গ্যাস সঙ্কট-- মঙ্গলবার থেকে অনির্দিষ্টকালের ধর্মঘটে এলপিজি ডিলার ও ডিস্ট্রিবিউটররা

Last Updated: Sunday, February 23, 2014 - 19:11

মঙ্গলবার থেকে দেশজুড়ে অনির্দিষ্টকালের জন্য ধর্মঘটে এলপিজি ডিলার ও ডিস্ট্রিবিউটররা। সিলিন্ডার বিক্রি নিয়ে হালেই পেট্রোলিয়াম মন্ত্রক যে কঠোর নিয়মাবলী আরোপ করেছে তার প্রতিবাদেই এই ধর্মঘট। প্রায় ১২ হাজার এলপিজি ডিলার ধর্মঘটে গেলে দেশজুড়ে সঙ্কট তৈরির আশঙ্কা দেখা দিয়েছে।

সিলিন্ডার বিক্রি নিয়ে পেট্রোলিয়াম মন্ত্রকের সাম্প্রতিক গাইডলাইন নিয়ে গত জানুয়ারি থেকেই সরব গ্যাস ডিলাররা। কেন গাইডলাইনে আপত্তি তাঁদের? কী রয়েছে সেই গাইডলাইনে?

কম ওজনের সিলিন্ডার থেকে ত্রুটিযুক্ত সিল, সবকিছুর জন্যই জবাবদিহি করতে হয় সংশ্লিষ্ট ডিলারকে গাইডলাইনে এমন কিছু শর্ত রয়েছে যার বলে সংশ্লিষ্ট তেল সংস্থার ফিল্ড অফিসার যে কোনও সময় কোনও ডিলারকে ব্ল্যাট লিস্টেড করতে পারে ব্ল্যাক লিস্টেড হলেই ডিলারের একমাসের কমিশন কেটে নেওয়ার শর্ত রাখা হয়েছে গাইড লাইনে অভিযোগ, ব্ল্যাক লিস্টেড গ্যাস ডিলারের আত্মপক্ষ সমর্থনের কোনও উপায়ও রাখেনি কেন্দ্রীয় সরকার।

অথচ ডিলারদের দাবি, গ্রাহদের ভোগান্তির জন্য তাঁরা দায়ী নন। তাঁদের দাবি, বর্তমানে সিলিন্ডারে যে সিল দেওয়া হয় তা যে কেউ খুলতে পারে। প্রয়োজন পিলফার প্রুফ সিল।

১৪.২ কেজি ওজনের সিলিন্ডারের দুইরকম দাম। একটি ভর্তুকি সহ। অন্যটি ভর্তুকি ছাড়া। এর জেরে বাড়ছে কালোবাজারির সম্ভাবনা।

আধার কার্ড নিয়ে এখনও জটিলতা রয়ে গিয়েছে। যার জেরে ভুগছেন ডিলার থেকে গ্রাহক সকলেই।

এই গাইডলাইনের প্রতিবাদেই গত জানুয়ারিতে দিল্লিতে আনুষ্ঠানিকভাবে বিক্ষোভ দেখিয়েছিলেন গ্যাস ডিলাররা। কেন্দ্র গাইডলাইন শিথিল না করায় মঙ্গলবার থেকে অনির্দিষ্টকালের ধর্মঘটে যাচ্ছেন তাঁরা। রাজ্যে প্রায় ৯০০ এবং দেশজুড়ে প্রায় ১২ হাজার ডিলার ধর্মঘটে সামিল হবেন। রাজ্যে এলপিজি গ্রাহকের সংখ্যা ৭০ লক্ষ। যার মধ্যে কলকাতা শহরেই গ্রাহকের সংখ্যা প্রায় সাড়ে ১৪ লক্ষ। ধর্মঘট একদিনও স্থায়ী হলে তার প্রভাব দীর্ঘস্থায়ী হবে বলে আশঙ্কা।



First Published: Sunday, February 23, 2014 - 19:11


comments powered by Disqus