জানেন কেন অনেকের হাত-পায়ের তালু সারাক্ষণ ঠান্ডা থাকে

জানেন কেন অনেকের হাত-পায়ের তালু সারাক্ষণ ঠান্ডা থাকে

আমরা উষ্ণ রক্তের প্রাণী। তাই সবরকম আবহাওয়ায় আমাদের শরীরের তাপমাত্রা আবহাওয়ার সঙ্গে মানানসই থাকে। অর্থাত্‌, আবহাওয়ার সঙ্গে সামঞ্জস্য রেখে আমাদের ত্বকের তাপমাত্রা বদলায়। যেমন গরমে আমাদের ত্বক ঠান্ডা থাকে। আবার ঠান্ডায় গরম। কিন্তু আামদের মধ্যে অনেকেরই ত্বকের তাপমাত্রার একটা সমস্যা দেখা দেয়। কারও কারও সারাবছরই হাত পায়ের তালু ঠান্ডা থাকে। এই সমস্যা আমাদের অনেকের মধ্যেই দেখা দেয়। কিন্তু ঠিক কি কারণে এমনটা হয়, তা আমরা অনেকেই জানি না।

কবে খুলবে স্কুল? কবে শুরু হবে পড়াশোনা? কী করে শেষ হবে সিলেবাস? কবে খুলবে স্কুল? কবে শুরু হবে পড়াশোনা? কী করে শেষ হবে সিলেবাস?

ছুটি পড়েছিল এগারোই এপ্রিল। তারপরে বৃষ্টি নেমেছে, ভোট কেটেছে, গরমও খানিকটা কমেছে। কিন্তু  স্কুল খোলার কোনও নামগন্ধ নেই। দরজায় কড়া নাড়ছে আবার একটা সামার ভ্যাকেশনের ছুটি। সরকারি স্কুলগুলিতে শুধুই ছুটির মেজাজ। শিক্ষামন্ত্রীর ঘোষণায় ছুটির গেরোয় রাজ্যের সরকারি স্কুল।

সানগ্লাস পরার আগে, কিন্তু এগুলো খেয়াল রাখুন সানগ্লাস পরার আগে, কিন্তু এগুলো খেয়াল রাখুন

প্রচন্ড গরম। চোখ ঝলসানো রোদ। খালি চোখে তাকানোই যাচ্ছে না। তাই রোদের হাত থেকে চোখকে বাঁচাতে সবার চোখই এখন নানান ডিজাইনের রোদ চশমায় ঢাকা। তবে মোটেই শুধু কালো চশমা নয়। রংবেরঙের চশমার আড়ালেই ঢেকে যাচ্ছে মুখ। কারও এভিয়েটর তো কারও মর্ডান অ্যাস্ট্রোনমি। সানগ্লাসের বাজারে এখন নামী অনামী ব্র্যান্ডের ভিড়। তবে সানগ্লাস কেনার সময় কেউ খেয়াল রাখে না যে আদৌ সামগ্লাসটা তার মুখে মানাচ্ছে কিনা। তাই এবার সানগ্লাস কেনার আগে অবশ্যই এই বিষয়গুলো মাথায় রাখুন।

জানুন কী কী ক্ষতি হয় কোল্ড ড্রিংক খেলে জানুন কী কী ক্ষতি হয় কোল্ড ড্রিংক খেলে

গরমে রোদ থেকে ঘুরে এসেই ফ্রিজ খুলে ঢক ঢক করে ঠান্ডা জল কিংবা রাস্তায় দাঁড়িয়েই কোল্ড ড্রিংক, প্রচন্ড গরমের দিনে এটাই আমাদের সবার অভ্যাস। রাস্তায় বেরোলেই দোকান থেকে নানা কোম্পানির কোল্ড ড্রিংক কিনে খেয়ে থাকি। গরমের দিনে রাস্তার ছবিটা এটাই। কিন্তু জানেন কি প্রচন্ড গরমে আদৌ কোল্ড ড্রিংক খাওয়া উচিত্‌ কিনা!

আজ বিকেলেই ঝড়-বৃষ্টি হতে পারে শহরে! আজ বিকেলেই ঝড়-বৃষ্টি হতে পারে শহরে!

