জম্মু জেলে আক্রান্ত পাক বন্দির অবস্থা স্থিতিশীল

জম্মু সেন্ট্রাল জেলে আক্রান্ত পাক বন্দি সানাউল্লাহ রাঞ্জের শারীরিক অবস্থা বর্তমানে স্থিতিশীল বলে হাসপাতাল সূত্রে জানা গেছে। যদিও পাকিস্তানের তরফ থেকে এখনও পর্যন্ত সানাউল্লাহার চিকিৎসায় সাড়া দেওয়াকে নিরাশাজনক বলে দাবি করা হয়েছে। চন্ডিগড়ের হাসপাতালে আজ সানাউল্লাকে দেখে আসেন পাক প্রতিনিধি দল। পাক প্রতিনিধিদের দৈনন্দিন সানাউল্লাহের সঙ্গে সাক্ষাতের অনুমতি দেওয়া হয়েছে ভারতের পক্ষ থেকে।

Updated: May 4, 2013, 07:10 PM IST

জম্মু সেন্ট্রাল জেলে আক্রান্ত পাক বন্দি সানাউল্লাহ রাঞ্জের শারীরিক অবস্থা বর্তমানে স্থিতিশীল বলে হাসপাতাল সূত্রে জানা গেছে। যদিও পাকিস্তানের তরফ থেকে এখনও পর্যন্ত সানাউল্লাহার চিকিৎসায় সাড়া দেওয়াকে নিরাশাজনক বলে দাবি করা হয়েছে। চন্ডিগড়ের হাসপাতালে আজ সানাউল্লাকে দেখে আসেন পাক প্রতিনিধি দল। পাক প্রতিনিধিদের দৈনন্দিন সানাউল্লাহের সঙ্গে সাক্ষাতের অনুমতি দেওয়া হয়েছে ভারতের পক্ষ থেকে।
আজ প্রাথমিক ভাবে জম্মু সেন্ট্রাল জেলে আক্রান্ত বন্দি পাক নাগরিক সানাউল্লা রাঞ্জের অবস্থা আশঙ্কাজনক বলে জানা যায়। হাসপাতাল সূত্রে জানা গেছে সানাউল্লাকে ভেন্টিলেশনে রাখা হয়েছে। তাঁর রক্তচাপ নিয়েও উদ্বেগে ছিলেন  চিকিত্‍সকরা। ওষুধ দিয়ে রক্তচাপ নিয়ন্ত্রণে রাখার চেষ্টা করা হয়।
সানাউল্লার শারীরিক অবস্থা নিয়ে উদ্বেগ প্রকাশ করেছেন পাকিস্তানের তদারকি প্রধানমন্ত্রী মীর হাজার খান খোসা। এব্যাপারে প্রধানমন্ত্রী মনমোহন সিংয়ের সঙ্গে কথা বলেছেন তিনি। 
ঘটনার তদন্তের দাবি জানিয়েছেন পাক প্রধানমন্ত্রী। সেইসঙ্গে ভারতের জেলে বন্দি পাক নাগরিকদের নিরাপত্তা সুনিশ্চিত করার জন্য আবেদন জানিয়েছেন তিনি। গতকাল যাবজ্জীবন সাজাপ্রাপ্ত সানাউল্লার সঙ্গে জেলেরই আরেক বন্দির সংঘর্ষ হয়। গুরুতর আহত সানাউল্লাকে প্রথমে জম্মুর সরকারি হাসপাতালে ভর্তি করা হয়। পরে সেখান থেকে বিমানে তাঁকে আনা হয় চণ্ডীগড়ে। গতরাতেই চণ্ডীগড়ের হাসপাতালে তাঁর সঙ্গে দেখা করেন পাক হাইকমিশনের আধিকারিকরা। পাক কূটনীতিকরা নিয়মিত সানাউল্লার চিকিত্‍সকদের সঙ্গেও যোগাযোগ রাখছেন। ঘটনায় জেল সুপার সহ দুই আধিকারিককে সাসপেন্ড করেছে জম্মু ও কাশ্মীর সরকার।