অমানবিক জয়পুর, সাহায্য না পেয়ে পথেই মৃত্যু স্ত্রী কন্যার

অমানবিকতার এক নজির গড়ল রাজস্থান। পথে দুর্ঘটনায় গুরুতর যখম স্ত্রী এবং মেয়ের শায়িত দেহের পাশে একব্যক্তিকে তাঁর ছেলের হাত ধরে সাহায্য প্রার্থনা করার ছবি ধরা পড়েছে সিকিউরিটি ক্যামেরায়। ট্র্যাফিক সার্জেন থেকে পথ চলতি গাড়ির চালক এগিয়ে আসেননি কেউই। কিছু পরেই মৃত্যু হয় মা এবং মেয়ের। ঘটনাটি ঘটেছে জয়পুরের ঘাট কি গুনি টানেলের কাছে। পরিবারের চার সদস্য একটি বাইকে করে যাওয়ার সময় একটি ট্রাকের সঙ্গে সংঘর্ষ হয়। ক্যামেরায় ধরা পড়েছে সাহায্যের আর্জির সাড়া না পেয়ে রাস্তায় মাথায় হাত দিয়ে বসে পড়েন ওই ব্যক্তি।

Updated: Apr 15, 2013, 06:47 PM IST

অমানবিকতার এক নজির গড়ল রাজস্থান। পথে দুর্ঘটনায় গুরুতর যখম স্ত্রী এবং মেয়ের শায়িত দেহের পাশে একব্যক্তিকে তাঁর ছেলের হাত ধরে সাহায্য প্রার্থনা করার ছবি ধরা পড়েছে সিকিউরিটি ক্যামেরায়। ট্র্যাফিক সার্জেন থেকে পথ চলতি গাড়ির চালক এগিয়ে আসেননি কেউই। কিছু পরেই মৃত্যু হয় মা এবং মেয়ের।
ঘটনাটি ঘটেছে জয়পুরের ঘাট কি গুনি টানেলের কাছে। পরিবারের চার সদস্য একটি বাইকে করে যাওয়ার সময় একটি ট্রাকের সঙ্গে সংঘর্ষ হয়। ক্যামেরায় ধরা পড়েছে সাহায্যের আর্জির সাড়া না পেয়ে রাস্তায় মাথায় হাত দিয়ে বসে পড়েন ওই ব্যক্তি।
ঘটনাটির পর জাতীয় মহিলা কমিশন সিকিউরিটি ক্য্যামেরার কন্ট্রোল রুমে বসে থাকা আধিকারিকদের দায়ী করে। চেয়ারপার্সন মমতা শর্মা এদিন জানিয়েছেন, "সিসিটিভির কন্ট্রোল রুমে বসে থাকা ব্যক্তিরা ঘটনাটি দেখেও পুলিসকে জানাননি। দেড় ঘণ্টা দেরি হয়েছে। ওই সময় যদি মহিলাকে চিকিৎসা দেওয়া যেত তাহলে হয়ত উনি বেঁচে যেতেন।"
জানুয়ারিতেই প্রধানমন্ত্রীর হাতে উদ্বোধন হওয়া ২ কিলোমিটার দীর্ঘ এই টানেলটি জয়পুরের সঙ্গে আগ্রাগামী হাইওয়েকে যুক্ত করে।

By continuing to use the site, you agree to the use of cookies. You can find out more by clicking this link

Close