ফেডারেশনকে কৌশলে চাপ ইস্টবেঙ্গলের

ফেডারেশনকে কৌশলে চাপ ইস্টবেঙ্গলের

ফেডারেশনকে কৌশলে চাপ ইস্টবেঙ্গলের এক অভিনব সিদ্ধান্তে ফেডারেশনকে চাপে রাখার চেষ্টা করল ইস্টবেঙ্গল। বুধবার ইস্টবেঙ্গলের কর্মসমিতির বৈঠকে সিদ্ধান্ত হয়েছে যে জনসমর্থন এবং শতাব্দী প্রাচীন ক্লাব প্রসঙ্গ টেনে মোহনবাগানকে নির্বাসন মুক্ত করা হয়েছে, তাহলে মহমেডান স্পোর্টিংকে কেন আই লিগে খেলার সুযোগ দেওয়া হচ্ছে না। এই আর্জি ফেডারেশনের কাছে।

 
কর্মসমিতির বৈঠকের এই সিদ্ধান্ত ইমেল মারফত জানানো হচ্ছে মহমেডান স্পোর্টিং,ফেডারেশন,আইএফএ ও ক্রীড়ামন্ত্রী মদন মিত্রকে। ইস্টবেঙ্গল কর্তাদের দাবি,মহমেডান স্পোর্টিং যদি রাজি হয়,প্রয়োজনে তাঁরা পথে নামতেও প্রস্তুত। এখানেই শেষ নয়,এই ইস্যুতে মোহনবাগান ইস্টবেঙ্গল-মহমেডানের পাশে থাকতে চাইলে সাদরে আমন্ত্রণ জানাবেন বলে জানান ইস্টবেঙ্গল কর্তারা। এদিকে মোহনবাগানের নির্বাসন উঠে যাওয়ার পর গোপন আঁতাতের কথা উল্লেখ করে বিতর্কে জড়ান লাল-হলুদ সচিব কল্যাণ মজুমদার। তাঁর বিরুদ্ধে কঠোর পদক্ষেপ নিতে চলেছে ফেডারেশন।

 
বিতর্কিত মন্তব্য করার জন্য ইস্টবেঙ্গল সচিব কল্যাণ মজুমদারের বিরুদ্ধে কড়া পদক্ষেপ নিতে পারে ফেডারেশন কর্তারা মনে করছেন সর্বময় সংস্থার বিশ্বাসযোগ্যতা নিয়ে প্রশ্ন তুলে শৃঙ্খলাভঙ্গ করেছেন কল্যাণ মুজুমদার। অন্যদিকে নির্বাসন উঠে যাওয়ার পর বুধবার বিকেলে বৈঠকে বসেছিল মোহনবাগানের কর্মসমিতি। ফেডারেশনের ধার্য করা জরিমানা দেওয়ার জন্য পাঁচ সদস্যের একটি কমিটি গঠন করা হয়েছে। মোহনবাগান কার্যকরী সমিতির সদস্য অতীন ঘোষের পদত্যাগ পত্র এদিন গৃহীত হয়নি।

First Published: Wednesday, January 16, 2013, 22:29


comments powered by Disqus