শীতের অধিবেশনের আজ ইউপিএ-র নৈশভোজ

চলতি মাসের ২২ তারিখ থেকে শুরু হচ্ছে সংসদের শীতকালীন অধিবেশন। তার আগে আজ ইউপিএ শিবিরের সমস্ত শরিকদলের নেতানেত্রীদের নৈশভোজে আমন্ত্রণ জানিয়েছেন প্রধানমন্ত্রী। তখনই খুচরো ব্যবসায় বিদেশি বিনিয়োগ, পেট্রোপণ্যের মূল্যবৃদ্ধি, রান্নার গ্যাসের ক্ষেত্রে ভর্তুকি সিলিণ্ডারের সংখ্যা কমানো সহ বিভিন্ন ইস্যুতে কীভাবে সংসদে বিরোধীদের আক্রমণ সামাল দেবে সরকার, তার রণকৌশল ঠিক করা হবে।

Updated: Nov 16, 2012, 10:34 AM IST

চলতি মাসের ২২ তারিখ থেকে শুরু হচ্ছে সংসদের শীতকালীন অধিবেশন। তার আগে আজ ইউপিএ শিবিরের সমস্ত শরিকদলের নেতানেত্রীদের নৈশভোজে আমন্ত্রণ জানিয়েছেন প্রধানমন্ত্রী। তখনই খুচরো ব্যবসায় বিদেশি বিনিয়োগ, পেট্রোপণ্যের মূল্যবৃদ্ধি, রান্নার গ্যাসের ক্ষেত্রে ভর্তুকি সিলিণ্ডারের সংখ্যা কমানো সহ বিভিন্ন ইস্যুতে কীভাবে সংসদে বিরোধীদের আক্রমণ সামাল দেবে সরকার, তার রণকৌশল ঠিক করা হবে।
এনডিএ শিবির আগেই ঘোষণা করেছে যে শীতকালীন অধিবেশনেই এফডিআই ইস্যুতে তারা আবারও সরকারের উপর চাপ সৃষ্টি করবে। বামদলগুলি আগেই শাতকালীন অধিবেশনে এফডিআই প্রসঙ্গে সংসদে ভোটাভুটির দাবি জানিয়েছে। বিজেপি, জেডিইউ এবং সদ্য ইউপিএ থেকে বেরিয়ে আসা তৃণমূল কংগ্রেসও সরকারকে নোটিস জারি করেছে। 
রাজনৈতিক মহলের অনুমান, শীতকালীন অধিবেশনে সরকারের বিরুদ্ধে যদি অনাস্থাপ্রস্তাব আনা হয় তারজন্য আগে থেকেই প্রস্তুতি নিচ্ছে কংগ্রেস শিবির। তাই আজ শরিকদের নৈশভোজে আমন্ত্রণ জানানো হয়েছে।
তবে এই ভোজসভায় ডিএমকে-এর কোনও প্রতিনিধি থাকবে কিনা, তা এখনও স্পষ্ট নয়। এমনকি তৃণমূল কংগ্রেস যদি অনাস্থা প্রস্তাব আনে, তখন তারা কোন দিকে ভোট দেবেন, সেব্যাপারেও স্পষ্ট কিছু জানাননি ডিএমকে প্রধান এম করুণানিধি।