গুলি চললেও আলোচনা চলবে ঠাণ্ডা ঘরেই

পুঞ্চ সেক্টরে জওয়ান হত্যা দেশ জুড়ে প্রতিবাদের ঝড় তুললেও, আগামী মাসের ভারত-পাক দ্বিপাক্ষিক আলোচনায় তার কোনও প্রভাব পড়ছে না। ইউপিএর মনোভাবে স্পষ্ট পাকিস্তানের সঙ্গে বৈঠক নির্ধারিত সময় অনুযায়ীই হবে।

Updated: Aug 7, 2013, 03:16 PM IST

পুঞ্চ সেক্টরে জওয়ান হত্যা দেশ জুড়ে প্রতিবাদের ঝড় তুললেও, আগামী মাসের ভারত-পাক দ্বিপাক্ষিক আলোচনায় তার কোনও প্রভাব পড়ছে না। ইউপিএর মনোভাবে স্পষ্ট পাকিস্তানের সঙ্গে বৈঠক নির্ধারিত সময় অনুযায়ীই হবে।
কংগ্রেস মুখপাত্র পি সি চাকো জানিয়েছেন, সেপ্টেম্বরে ইউ এন সমাবেশে প্রধানমন্ত্রী মনমোহন সিং কথা বলবেন পাক প্রধামন্ত্রী নওয়াজ শরিফের সঙ্গে। চাকোর কথায়, একমাত্র আলোচনার মাধ্যমেই দু`দেশের সমস্যার সমাধান হতে পারে। তিনি বলেন, "আমরা যুদ্ধ করে সমস্যার সমাধান চাই না, কিন্তু আলোচনা হোক সেটা চাই। তাই নিউ ইয়র্কে প্রধানমন্ত্রী পাক নওয়াজ শরিফের সঙ্গে বৈঠক করবেন।" অন্যদিকে, এখনও দায় এড়ানোর অবস্থানে অনড় পাকিস্থান। সীমা পারে কোনও গুলি চলেনি বলে দাবি করেছেন সে দেশের সেনা আধিকারিকরা।
২০০৩ সাল থেকে সীমান্তে হওয়া গুলি বিনিময়ের মধ্যে সবচেয়ে বড় ঘটনায় চাপ বাড়ছে দিল্লির ওপর। আসন্ন লোকসভা নির্বাচনের কথা মাথায় রেখে এই ইস্যুকে বড় হাতিয়ার করতে পিছ পা হচ্ছে না বিরোধীরা। ইতিমধ্যেই পাকিস্তানি ডেপুটি হাই কমিশনারকে তলব করেছে ভারত।
গতকাল প্রতিরক্ষামন্ত্রী এ কে অ্যান্টনি সংসদে জানান, পাক সেনা নয়। পাকিস্তানি সেনার বেশে হামলা চলিয়েছিল জঙ্গিরা। এই মন্তব্যবের জেরে প্রতিবাদের ঝড় ওঠে রাজনৈতিক মহলে।