নৃশংসতার নজির গড়েও নির্বিকার ভাটকল

নৃশংসতার নজির গড়েও নির্বিকার ভাটকল

Tag:  Yasin Bhatkal
নৃশংসতার নজির গড়েও নির্বিকার ভাটকলতারই ষড়ষন্ত্রের দাম দিয়েছেন শয়ে শয়ে নিরীহ মানুষ। তার করানো বিস্ফোরণে প্রাণ গিয়েছে দেশের বিভিন্ন প্রান্তের অসংখ্য মানুষের। কিন্তু তার জন্য কোনও রকম অনুতাপ নেই ইয়াসিন ভাটকলের। নৃশংসতার নজির গড়েও নির্বিকার এই জঙ্গি।     

হাতে অগুণতি নিরপরাধ মানুষের রক্তের দাগ নিয়েও ভালই আছেন ইয়াসিন ভাটকল। নেই কোনও অপরাধবোধ। ইন্ডিয়ান মুজাহিদিনের এই প্রতিষ্ঠাতার অঙ্গুলিহেলনে পুণে, দিল্লি, আমেদাবাদ, সুরাত, বেঙ্গালুরু, হায়দরাবাদ-সহ দেশের নানা প্রান্তে জঙ্গি হামলা হয়েছে। প্রাণ হারিয়েছেন বহু সাধারণ মানুষ। তবে তার জন্য এতটুকু অনুতাপ নেই তার। বরং জেরায় এই জঙ্গিনেতা বলেছে, এ ধরনের বিস্ফোরণ তো হয়ই, এতে নতুন কিছু তো নেই।
 
বহুক্ষেত্রে ভাটকল নিজে বিস্ফোরণের জায়গায় বোমা রেখেছে। তিন-তিনবার ক্লোজ সার্কিট ক্যামেরায় ধরাও পড়েছে তার কীর্তিকলাপ। এ বছর জুলাইয়ে বুদ্ধগয়ায় ধারাবাহিক বিস্ফোরণে ইন্ডিয়ান মুজাহিদিনের হাত থাকার কথা অবশ্য অস্বীকার করেছে সে। তবে এক্ষেত্রেও সামনে চলে এসেছে তার অনুতাপহীন চেহারা। বুদ্ধগয়ায় বিস্ফোরণ প্রসঙ্গে জেরায় সে গোয়েন্দাদের বলেছে, ভালই তো... আমাদের মতো তা হলে আরও অনেকে আছে যারা একই লক্ষ্যে কাজ করছে।
 
বারোটি রাজ্যের পুলিস এতদিন হন্যে হয়ে খুঁজলেও বারবার চোখে ধুলো দিয়ে পালিয়ে যাচ্ছিল ভাটকল। তবে শেষ পর্যন্ত তার পর্দাফাঁস করে দেয় স্ত্রীকে পাঠানো এক হাজার ডলার। ইদের আগে হাওয়ালা রুটে ওই টাকা এবং আরও কিছু উপহার স্ত্রীকে পাঠিয়েছিল সে। বার চারেক ফোনে কথাও বলে। ওত্‍ পেতে থাকা গোয়েন্দারা সেই সূত্র ধরেই ভাটকলের নেপালের ডেরার হদিশ পান। এই মোস্ট ওয়ান্টেড জঙ্গি গোয়েন্দাদের জালে ধরা পড়ায় অনেক গুরুত্বপূর্ণ তথ্য এ বার হাতে আসতে চলেছে।    
 
প্রথমে লস্কর-এ-তৈবার শীর্ষ নেতা আবদুল করিম টুন্ডার গ্রেফতারি। এর পর এ রাজ্য থেকেই জঙ্গিদের নিয়োগকারী আলাউদ্দিনের গ্রেফতারির ঘটনা। দুটি ঘটনাতেই সামনে এসেছে পাকিস্তানের সঙ্গে যোগাযোগের বিষয়টি। এবার ইন্ডিয়ান মুজাহিদিনের প্রতিষ্ঠাতা ভাটকলের ক্ষেত্রেও পাক-সম্পর্কের বিষয়টি সামনে এলে ভারত সরাসরি এ নিয়ে ইসলামাদের সঙ্গে কথা বলবে বলে স্বরাষ্ট্রমন্ত্রক সূত্রে খবর।

First Published: Saturday, August 31, 2013, 14:14


comments powered by Disqus