অশ্বিন-ওঝার বোলিং দাপটে ইংল্যান্ডের সামনে ফলোওনের চোখরাঙানি

ব্রিটিশ বাহিনী সত্যিই বিপাকে। কালকের নড়বড়ে ভিতের ধারা অব্যাহত রেখে আজকেও ভারতীয় বোলিং-এর কাছে অসহায় আত্মসমর্পণ করছেন কুক বাহিনী। লাঞ্চের আগেই সাতটি উইকেট খুইয়ে মোটামুটি ভেন্টিলেশনে চলে গেছে ইংল্যন্ড দল। অন্যরাতো কোন ছার টিম ইন্ডিয়ার স্পিনিং যুগলের কাছে রীতিমত খোঁড়াচ্ছিলেন কেপি আর কুকের মত মহারথীরাও।

Updated: Nov 17, 2012, 11:37 AM IST

প্রথম ইনিংস
ভারত- ৫২১/৮
ইংল্যান্ড-১১০/৭ (পিরর-২০, ব্রেসন্যান-০)

ব্রিটিশ বাহিনী সত্যিই বিপাকে। কালকের নড়বড়ে ভিতের ধারা অব্যাহত রেখে আজকেও ভারতীয় বোলিং-এর কাছে অসহায় আত্মসমর্পণ করছেন কুক বাহিনী। লাঞ্চের আগেই সাতটি উইকেট খুইয়ে মোটামুটি ভেন্টিলেশনে চলে গেছে ইংল্যন্ড দল। অন্যরাতো কোন ছার টিম ইন্ডিয়ার স্পিনিং যুগলের কাছে রীতিমত খোঁড়াচ্ছিলেন কেপি আর কুকের মত মহারথীরাও। শুরুতে প্রজ্ঞান ওঝার প্রথম বলে পিটারসনের ক্যাচ মিস করেন ধোনি। ওঝা ও অশ্বিন এই পিচে ঘোল খাওয়াবে এটা আশা করা গিয়েছিল প্রথম থেকেই। একদিকে অশ্বিন আর অন্যদিকে ওঝা। অনেকবার সুযোগ দেবার পর ওঝার বলেই ক্লিন বোল্ড হলেন পিটারসন। তখন তাঁর রান ১৭। মাত্র দুটো বাউন্ডারির বিনিময়ে। পরের বলেই আউট ইয়ান বেল। ক্যাচ নিলেন তেন্ডুলকার। কিন্তু হ্যাট্রিকটা হল না। অধিনায়ক কুক এমন বিধ্বস্ত পিচে আপ্রান চেষ্টা করেছিলেন টিকে থাকার। কিন্তু ভাগ্য ( আর মোতেরার পিচও) সহায় হলনা তাঁর। অশ্বিনের অফস্ট্যাম্পে পরা বলটি ইংল্যান্ড অধিনায়কের ব্যাটের কিনারা ছুঁইয়ে চলে যায় সহবাগের হাতে। ৪১ রানে তাঁকে বিদায় নিতে হয়।
গতকাল ইংল্যান্ডের ইনিংস শেষ হয়েছিল ৪১ রানে ৩ উইকেটে। ক্রিজে ছিলেন অধিনায়ক কুক (২২ রান, চারটে চার) আর বির্তকিত কেপস মানে কেভিন পিটারসন (৬ রান, একটি চার)। আর বাকিরা তেমন কেউ এঁটে উঠতে পারেননি অশ্বিন-ওঝার বোলিং-র সামনে। নিক কমটন ৯, জেমস অ্যান্ডারসন ২, জনাথন ট্রট শূণ্য রানে বিদায় নেন।