দশ বছরের ধর্ষিতা কিশোরীকে জেলে আটকে রাখল পুলিস

উত্তরপ্রদেশে দশ বছরের ধর্ষিতা এক কিশোরীকে কারারুদ্ধ করে রাখার অভিযোগ উঠল পুলিসের বিরুদ্ধে। মায়ের সঙ্গে থানায় নিজের উপর হওয়া অত্যাচারের অভিযোগ দায়ের করতে গিয়ে কর্তব্যরত পুলিসরা জেলে ভরে দিল মেয়েটিকেই।

Updated: Apr 9, 2013, 04:23 PM IST

উত্তরপ্রদেশে দশ বছরের ধর্ষিতা এক কিশোরীকে কারারুদ্ধ করে রাখার অভিযোগ উঠল পুলিসের বিরুদ্ধে। মায়ের সঙ্গে থানায় নিজের উপর হওয়া অত্যাচারের অভিযোগ দায়ের করতে গিয়ে কর্তব্যরত পুলিসরা জেলে ভরে দিল মেয়েটিকেই।
সূত্রে খবর, এই ঘটনার পর দুই মহিলা কনস্টেবলকে বহিষ্কার করা হয়েছে। দু`জন সাব ইন্সপেকটরকে পুলিস লাইনে পাঠানো হয়েছে।
উত্তরপ্রদেশের মীরপুর গ্রামের বাসিন্দা এই নাবালিকাকে অচৈতন্য অবস্থায় একটি খেতের কাছ থেকে তার বাবা-মা উদ্ধার করেন। অভিযোগ, স্থানীয় এক দুষ্কৃতী ধর্ষণ করে মেয়েটিকে ফেলে রেখে যায়।
এরপর মেয়েটিকে নিয়ে তার মা পার্শ্ববর্তী মহিলা পরিচালিত থানায় এফআইআর দায়ের করতে গেলে আশ্চর্যজনক ভাবে ওই থানার মহিলা আধিকারিকরা মেয়েটিকেই জেলে ভরে দেয়। এরপর বেশ কিছু ঘণ্টা জেলের অন্ধকার কুঠরিতে কাটাতে বাধ্য হয় বছর দশেকের ছোট্ট মেয়েটি। এরপর স্থানীয় মানুষরা থানার সামনে এসে প্রতিবাদ করতে শুরু করলে মেয়েটিকে ছেড়ে দিতে বাধ্য হয় পুলিস।
ধর্ষণের ঘটনা প্রমাণের জন্য মেয়েটির ডাক্তারি পরীক্ষা হবে। তবে ইতিমধ্যেই তদন্ত শুরু হয়ে গেছে বলে পুলিস সূত্রে খবর।
এই ঘটনায় মূল অভিযুক্ত স্থানীয় দুষ্কৃতী ফেরার বলে জানিয়েছেন এসএসপি গুলাব সিং।