নেই। ২-৩ দিনে এমনিই চলে যাবে। কিন্তু বেশি ঘষলে আরও খারাপ।

৩. ঘরেই বেসন আর দুধ মিশিয়ে পেস্ট বানিয়ে রং তুলতে পারেন। গ্লিসারিনের সঙ্গে কয়েক ফোঁটা অ্যারোমা তেল ও সৈন্ধব লবণ মিশিয়ে মুখে লাগাতে পারেন। সৈন্ধব লবণে অ্যান্টি ব্যাকটিরিয়াল উপাদান রয়েছে যা ত্বকে ক্ষতিকারক রাসায়নিক ক্রিয়া আটকাতে সাহায্য করবে।

৪. হাতের কাছে পেন কিলার, অ্যান্টি-অক্সিড্যান্ট, অ্যান্টি-অ্যালার্জিক ট্যাবলেট সবসময় রাখবেন।

৫. ওয়েট টিস্যু বা ন্যাপকিন নিয়ে খেলতে বেরোবেন।

৬. খেলার সময় ডেন্টাল ক্যাপ পরে খেলতে পারলে খুব ভাল। কেউ জোর করে রং মাখাতে এলে চোখ বুজে রাখবেন, ঠোঁট চেপে বন্ধ করে রাখবেন। কন্টাক্ট লেন্স পরে খেলবেন না।

৭. পিছন থেকে, জোর করে চেপে ধরে বা মাটিতে ফেলে কাউকে রং মাখানো থেকে বিরত থাকুন।

৮. খেলার মজায় ভেজা রাস্তায় দৌড়বেন না বা লাফাবেন না। পরে গেলে হাত, পা ভেঙে বড়সড় রকমের দুর্ঘটনা ঘটতে পারে।

৯. গাড়ি নিয়ে রাস্তায় বেরোলে কাঁচ পুরো তুলে রাখবেন। হঠাত্ ছোঁড়া আবীর বা রং এসে লাগলে চোখের মারাত্মক ক্ষতি হতে পারে। গলি এড়িয়ে চলুন।

১০. নেশা করে থাকলে গাড়ি বা বাইক চালাবেন না।





First Published: Sunday, March 24, 2013, 11:29


comments powered by Disqus