`জীবনের সেরা পার্টনারশিপ অঞ্জলির সঙ্গেই`

জীবনে অনেক লম্বা ইনিংস খেলেছেন। দ্রাবিড়, সৌরভ, লক্ষ্ণণের সঙ্গে করেছেন অনেক সেঞ্চুরি পার্টনারশিপ। কিন্তু স্ত্রী অঞ্জলির সঙ্গে আঠারো বছরের নট আউট পার্টনারশিপটাকেই সেরা বাছলেন সচিন তেন্ডুলকর। আর সারা এবং অর্জুনকে দিলেন বাকি জীবনটা।সারা বছর ধরে বিশ্বপরিক্রমা। স্ত্রী-ছেলে-মেয়েকে দেখার সময় কোথায়!

Updated: Nov 16, 2013, 06:49 PM IST

জীবনে অনেক লম্বা ইনিংস খেলেছেন। দ্রাবিড়, সৌরভ, লক্ষ্ণণের সঙ্গে করেছেন অনেক সেঞ্চুরি পার্টনারশিপ। কিন্তু স্ত্রী অঞ্জলির সঙ্গে আঠারো বছরের নট আউট পার্টনারশিপটাকেই সেরা বাছলেন সচিন তেন্ডুলকর। আর সারা এবং অর্জুনকে দিলেন বাকি জীবনটা।সারা বছর ধরে বিশ্বপরিক্রমা। স্ত্রী-ছেলে-মেয়েকে দেখার সময় কোথায়! 
তাদের কত বিপদে আপদে দেশের জন্য থাকতে হয়েছে দূরে। ব্যথায় কাতর হয়েছে তাঁর হৃদয়। কিন্তু শনিবার ওয়াংখেড়েতে দেখলাম, সচিন একা নন, তাঁর সঙ্গে ক্রিকেট খেলেঠেন তাঁর গোটা পরিবার। সারা-অর্জুনকে সময় দিতে পারেননি অনেকদিন। সেই যন্ত্রণার কথা বলেই ঘোষণা করে দিলেন, তাঁর বাকি জীবনটা ওদের জন্যই।
মুম্বই টেস্ট সচিনের সঙ্গে সেঞ্চুরি পার্টনারশিপটাই হয়তো অমরত্ব দিয়ে যাবে চেতেশ্বর পূজারাকে। ওয়ান ডে তে সচিনের সঙ্গে সর্বাধিক সেঞ্চুরি পার্টনারশিপ সৌরভের সুখের অনুভূতি হয়ে থাকবে আজীবন। কিন্তু মুম্বইয়ের ওয়াংখেড়ে স্টেডিয়ামে ভরা দর্শকের মাঝে সচিন ঘোষণা করে দিলেন, তাঁর জীবনের সেরা পার্টনারশিপটি স্ত্রী অঞ্জলির সঙ্গেই।
সচিনের এমন উচ্চারণে চোখের বাঁধ ভাঁঙল অঞ্জলির। আর খোলা মাঠে হাজার হাজার দর্শক, আর টিভির দিকে তাকিয়ে থাকা কয়েক কোটি মানুষ হয়তে ভাবলো, এর চেয়ে বেশি ভালোবাসা যায় নাকি!