তীব্র দহন থেকে রেহাই কবে? অপেক্ষায় কলকাতাবাসী। যেমন প্রথর রোদ, তেমন আদ্রতা বাতাসে। কলকাতা সহ গোটা রাজ্যে তীব্র দাবদাহে রেহাই নেই মানুষের। কাঠফাটা গরমের মধ্যেই এবার সুখবর শোনাল আলিপুর আবহাওয়া দফতর। বজ্রগর্ভ মেঘ থেকে আজ বিকেলেই ঝড়-বৃষ্টি হতে পারে শহরে। জানিয়েছে হাওয়া অফিস। আগামিকালও বৃষ্টির পূর্বাভাস রয়েছে। ইতিমধ্যেই বৃষ্টিতে সাময়িক স্বস্তি পেয়েছে দক্ষিণ বঙ্গের অন্যান্য জেলা। আবহাওয়াবিদরা জানিয়েছেন, ঝাড়খণ্ডের ওপর ঘূর্ণাবর্ত রয়েছে। যার প্রভাবে স্থানীয়ভাবে বজ্রগর্ভ মেঘ তৈরি হতে পারে বলে জানিয়েছে আলিপুর আবহাওয়া দফতর।

টানা তাপপ্রবাহের পর খানিক স্বস্তি দিল কালবৈশাখী টানা তাপপ্রবাহের পর খানিক স্বস্তি দিল কালবৈশাখী

কবে বৃষ্টি আসবে? এত গরম যে আর সহ্য হচ্ছে না! মানুষের এত প্রার্থনার ফল বোধহয় মিলল। টানা তাপপ্রবাহের পর খানিক স্বস্তি। কলকাতা ছাড়া দক্ষিণবঙ্গের বেশ কিছু জেলায় দুপুরের পর থেকেই শুরু হয় ঝড়বৃষ্টি। বর্ধমান, হাওড়া,নদিয়া , মুর্শিদাবাদ, উত্তর চব্বিশ পরগনা, বাঁকুড়া, পূর্ব মেদিনীপুরের বেশ কিছু জায়গায় মানুষকে স্বস্তি দিয়েছে কালবৈশাখী। তবে এর মধ্যেই দুঃসংবাদ। মুর্শিদাবাদের হরিহরপাড়া থানার লালনগরে গাছের ডাল ভেঙে একজনের মৃত্যু হয়েছে। আবহাওয়া দফতর জানিয়েছে, বাতাসে জলীয় বাস্পের পরিমাণ বেড়ে যাওয়ায় বজ্রগর্ভ মেঘ তৈরি হয়েছে। তা থেকেই দক্ষিণ বঙ্গে এই ঝড়বৃষ্টি । বৃষ্টির সম্ভাবনা রয়েছে কলকাতাতেও।

উত্তরবঙ্গের জন্য কিছুটা আশার কথা শুনিয়েছে হাওয়া অফিস উত্তরবঙ্গের জন্য কিছুটা আশার কথা শুনিয়েছে হাওয়া অফিস

  এপ্রিলের মাঝামাঝি। তবু দেখা নেই কালবৈশাখির। আদৌ দেখা মিলবে কিনা সন্দেহ। দক্ষিণবঙ্গে তাপমাত্রা ঘোরাফেরা করবে চল্লিশ-বিয়াল্লি ডিগ্রির আশপাশে। চলবে তাপপ্রবাহ। বইবে লু। এমনই দুঃসংবাদ দিয়েছে আবহাওয়া দফতর। তবে আগামিকাল থেকে উত্তরের চার জেলায় বৃষ্টির পূর্বাভাস দেওয়া হয়েছে।

প্রচণ্ড গরমে বাড়ির মেঝেতেই তৈরি হচ্ছে ওমলেট! প্রচণ্ড গরমে বাড়ির মেঝেতেই তৈরি হচ্ছে ওমলেট!

উফফফ...কী গরম। আর পারা যাচ্ছে না। লোকের মুখে মুখে এই কথাটাই ঘুরছে। ৪০ ডিগ্রির উপরে থাকা তাপমাত্রায় নাভিশ্বাস উঠছে গোটা দেশের। দেশটা যেন আগুনে ফুটছে। আর সেই আগুনে অনায়াসে হয়ে যাচ্ছে ডিমের ওমলেট। লাগছে না গ্যাস বা স্টোভ। অবাক হলেন তো শুনে?

 কলকাতা সহ দক্ষিণবঙ্গে এখনই বৃষ্টির কোনও সম্ভাবনা নেই কলকাতা সহ দক্ষিণবঙ্গে এখনই বৃষ্টির কোনও সম্ভাবনা নেই

কলকাতা সহ দক্ষিণবঙ্গে এখনই বৃষ্টির কোনও সম্ভাবনা নেই। তবে তাপপ্রবাহের সতর্কতা বাড়ল আরও একদিন। শুক্রবার পর্যন্ত দক্ষিণবঙ্গের সব জেলায় তাপপ্রবাহ চলবে। পূর্বাভাস আবহাওয়া দফতরের। ফলে গরম থেকে এখনই স্বস্তি পাচ্ছেন না শহরবাসী। আজ কলকাতার সর্বোচ্চ তাপমাত্রা উনচল্লিশ দশমিক ছয় ডিগ্রি সেলসিয়াস যা স্বাভাবিকের চেয়ে পাঁচ ডিগ্রি বেশি। একইসঙ্গে পশ্চিমাঞ্চলের জেলাগুলিতে তাপমাত্রা সবচেয়ে বেশি থাকার পূর্বাভাস রয়েছে। গরমের দাপুটে ইনিংস অব্যাহত। প্রবল তাপপ্রবাহের সঙ্গে পাল্লা দিয়ে বইছে লু। তীব্র গরমে হাঁসফাঁস অবস্থা মানুষের।

