অমিত পুত্র প্রসঙ্গে তদন্তপন্থী আরএসএস

Updated: Oct 12, 2017, 04:35 PM IST
অমিত পুত্র প্রসঙ্গে তদন্তপন্থী আরএসএস

নিজস্ব প্রতিবেদন : বিজেপির কেন্দ্রীয় সভাপতি অমিত শাহর পুত্র জয় শাহের ব্যবসায়িক প্রতিষ্ঠানের অস্বাভাবিক আয় বৃদ্ধি' সংক্রান্ত বিতর্কে অভিযোগকারীকেই প্রয়োজনীয় তথ্য প্রমাণ দিতে হবে জানিয়ে নিজেদের অবস্থান স্পষ্ট করল রাষ্ট্রীয় স্বয়ং সেবক সংঘ (আরএসএস)। একটি খবরের ওয়েবসাইটের তরফে দাবি করা হয়েছিল, বিজেপি ক্ষমতায় আসার পর অমিত পুত্রের সংস্থার আয় বেড়েছে ১৬ হাজার গুণ। এই তথ্য সামনে আসতেই রাজনৈতিক মহল-সহ গোটা দেশে তুমুল প্রতিক্রিয়া সৃষ্ট হয়। অভিযোগকে ভিত্তিহীন দাবি করে যে ওয়েবসাইটটি এই খবর করেছে তাদের বিরুদ্ধে ১০০ কোটি টাকার মানহানির মামলা ঠোকেন জয় শাহ। বিজেপির পক্ষ থেকে এই অভিযোগ অস্বীকার করা হলেও গোটা ঘটনায় আরএসএসের ঠিক কী অবস্থান তা নিয়ে জল্পনা চলছিল। এবার সেই অভিযোগের প্রেক্ষিতে প্রয়োজনীয় তথ্যপ্রমাণ পেশ করে তদন্তের কথা বলেই নিজেদের মত ব্যক্ত করল বিজেপির প্রাণভোমরা আরএসএস।

ভোপালে সংঘের সভা শেষ হলে আরএসএসের যুগ্ম-সম্পাদক দত্তাত্রেয় হোসাবালে বলেন, "যদি কারও বিরুদ্ধে দুর্নীতির অভিযোগ ওঠে সেক্ষেত্রে তদন্ত হওয়া উচিত। কিন্তু সে জন্য দুর্নীতির প্রথমিক প্রমাণ থাকতে হবে"।

খবরের ওয়েবসাইটটির প্রতিবেদন অনুসারে, নিময় না মেনে জয় শাহের সংস্থাকে ঋণ দিয়েছে শক্তি মন্ত্রকের অধীন একটি সরকারি সংস্থা। এই ঘটনায় যে মামলা দায়ের হয়েছে তাতে অমিত পুত্রের হয়ে কেন্দ্রীয় সরকারি আইনজ্ঞ সওয়ালের সিদ্ধান্তেও তৈরি হয়েছে বিপুল বিতর্ক। সরকারের কোনও অংশ না হওয়া সত্ত্বেও কেন সরকারি আইজীবী তাঁর হয়ে মামলা লড়বেন উঠছে এই প্রশ্ন। এই ঘটনাকে হাতিয়ার করে ময়দানে নেমেছে বিরোধী কংগ্রেস এবং বিজেপির আরও অস্বস্তি বাড়িয়ে প্রবীণ গেরুয়া নেতা তথা বাজপেয়ী মন্ত্রীসভার অর্থমন্ত্রী যশবন্ত সিনহাও আক্রমণ শানিয়েছেন শাসক বিজেপির বিরুদ্ধে।

আরও পড়ুন- ‘বিজেপি সরকার নৈতিকতা হারিয়েছে’: অমিত-পুত্র প্রসঙ্গে যশোবন্ত

By continuing to use the site, you agree to the use of cookies. You can find out more by clicking this link

Close