ফুটবলের মতো ক্রিকেটেও এবার কার্ড!

ফুটবলের মতো ক্রিকেটেও এবার কার্ড!

ফুটবল মাঠে লাল ও হলুদ কার্ড একটি পরিচিত দৃশ্য। কিন্তু ক্রিকেট মাঠে লাল,হলুদ কার্ড? ভাবতেই যেন কেমন লাগে। কিন্তু এবার ক্রিকেট মাঠেই ফুটবলের এই পরিচিত দৃশ্য চালু করতে উদ্যোগি হল এমসিসি বা মেরিলিবোন ক্রিকেট ক্লাব। ইংলিশ ক্রিকেট লিগে মাঠে ক্রিকেটারদের অভব্য আচরণ দিনে দিনে বেড়েই চলেছে। এবছর পাঁচটি ম্যাচ ক্রিকেটারদের গন্ডগোলের জন্য পরিত্যক্ত হয়েছে। তাই আম্পায়ার অ্যাসোসিয়েশনগুলির সঙ্গে আলোচনা করে এমসিসি আগামিদিনে ক্রিকেটেও লাল ও হলুদ কার্ড চালু করতে চলেছে। ঠিক হয়েছে মাঠে সময় নষ্ট করলে পাচ রান পেনাল্টি হবে। কোনও ক্রিকেটারকে হুমকি দিলে বা বিমার দিয়ে আঘাত করার চেষ্টা হলে দশ ওভার মাঠের বাইরে থাকতে হবে হলুদ কার্ড দেখে। আর শারিরীকভাবে কোনও খেলোয়াড়কে নিগ্রহ করলে কিংবা আম্পায়ারকে ভয় দেখালে ক্রিকেটারকে লাল কার্ড দেখে একেবারে মাঠের বাইরে যেতে হবে। সেই ক্রিকেটার যদি ব্যাটসম্যান হন তা হলে তাকে রিটায়ার্ড আউট হতে হবে।

হাতে লেখা  গ্রিটিংসের জায়গা নিয়েছে ই-কার্ড হাতে লেখা গ্রিটিংসের জায়গা নিয়েছে ই-কার্ড

যুগ এখন শুধু আধুনিক নয়, অতি-আধুনিক। তার একটা বড় প্রমাণ মেলে, এই নিউ ইয়ারে। সময় এখন ই-কার্ডের। হোয়াটস অ্যাপ, টুইটার, ফেসবুক। মাধ্যম হাজারো। শুধু আঙুলের ছোয়াতেই পৌছে যাচ্ছে শুভেচ্ছা। আর গ্রিটিংস কার্ড! পুরোপুরি ইতিহাস না হলেও, সেই পথেই। তবু কোথাও থেকে যায় সেই পুরনো ছোয়া।  

চল পাশাপাশি হাঁটব...

কার্ড চাই, চাই লাল গোলাপ। তবে যেটা মাস্ট, তা হল ভালবাসা। আর অন্য কিছু নয়, আজ শুধু প্রেমের আন্দোলনে মেতে উঠতে প্রস্তুত ওরা। আজ ভ্যালেনন্টাইন্স ডে কাল প্রেমের দিন। তাই ওদের চোখে এখন বিদ্যুত্। হঠাত্ আলোর ঝলকানি লেগে ঝলমল করে চিত্ত।