প্রতিশোধের `তেলে` পিছলে গেল ইস্টবেঙ্গল

প্রতিশোধের আগুনে পুড়ল ইস্টবেঙ্গল। অনেক আবার বলছে, প্রতিশোধের তেলে পা পিছলে গেল লাল হলুদে রথের (তেল কারণ বিপক্ষের নামটা ওএনজিসি, যার ফুল ফর্ম ওয়েল অ্যান্ড ন্যাচারাল গ্যাস কমিশন)। যে ভাবেই বলা হোক ব্যাপার হল মঙ্গলবার আই লিগে ইস্টবেঙ্গলের হারের পিছনে থাকল প্রতিশোধ শব্দটা। এই প্রতিশোধের ধরনটা অবশ্য অন্যরকম। এ মরসুমে মোহনবাগানের প্রাক্তন কোচ সন্তোষ কাশ্যপের দল ওনজিসির বিরুদ্ধে ০-১ গোলে হারল ইস্টবেঙ্গল।

Updated: Jan 8, 2013, 07:19 PM IST

ওএনজিসি (১) ইস্টবেঙ্গল (০)
প্রতিশোধের আগুনে পুড়ল ইস্টবেঙ্গল। অনেক আবার বলছে, প্রতিশোধের তেলে পা পিছলে গেল লাল হলুদে রথের (তেল কারণ বিপক্ষের নামটা ওএনজিসি, যার ফুল ফর্ম ওয়েল অ্যান্ড ন্যাচারাল গ্যাস কমিশন)। যে ভাবেই বলা হোক ব্যাপার হল মঙ্গলবার আই লিগে ইস্টবেঙ্গলের হারের পিছনে থাকল প্রতিশোধ শব্দটা। এই প্রতিশোধের ধরনটা অবশ্য অন্যরকম। এ মরসুমে মোহনবাগানের প্রাক্তন কোচ সন্তোষ কাশ্যপের দল ওনজিসির বিরুদ্ধে ০-১ গোলে হারল ইস্টবেঙ্গল।
এই ম্যাচটা জিতলে আই লিগ তালিকায় শীর্ষে চলে যেত ট্রেভর মরগানের দল। কিন্তু সন্তোষ কাশ্যপের চাতুর্য্যের কাছে হার মানতে হল চিডি-রবিন সিংদের। দিল্লির আম্বেদকর স্টেডিয়ামে ম্যাচ শেষ হওয়ার মিনিট চারেক আগে ইস্টবেঙ্গল ডিফেন্ডার রাজু গায়কোয়েড়ের মারাত্মক ভুলের সুযোগ নিয়ে গোল করে যান ইউসা। ১৪ ম্যাচ খেলে ইস্টবেঙ্গল ২৭ পয়েন্টেই থেকে গেল। সেখানে দু`ম্যাচ কম খেলে পুণে এফসি আর চার্চিল ব্রাদার্স ২৮ পয়েন্টে দাঁড়িয়ে। ডেম্পো ১৩ ম্যাচে ২৬ পয়েন্ট।
দায়িত্ব নেওয়ার মাত্র পাঁচ ম্যাচের পরই মোহনবাগান-এর কোচের পদ থেকে সরিয়ে দেওয়া হয়েছিল সন্তোষ কাশ্যপকে। সব পরিস্থিতিতে হাসিমুখে থাকা কাশ্যপ অবশ্য প্রকাশ্যে সেদিন কিছু বলেননি। আজ করে দেখালেন। বুথ, করিমদের মত সময় তিনি পাননি। কাশ্যপ তাই আজ ফিরলেন মোহন সমর্থকদের মধ্যে। নির্বাসনের ঘায়ের মধ্যে বাগান কর্তাদের কাছে আবার অস্বস্তির প্রশ্ন হাজির। প্রশ্নটা এই রকম-- কাশ্যপকে কি আর একটু সময় দেওয়া যেত!