নুন আনতে পান্তা ফুরোয়, আইসিসি'র লোন নিয়ে সিরিজ করাতে চায় জিম্বাবয়ের

অগস্টে ঘরের মাঠে সিরিজ আয়োজন করতে চায় গ্রেম ক্রিমার, পিটার মুর, সিকান্দর রাজাদের দল। কিন্তু অর্থাভাবের কারণে সেটা কতটা সম্ভব হবে, সে নিয়েই তৈরি হয়েছে সংশয়। যদিও সিরিজ হওয়া নিয়ে আশাবাদী পাকিস্তান। 

Updated: Feb 20, 2018, 02:27 PM IST
নুন আনতে পান্তা ফুরোয়, আইসিসি'র লোন নিয়ে সিরিজ করাতে চায় জিম্বাবয়ের

নিজস্ব প্রতিবেদন: জৌলুস তো নেইই, উল্টে দেউলিয়া অবস্থা! আর কয়েকদিন পর হয়তো ক্রিকেট মানচিত্র থেকেই মুছে যাবে অ্যান্ডি ফ্লাওয়ার, গ্র্যান্ট ফ্লাওয়ারের দেশ! অবস্থা এমনই করুণ যে, যে শেষে ধার করে ক্রিকেট সিরিজ আয়োজন করতে হচ্ছে জিম্বাবয়েকে। হিন্দুস্তান টাইমসে প্রকাশিত খবর অনুযায়ী, পাকিস্তানের সঙ্গে সিরিজ আয়োজন করতে না কি আন্তর্জাতিক ক্রিকেট কাউন্সিলের কাছে ঋণ চেয়েছে জিম্বাবয়ে। 

আরও পড়ুন- নিজে 'শিকার' হয়ে লাখো লাখো হৃদয় ভাঙলেন প্রিয়া!

অগস্টে ঘরের মাঠে সিরিজ আয়োজন করতে চায় গ্রেম ক্রিমার, পিটার মুর, সিকান্দর রাজাদের দল। কিন্তু অর্থাভাবের কারণে সেটা কতটা সম্ভব হবে, সে নিয়েই তৈরি হয়েছে সংশয়। যদিও সিরিজ হওয়া নিয়ে আশাবাদী পাকিস্তান। ডন পত্রিকা-কে দেওয়া এক সাক্ষাৎকারে পাক ক্রিকেট বোর্ডের চেয়ারম্যান নাজম শেঠি জানিয়েছেন, "আমাদের এপ্রিল পর্যন্ত অপেক্ষা করতে অনুরোধ করা হয়েছে। তারা (জিম্বাবয়ে ক্রিকেট ইউনিয়ন) আইসিসির থেকে সাহায্য পাবে বলেই আশা করছে।" 

জিম্বাবয়ের বিরুদ্ধে ২টি টেস্ট, ৫টি একদিনের ম্যাচ এবং ২টি টি-টোয়েন্টি খেলার কথা পাকিস্তানের। জিম্বাবয়ে সিরিজ আয়োজন না করতে পারলে, পাকিস্তান আলাদা করে সিরিজ আয়োজন করতে পারে বলেও জানিয়েছেন পাক ক্রিকেট বোর্ডের চেয়ারম্যান। তবে সেটা কতটা অর্থকারী হবে সে নিয়ে ধন্দে রয়েছে পিসিবি। সেক্ষেত্রে ঘরের মাঠে সিরিজ নাও আয়োজন করতে পারে পাকিস্তান। 

আরও পড়ুন- 'ধোনি নিয়ে সিদ্ধান্ত নিতে হবে নির্বাচকদেরই'

উল্লেখ্য, গত বছর থেকেই ক্রিকেট বোর্ডের থেকে কোনও পারিশ্রমিক পাচ্ছেন না জিম্বাবয়ের ক্রিকেটাররা। এমনকী টাকাকড়ি পাচ্ছেন না বোর্ড কর্মীরাও। অনেকেই মনে করছেন, সে দেশের ক্রিকেট মানের অবনতি এবং রাজনৈতিক পটপরিবর্তনের কারণেই এমন বেহাল অবস্থার সম্মুখীন হতে হয়েছে আফ্রিকার এই দেশকে। 

উল্লেখ্য, সম্প্রতি আফগানিস্তানের মতো দলের কাছে ৪ - ১-এ সিরিজ হেরেছ জিম্বাবয়ে। অতীতেও পারফর্ম্যান্স খুব একটা চোখে পড়ার মত নয়। এমন অবস্থায় ক্রিকেট সার্কিটে টিকে থাকাই দায় হয়ে দাঁড়িয়েছে তাইবুর দেশের। 

আরও পড়ুন- ভারতীয় ক্রিকেট ঠিক পথেই এগোচ্ছে: গুন্ডাপ্পা বিশ্বনাথ

By continuing to use the site, you agree to the use of cookies. You can find out more by clicking this link

Close