নিরামিষ পাঁঠার মাংস

কালি পুজোর সময় পাঁঠা বলির রেওয়াজ বহু পুরনো। বলির পাঁঠা রান্না করার নিয়ম অবশ্য পেঁয়াজ, রসুন ছাড়া। যাকে বলা হয় নিরামিষ মাংস। পেঁয়াজ, রসুনের বদলে মাংসের ঝোলে পড়ত বিপুল পরিমানে বাটা মশলা। এখন পাঁঠা বলি রেওয়াজ চলে গেছে। তা বলে কি কালি পুজোয় পাঁঠার মাংস খাব না? নিশ্চয়ই খাব। তবে পুজোর দিনে অনেকেই চান পেঁয়াজ, রসুন ছাড়া নিরামিষ পাঁঠার মাংস করতে। তাদের জন্যই রইল এক্কেবারে খাঁটি বাঙালি নিরামিষ পাঁঠার মাংসের ঝোল।

চকোলেট মাইস

দীপাবলি মানে দেদার খাওয়া দাওয়া, বাজি আর গিফ্টের সমাহার। সময়ের সঙ্গে গিফ্টের বাহার বাড়লেও চকোলেট বরাবরই হৃদয়ের প্রিয়তম আসনেই থাকবে। কেমন হয় যদি কেনা চকোলেটের বদলে বাড়িতেই নিজের হাতে বানিয়ে দেওয়া যায় অসাধারণ চকোলেট? আর চকোলেট মাইস বানিয়ে দিলে তো কথাই নেই। দীপাবলির সঙ্গে ভাগ্যও খুলবে, ভূত চতুর্দশীর একটা ভয় ভয় ব্যাপারও, আসবে আবার হাইটেক চকোলেটে বাচ্চারাও ব্যাপক খুশি।

পিস্তা লস্যি

দীপাবলির মিষ্ট মুখ, মুখরোচক স্ন্যাকস আর পটাকা জ্বালানোর মাঝে গলা ভিজিয়ে নিতে রইল পিস্তা লস্যি।

করাঞ্জি

দীপাবলি মানেই মিষ্টিমুখ। লাড্ডু, কাজু বরফি, মালপোয়ার মাঝে স্বাদ বদলাতে লাগবে মুখরোচক নোনতা গাঠিয়া বা করাঞ্জি। অনেকটা আমাদের ভাজাপুলির মতো হয় এই করাঞ্জি। নারকেলের পুরে ভরা নোনতা স্বাদের করাঞ্জি জমিয়ে রাখতে পারেন পৌষপার্বণের জন্যও।