উত্তরাখণ্ডে শপথ নিলেন না ১৮ কংগ্রেস বিধায়ক

দিল্লির রাজনীতিতে চূড়ান্ত টানাপোড়েনের মধ্যেই কংগ্রেসের জন্য খারাপ খবর এল দেরাদুন থেকে। এদিন রাজ্য বিধানসভায় প্রোটেম স্পিকারের কাছে শপথ গ্রহণ অনুষ্ঠানে গরহাজির রইলেন দলের ১৮ জন বিধায়ক। এঁদের প্রত্যেকেই সদ্য-পদত্যাগী কেন্দ্রীয় প্রতিমন্ত্রী হরিশ রাওয়াতের অনুগামী হিসেবে পরিচিত। এই ঘটনায় ফের প্রমাণিত হয়ে গেল ৩২ সদস্যের কংগ্রেস পরিষদীয় দলে মুখ্যমন্ত্রী বিজয় বহুগুণা অনেকটাই সংখ্যালঘু। উল্লেখ্য, গত মঙ্গলবার বিজয় বহুগুণার শপথ গ্রহণ অনুষ্ঠানে হাজির ছিলেন মাত্র ১০ জন কংগ্রেস বিধায়ক।

Updated: Mar 15, 2012, 05:15 PM IST

দিল্লির রাজনীতিতে চূড়ান্ত টানাপোড়েনের মধ্যেই কংগ্রেসের জন্য খারাপ খবর এল দেরাদুন থেকে। এদিন রাজ্য বিধানসভায় প্রোটেম স্পিকারের কাছে শপথ গ্রহণ অনুষ্ঠানে গরহাজির রইলেন দলের ১৮ জন বিধায়ক। এঁদের প্রত্যেকেই সদ্য-পদত্যাগী কেন্দ্রীয় প্রতিমন্ত্রী হরিশ রাওয়াতের অনুগামী হিসেবে পরিচিত। এই ঘটনায় ফের প্রমাণিত হয়ে গেল ৩২ সদস্যের কংগ্রেস পরিষদীয় দলে মুখ্যমন্ত্রী বিজয় বহুগুণা অনেকটাই সংখ্যালঘু। উল্লেখ্য, গত মঙ্গলবার বিজয় বহুগুণার শপথ গ্রহণ অনুষ্ঠানে হাজির ছিলেন মাত্র ১০ জন কংগ্রেস বিধায়ক।

এই পরিস্থিতিতে মুখ্যমন্ত্রী পদে জোরাল দাবিদার হরিশ রাওয়াতকে বাগে আনতে ২৪ আকবর রোডের নীতি নির্ধারকরা জোরদার তত্‍পরতা শুরু করেছেন বলে রাজনৈতিক মহলের খবর। তাঁকে কেন্দ্রে ক্যাবিনেট মন্ত্রী করার প্রস্তাব দেওয়া হয়েছে হাইকম্যান্ডের তরফে। সেই সঙ্গে হরিশের ঘনিষ্ঠ অনুগামী তথা গত বিধানসভার বিরোধী দলনেতা হরক সিং রাওয়াতকে উপমুখ্যমন্ত্রী করার প্রস্তাব দেওয়া হয়েছে। ৭০ সদস্যের উত্তরাখণ্ড বিধানসভায় কংগ্রেসের ৩২ ও বিজেপি`র ৩১ জন বিধায়ক রয়েছেন। তা ছাড়া উত্তরাখণ্ড ক্রান্তি দলের ১, বহুজন সমাজ পার্টির ৩ এবং ৩ জন নির্দল বিধায়কের সমর্থন রয়েছে কংগ্রেসের দিকে। রাজ্যপাল মার্গারেট আলভা চলতি মাসের মধ্যে রাজ্য বিধানসভায় সংখ্যাগরিষ্ঠতা প্রমাণের নির্দেশ দিয়েছেন নব নির্বাচিত মুখ্যমন্ত্রী বিজয় বহুগুণাকে।