গুগলে বিতর্কিত মার্কিন ছবির লিঙ্ক ব্লক করতে অনুরোধ স্বরাষ্ট্রমন্ত্রকের

বিতর্কিত মার্কিন ছবির প্রতিবাদে মধ্য প্রাচ্য জুড়ে অশান্তির জেরে ছবিটি ব্লক করতে নির্দেশ দিল স্বরাষ্ট্র মন্ত্রক। গতকালই জম্মু-কাশ্মীর সরকার এই বিষয়ে স্বরাষ্ট্রমন্ত্রকের কাছে আবেদন জানিয়েছিল।

Updated: Sep 14, 2012, 12:46 PM IST

বিতর্কিত মার্কিন ছবির প্রতিবাদে মধ্য প্রাচ্য জুড়ে অশান্তির জেরে ছবিটি ব্লক করতে নির্দেশ দিল স্বরাষ্ট্র মন্ত্রক। গতকালই জম্মু-কাশ্মীর সরকার এই বিষয়ে স্বরাষ্ট্রমন্ত্রকের কাছে আবেদন জানিয়েছিল। শুক্রবার ভারতের কম্পিউটার এমারর্জেন্সি রেসপন্স টিমের ডিরেক্টর জেনারেলকে ছবির লিঙ্ক সংক্রান্ত সমস্ত ওয়েবসাইট ব্লক করতে অনুরোধ জানায় স্বরাষ্ট্র মন্ত্রক। সেইসঙ্গেই গুগলের কাছেও ছবির সমস্ত ইউআরএল তুলে নেওয়ার অনুরোধ জানিয়েছে ভারত সরকার।
ইতিমধ্যেই মিশর এবং লিবিয়ায় ছবিটি ব্লক করেছে গুগল। পাকিস্তান টেলিকমিউনিকেশন অথরিটির তরফে ইউটিউব এবং অন্যান্য সাইট থেকে ছবির ট্রেলর ব্লক করা হয়েছে। যদিও ইউটিউব ছবির ট্রেলর তুলে না নেওয়ার সিদ্ধান্ত নিয়েছে। শুধুমাত্র মিশর এবং লিবিয়ার মতো দেশগুলিতে ছবিটি ব্লক করা হয়েছে বলে ইউটিউবের পক্ষ থেকে জানানো হয়েছে।
শুক্রবারই জম্মু-কাশ্মীরের ধর্মগুরু বসিরুদ্দিন আহমেদ সমস্ত মার্কিন পর্যটককে যত তাড়াতাড়ি সম্ভব কাশ্মীর ছাড়তে অনুরোধ করেছেন। ইসলাম ধর্মাবলম্বীদের মধ্যে যেভাবে বিক্ষোভ ছড়িয়ে পড়ছে তাতে মার্কিন পর্যটকদের নিরাপত্তার খাতিরেই তিনি এই অনুরোধ করেছেন বলে জানান ধর্মগুরু।
বিতর্কিত মার্কিন ছবির প্রতিবাদে অশান্তি অব্যাহত মধ্য প্রাচ্যের দেশগুলিতে। মিশরের কায়রোয় মার্কিন দূতাবাসে হামলা থেকে শুরু হয়ে লিবিয়ায় মার্কিন রাষ্ট্রদূত সহ ৪ জনের মৃত্যুর মতো ঘটনাতেও বিক্ষোভ থামেনি। বিক্ষোভের গনগনে আঁচ ছড়িয়ে পড়েছে ইয়েমেনের সানা, বাগদাদ সহ ইরাকের একাধিক শহর এমনকী বাংলাদেশেও। সবদেশেই হামলার লক্ষ্য মার্কিন দূতাবাস। ইরাক এবং তিউনিশিয়ার পোড়ানো হয় মার্কিন পতাকাও।