আরও জটিল পঞ্চায়েতের ভবিষ্যত

আরও জটিল পঞ্চায়েতের ভবিষ্যত

আরও জটিল পঞ্চায়েতের ভবিষ্যতপঞ্চায়েত নির্বাচন নিয়ে যে আশঙ্কা ছিল তা কার্যত সত্যি প্রমাণিত হতে চলেছে। ২৬ এপ্রিল ভোট করতে হলে আজই নির্বাচন কমিশনকে বিজ্ঞপ্তি জারি করতে হবে কিন্তু রাজ্য সরকারের সঙ্গে একাধিক প্রশ্নে তাদের মতবিরোধ তুঙ্গে ওঠায় সেই সম্ভাবনা অনেকটাই কম। পাশাপাশি কমিশনের একাংশের দাবি ছুটির দিন বিজ্ঞপ্তি প্রকাশ করা যায়না। ফলে সব মিলিয়ে ২৬ এপ্রিল আদৌ ভোট হতে পারবে কিনা তা নিয়ে তৈরি হয়েছে সংশয়।

বুধবার দুপুর বারোটা নাগাদ রাজভবনে গিয়ে রাজ্যপালের সঙ্গে প্রায় দেড় ঘণ্টা বৈঠক করেন রাজ্য নির্বাচন কমিশনার মীরা পাণ্ডে। বৈঠকের পর তিনি জানান, রাজ্যপালের সঙ্গে তাঁর আলোচনা হয়েছে। আগামিকাল রাজভবনে পঞ্চায়েতমন্ত্রী সুব্রত মুখোপাধ্যায়কে ডেকে পাঠিয়েছেন রাজ্যপাল। দুপুর সাড়ে বারোটায় রাজ্যপালের সঙ্গে বৈঠকে বসবেন সুব্রত মুখোপাধ্যায়।

অন্যদিকে পঞ্চায়েত নির্বাচনে কেন্দ্রীয় বাহিনী না আনার সিদ্ধান্তে এখনও অনড় রাজ্য সরকার। নির্বাচন কমিশনের সুপারিশ ছিল, রাজ্যের আইনশৃঙ্খলা পরিস্থিতি যথেষ্ট উদ্বেগজনক। তাই কেন্দ্রীয় বাহিনী দিয়েই ভোট করতে হবে এ রাজ্যে। রাজ্য সরকারের পাল্টা যুক্তি, রাজ্যের আইনশৃঙ্খলা পরিস্থিতি যথেষ্ট ভাল। কেন্দ্রীয় বাহিনী আনার কোনও প্রয়োজন নেই। পঞ্চায়েতমন্ত্রী সুব্রত মুখার্জির এদিন বলেছেন, `কেন্দ্রীয় বাহিনী আনতে রাজ্য খরচ পড়বে ৩৫০ কোটি টাকা। এই টাকা সরকারের হাতে নেই।` প্রয়োজনে ভিন রাজ্যের পুলিস দিয়ে ভোট করা হবে বলেও ফের জানালেন সুব্রত মুখোপাধ্যায়।

এর আগে একতরফাভাবে পঞ্চায়েত ভোটের দিন ঘোষণা করেছে রাজ্য সরকার। সেই সিদ্ধান্তকে চ্যালেঞ্জ জানিয়ে, একগুচ্ছ প্রশ্ন তুলে সরকারকে চিঠি দেয় কমিশন। তবে ভোট নিয়ে রাজ্যের অবস্থান পুনর্বিবেচনার জন্য কমিশনের পাঠানো চিঠিকে ইতিমধ্যেই অবান্তর বলে উড়িয়ে দিয়েছেন পঞ্চায়েত মন্ত্রী সুব্রত মুখোপাধ্যায়। কমিশনকে পাল্টা চিঠি দিয়ে সরকারের তরফে জানানো হয়েছে পুরনো সিদ্ধান্তেই অনড় তারা। বদলানো হয়েছে জেলাবিন্যাস।

First Published: Friday, March 29, 2013, 09:57


comments powered by Disqus