অবিশ্বাস্য জয়ের পর অবনমন ভূত নামার পথে মোহনবাগানের

আই লিগে অবিশ্বাস্য জয় মোহনবাগানের। ইনজুরি টাইমে ডেনসন দেবদাসের দুরন্ত গোলে এয়ার ইন্ডিয়ার বিরুদ্ধে ৩-২ গোলে রুদ্ধশ্বাস জয় পেলেন ওডাফা-রা। শনিবার যেন মুম্বই এফ সি ম্যাচের রিপ্লে দেখল কল্যাণী স্টেডিয়াম। জিক দেখালেন টোলগে-ওডাফা জুটি। আই লিগের মাঝপথে শূন্য থেকে শুরু করে অবনমন বাঁচানো প্রায় নিশ্চিত করে ফেলল মোহনবাগান।

Updated: Apr 13, 2013, 05:49 PM IST

মোহনবাগান (৩) এয়ার ইন্ডিয়া (২)
(ওডাফা, টোলগে, ডেনসন) (হেনরি, ব্র্যাঙ্কো)
আই লিগে অবিশ্বাস্য জয় মোহনবাগানের। ইনজুরি টাইমে ডেনসন দেবদাসের দুরন্ত গোলে এয়ার ইন্ডিয়ার বিরুদ্ধে ৩-২ গোলে রুদ্ধশ্বাস জয় পেলেন ওডাফা-রা। এই জয়ের ফলে আই লিগে টানা চার ম্যাচ জিতল মোহনবাগান। সেই সঙ্গে ২১ ম্যাচে ২২ পয়েন্ট পেয়ে এয়ার ইন্ডিয়াকে টপকে লিগ তালিকার এগারো নম্বরে উঠে এল করিমের দল।
শনিবার যেন মুম্বই এফ সি ম্যাচের রিপ্লে দেখল কল্যাণী স্টেডিয়াম। জিক দেখালেন টোলগে-ওডাফা জুটি। আই লিগের মাঝপথে শূন্য থেকে শুরু করে অবনমন বাঁচানো প্রায় নিশ্চিত করে ফেলল মোহনবাগান।
প্রথমার্ধে খেলার গতির বিরুদ্ধেই এগিয়ে যায় মোহনবাগান। টোলগেকে বক্সে ফাউল করলে পেনাল্টি পায় সবুজ-মেরুন শিবির। গোল করতে ভুল করেননি আগের ম্যাচে পেনাল্টি নষ্ট করা ওডাফা। কিছুক্ষণ পর স্নেহাশিসের দুরন্ত পাস থেকে অনবদ্য গোল করে ব্যবধান দ্বিগুণ করেন টোলগে ওজবে। মরসুমের শেষ পর্বে অসি গোল মেশিনের দুরন্ত ফর্ম অব্যাহত। বিরতির আগে মোহনবাগান ডিফেন্সের ভুলের সুযোগ থেকে গোল করে যান হেনরি।
বিরতির আগে মোহনবাগান ডিফেন্সের ভুলের সুযোগ থেকে ব্যাবধান কমান এয়ার ইন্ডিয়ার হেনরি। দ্বিতীয়ার্ধে ম্যাচে একচ্ছত্র দাপট দেখায় মোহনবাগান। গোলের একের পর এক সুযোগ নষ্ট করেন ওডাফা-টোলগেরা। পেনাল্টি বক্সের বাইরে হাত দিয়ে বল ধরার জন্য লালকার্ড দেখে মাঠ ছাড়তে হয় এয়ার ইন্ডিয়া গোলকিপারকে। তারপর লালকার্ড দেখে মাঠ ছাড়েন ডিফেন্ডার ইচে-ও।
নাইজেরীয় ডিফেন্ডার মাঠ ছাড়ার পর মোহনবাগান ডিফেন্সে চাপ বাড়ায় এয়ার ইন্ডিয়া ফুটবলাররা। ইনজুরি টাইমে ব্র্যাঙ্কো গোল করে ম্যাচ জমিয়ে দেন। গোটা স্টেডিয়াম কার্যত ধরেই নিয়েছিল যে ইস্টবেঙ্গলের পর মুম্বইয়ের বিমান দলটির কাছে আটকে যেতে চলেছেন ওডাফারা-ও। তখনই হেডে দুরন্ত গোল করে মোহনবাগানকে অবিশ্বাস্য জয় এনে দেন ডেনসন দেবদাস। ম্যাচের স্কোর লাইন হওয়া উচিত ছিল ১০-২ ।  কিন্তু সেই ম্যাচ মোহনবাগান জিতল ৩-২ গোলে।