ওডাফার হ্যাটট্রিক, টোলগের জোড়া গোল

ওডাফার হ্যাটট্রিক, টোলগের জোড়া গোল

ওডাফার হ্যাটট্রিক, টোলগের জোড়া গোলমোহনবাগান (৫) সাদার্ন সমিতি (০)
দুজনের যুগলবন্দিটা নিয়ে আলোচনা কম হয়নি। কিন্তু একজনের চোটের জন্য জুটিটা সেভাবে জমেইনি। ওডাফা-টোলগে জুটিকে নিয়ে যে স্বপ্নটা মরসুমের আগে দেখা শুরু করেছিল বাগান সমর্থকরা, সেই যুগলবন্দিরটা অন্তত একটা সোনালি স্বপ্নের দিন উপহার দিল। মঙ্গলবার যুবভারতী ক্রীড়াঙ্গনে ওডাফা-টোলগে জুটির দারুণ একটা উত্সব হয়ে গেল। যে উত্‍সবে ঘরোয়া লিগে সুপার নাইনের ম্যাচে ৫-০ গোলে সাদার্ন সমিতিকে উড়িয়ে দিল মোহনবাগান। চোট সারিয়ে কামব্যাক করে হ্যাটট্রিক করলেন ওকেলি ওডাফা। তাঁর হ্যাটট্রিকের পাশাপাশি জোড়া গোল করেন অসি গোলমেশিন টোলগে ওজবে।

শনিবার ইস্টবেঙ্গল সাদার্ন সমিতিকে চার গোলে হারিয়ে দেওয়ার আটচল্লিশ ঘন্টার মধ্যেই সেই সাদার্নকে পাঁচ গোলে উড়িয়ে দিল মোহনবাগান। সোমবার ঘরোয়া লিগের সুপার নাইনের ম্যাচে যুবভারতীতে ম্যাজিক দেখালেন টোলগে-ওডাফা জুটি।


খেলার নয় মিনিটেই গোল করে দলকে এগিয়ে দেন ওডাফা। তিন মিনিট পর মোহনবাগানের দ্বিতীয় গোলটি আসে ওডাফার হেড থেকে। রাজিবের ক্রশ থেকে ব্যবধান বাড়ান নাইজেরীয় গোলমেশিন। ম্যাচের ২৮ মিনিটে দূরপাল্লার শট থেকে গোল করে দলকে এগিয়ে দেন টোলগে। দ্বিতীয়ার্ধেও টোলগে-ওডাফাকে সামলাতে নাজেহাল হতে হয় সাদার্ন ডিফেন্সকে। ম্যাচের ৭৩ মিনিটে মরসুমে নিজের তৃতীয় হ্যাটট্রিক পূর্ণ করেন ওডাফা। তারপর ৮৪ মিনিটে সাদার্নের কফিনে শেষ পেরেকটি পুঁতে দলকে বড় ব্যবধানে জয় এনে দেন টোলগে।

এই যুগলবন্দির ম্যাজিক দেখার পর মোহন সমর্থকদের আক্ষেপ ইস টোলগের চোটটা জন্য মরসুমের মাঝে না লাগত তাহলে আর আই লিগে অবনমনের লড়াই লড়তে হত না। কোচ করিমের মুখে এখন হাসি। করিম বলছেন, "আগেই বলেছিলাম এই ওডাফা-টোলগে একসঙ্গে একটু খেলার সুযোগ পেলেই আমাদের রোখা যাবে না।"

কখনও টোলগে গোল করেছেন। আবার কখনও বাজিমাত করেছেন ওডাফা।কিন্তু মোহনবাগানের দুই সেরা তারকাকে একসঙ্গে সেভাবে জ্বলে উঠতে দেখা যায়নি।অবশেষে সোমবার সেই দৃশ্যের সাক্ষী থাকল যুবভারতী। টোলগে-ওডাফা ঝড়ে কার্যত খড়কুটোর মত উড়ে গেল বিপক্ষ। হ্যাটট্রিক করলেন ওডাফা। দুরন্ত খেললেন টোলগেও। অসি গোলমেশিনও মানছেন যে, এটাই টোলগে-ওডাফা জুটির সেরা ম্যাচ।
 
টোলগের সঙ্গে একমত অধিনায়ক ওডাফাও। হ্যাটট্রিক করেও দল আর টোলগের প্রশংসা নাইজেরীয় গোলমেশিনের মুখে। এটাই সম্ভবত দেখতে চেয়েছিলেন মোহনবাগান কর্তারা।
 
 
নিজের দলকে দশে দশ দিচ্ছেন অধিনায়ক ওডাফা। প্রতিপক্ষদের হুঁশিয়ারীও দিয়ে রাখছেন তিনি। ওডাফা পরিষ্কার বলছেন, এরকম খেললে কেউ আটকাতে পারবে না তাদের।







First Published: Monday, February 18, 2013, 22:23


comments powered by Disqus