আম্পয়াররা গড়াপেটা করেন, বিষ্মিত নন হেয়ার

Last Updated: Tuesday, October 9, 2012 - 13:01

ম্যাচ গড়াপেটায় আম্পায়ারদের নাম জড়িয়ে যাওয়ার ঘটনায় ক্রিকেট বিশ্ব তোলপাড়। প্রাক্তন ক্রিকেটার থেকে সাধারণ ক্রিকেটপ্রেমী সবাই পুরো ঘটনায় হতাশ। পাকিস্তানের নাদিম ঘাউরি, আনিস সিদ্দিকি, শ্রীলঙ্কার গামিনি দিসানায়েক, মরিস উইটসন এবং সাগর গালেজ, বাংলাদেশের নাদির শাহ। এই ছ`জন আম্পায়ার টাকা নিয়ে সিদ্ধান্ত বিক্রি করতে চেয়েছেন। এমন ঘটনা বেসরকারি টিভি চ্যানেলের সম্প্রতি করা স্টিং অপারেশনে ধরা পড়েছে।
কপিল দেব থেকে ইয়ান বোথাম সব প্রাক্তন ক্রিকেটাররাই একমত, পুরো ঘটনার বিস্তারিত তদন্তের দরকার। দোষী প্রমাণিত হলে অভিযুক্ত আম্পায়ারদের কঠোর শাস্তির দাবি তুলেছেন তাঁরা। কিন্তু এই বিষয়ে সবচেয়ে চাঞ্চল্যকর স্বীকারোক্তিটা এসেছে এক প্রাক্তন আন্তর্জাতিক আম্পায়ারের মুখ থেকে। ডারেল হেয়ার, একসময় আইসিসির এলিট প্যানেলে থাকা আম্পায়ার বলেছেন, ম্যাচ গড়াপেটায় আম্পায়ারদের নাম জড়িয়ে পড়ার ঘটনায় তিনি মোটেও বিষ্মিত নয়। বিতর্কিত আম্পায়ার হেয়ার বলেছেন, আইপিএল শুরু হওয়ার পর থেকেই আম্পায়াররা এমন অন্যায় কাজ করছেন এমন কথা তাঁর কানে এসেছে। পুরো বিষয়ে আইসিসির ভূমিকা হাস্যকর বলেছেন হেয়ার।
প্রসঙ্গত, একটি ভারতীয় টিভি চ্যানেলের স্টিং অপারেশনে ধরা পড়েছে, শ্রীলঙ্কা-পাকিস্তান-বাংলাদেশের ছ’জন আম্পায়ার অর্থের বিনিময়ে টিম এবং পিচ সংক্রান্ত গোপন খবর দেওয়ার পাশাপাশি ইচ্ছে মতো এলবিডব্লিউ এবং কট বিহাইন্ড দিতেও তৈরি ছিলেন। শ্রীলঙ্কা প্রিমিয়ার লিগ থেকে শুরু করে সদ্য সমাপ্ত টি-টোয়েন্টি বিশ্বকাপে ভারত-পাকিস্তান ওয়ার্ম আপ ম্যাচের সঙ্গে জড়িত ছিলেন অভিযুক্ত এই আম্পায়াররা। আইসিসি-র পক্ষ থেকে বলা হয়েছে, অভিযুক্ত আম্পায়াররা কেউ টি-টোয়েন্টি বিশ্বকাপের দায়িত্বে ছিলেন না। আইসিসি এও বলেছে, তারা সংশ্লিষ্ট টিভি চ্যানেলের কাছ থেকে যাবতীয় প্রমাণ চায়। দোষ প্রমাণ হলে কঠোর শাস্তি হবে অভিযুক্তদের। এমনিতেই বারবার ম্যাচ গড়াপেটার সঙ্গে ক্রিকেটারদের নাম জড়িয়ে পড়ায় আগেও বহুবার কলঙ্কিত হয়েছে ক্রিকেট। এবার এমনকী আম্পায়ারদের নামও এতে জড়িয়ে যাওয়ায় ক্রিকেটের বিশ্বাস যোগ্যতা ভীষণ ভাবে ধাক্কা খেল।



First Published: Tuesday, October 9, 2012 - 13:01


comments powered by Disqus