আই লিগ খেতাব হাতছাড়া ইস্টবেঙ্গলের, রানার্সও হওয়া অনিশ্চিত

Last Updated: Saturday, May 4, 2013 - 19:52

ইস্টবেঙ্গল (২) চার্চিল ব্রাদার্স (২)
এবারের মত আই লিগে জেতার স্বপ্নভঙ্গ হল ইস্টবেঙ্গলের। শনিবার গোয়ার তিলক ময়দানে ডেম্পোর সঙ্গে পয়েন্ট নষ্ট করায় এবারের আই লিগ জেতার সম্ভাবনা আর থাকল না ইস্টবেঙ্গলের। মরগ্যানের দল আজ ২-২ গোলে ড্র করায় আই লিগ কার্যত জিতে নিল সুভাষ ভৌমিকের দল চার্চিল ব্রাদার্স। এদিন পয়েন্ট নষ্ট করায় রানার্স ট্রফিটাও কার্যত হাতছাড়া হয়ে গেল মরগ্যানের।
চার্চিলকে এখন পয়েন্টের নিরিখ ছাপিয়ে যেতে পারে শুধু পুণে এফসি। পুণে তাদের শেষ ম্যাচে পেলান অ্যারোজের বিরুদ্ধে জিতলে, আর চার্চিল তাদের বাকি দুটো ম্যাচে হারলে তবেই আই লিগ হাতছাড়া হবে সুভাষ ভোমিকের। সেই আশা খুবই কম।
ডেম্পোর সঙ্গে ড্র করার ফলে ২৪ ম্যাচে ইস্টবেঙ্গলের পয়েন্ট দাঁড়াল ৪৪। দ্বিতীয় স্থান পাওয়ার জন্যও এখন পুণে এফসি-র দিকে তাকিয়ে থাকতে হবে মরগ্যানের দলকে। ২৫ ম্যাচ খেলে পুণে এফসির পয়েন্ট ৪৯। ২৪ ম্যাচ খেলে চার্চিল ব্রাদার্সের পয়েন্ট ৫১।   
ডেম্পোর সঙ্গে ড্র করার ফলে ২৪ ম্যাচে ইস্টবেঙ্গলের পয়েন্ট দাঁড়াল ৪৪। দ্বিতীয় স্থান পাওয়ার জন্যও এখন পুণে এফসি-র দিকে তাকিয়ে থাকতে হবে মরগ্যানের দলকে। আই লিগ জয়ের আশা জিইয়ে রাখতে শনিবার জিততেই হত ইস্টবেঙ্গলকে।
ম্যাচ শেষ হওয়ার মিনিটড চারেক আগে ইসফাক আমেদের গোলে হার বাঁচায় ইস্টবেঙ্গল। অবশ্য ম্যাচের প্রথম গোলটা করেছিল মরগ্যানের দলই। ম্যাচের ১৭ মিনিটে পেনের গোলে এগিয়ে যায় ইস্টবেঙ্গল। প্রথমার্ধে ১-০ গোলে এগিয়ে থাকার পর দ্বিতীয়ার্ধের শুরুতেই গোল হজম করে লাল হলুদ শিবির। ডেম্পোর হয়ে গোল করেন রিকার্জো কার্ভালহো। ম্যাচের ৭৫ মিনিটে ডেম্পোকে এগিয়ে দেন জনি। শেষ অবধি অবশ্য ইসফাকের গোলে হার বাঁচায় ইস্টবেঙ্গল।

আই লিগে এখন চার নম্বরে আছে প্রয়াগ ইউনাইটেড ৪১ পয়েন্টে। ডেম্পো ৩৭ পয়েন্ট পেয়ে পাঁচ নম্বরে। অন্যদিকে, অবনমন বাঁচিয়ে ২৫ পয়েন্ট পেয়ে ১১ নম্বরে রয়েছে মোহনবাগান। প্রয়াগের রন্টি মার্টিন্স ২৫ টি গোল করে এখনও পর্যন্ত আই লিগের শীর্ষ গোলদাতা।
অন্যদিকে, মোহনবাগানের ওডাফা ১৯টি গোল করে রয়েছেন দুই নম্বরে। ১৭ টি গোল করে লাল হলুদের চিডি রয়েছেন তিন নম্বরে।



First Published: Saturday, May 4, 2013 - 20:48


comments powered by Disqus