 গরম নিয়ে এই ৫ টা তথ্য জানলে, দেখুন হয়তো গরম একটু কম লাগবে গরম নিয়ে এই ৫ টা তথ্য জানলে, দেখুন হয়তো গরম একটু কম লাগবে

গরমে ঝলসে যাচ্ছে মন প্রাণ? এখনই তিতিবিরক্ত হয়ে উঠেছেন? ভাবছেন এখনও এপ্রিলের অর্ধেকও হয়নি। পুরো মাসটা কাটাবেন কীভাবে? তারউপর তো আস্ত মে মাসটাও পড়ে রয়েছে। এত গরমে যে প্রাণ ওষ্ঠাগত। এত গরমে, হরম আবহাওয়া নিয়ে আপনাকে ৫ টা তথ্য দিই। গরমটা এইটুকু সময়ের জন্য উপভোগ্য মনে হবে দেখুন।

গরমের মাঝে বৃষ্টির খবর মৌসম ভবনের, এবার বর্ষায় বেশ ভাল বৃষ্টি হবে গরমের মাঝে বৃষ্টির খবর মৌসম ভবনের, এবার বর্ষায় বেশ ভাল বৃষ্টি হবে

চারপাশে যাকেই জিজ্ঞাসা করবেন কেমন আছেন, মোটামুটি সকলে একই উত্তর দেবেন, 'উফ যা গরম তাতে আর কেমন থাকা যায়'। সত্যিই চৈত্র মাস গেলই না এখনও, তার আগে থেকেই গরমে মানুষ পাগল হয়ে যাচ্ছে। অনেকে তো আবার অসুস্থও হয়ে পড়ছেন। গরমের হাত থেকে কীভাবে রেহাই পাবেন বুঝতে পারছেন না কেউ। সারাদিন রোদ, গরম, ঘাম, নাজেহাল করে দিচ্ছে জনজীবন। তবে এই গরমের হাত থেকে রেহাই পাওয়ার আশার আলো দেখাচ্ছে আবহাওয়া দফতর।

কাল বিভিন্ন জায়গায় লু বইবে বলে পূর্বাভাস দিয়েছে আলিপুর আবহাওয়া দফতর কাল বিভিন্ন জায়গায় লু বইবে বলে পূর্বাভাস দিয়েছে আলিপুর আবহাওয়া দফতর

তীব্র গরমে হাঁসফাঁস অবস্থা। এর মধ্যেই আগামিকাল ভোট বাঁকুড়া, বর্ধমান, পশ্চিম মেদিনীপুরের একত্রিশটি আসনে। কাল কেমন হবে ভোট, তা অনেকটাই নির্ভর করছে আবহাওয়ার ওপর। এই তিন জেলায় তাপপ্রবাহের সতর্কতা জারি করেছে আবহাওয়া দফতর। সোমবার গরম আরও বাড়বে বলে জানাচ্ছে আবহাওয়া দফতর। হাওয়া অফিসের পূর্বাভাস, পশ্চিম মেদিনীপুরে সর্বোচ্চ তাপমাত্রা ৪৪-৪৫ ডিগ্রি সেলসিয়াসের আশে পাশে থাকবে। বাঁকুড়ায় সর্বোচ্চ তাপমাত্রা ৪৬-৪৭ ডিগ্রি সেলসিয়াসের আশে পাশে থাকবে। বর্ধমানের যে অংশে ভোট, সেখানে সর্বোচ্চ তাপমাত্রা থারবে ৪৪-৪৬ ডিগ্রি সেলসিয়াসের আশে পাশে থাকবে। বিভিন্ন জায়গায় লু বইবে বলে পূর্বাভাস দিয়েছে আলিপুর আবহাওয়া দফতর।

 এই মুহূর্তে বৃষ্টি বা কালবৈশাখীর কোনও সম্ভাবনা নেই, গরম আরও বাড়বে! এই মুহূর্তে বৃষ্টি বা কালবৈশাখীর কোনও সম্ভাবনা নেই, গরম আরও বাড়বে!

চৈত্রের গরমেই  নাভিশ্বাস রাজ্যবাসীর। আজ  কলকাতার  সর্বোচ্চ তাপমাত্রা ছিল উনচল্লিশ ডিগ্রি সেলসিয়াস।  বঙ্গোপসাগর বা তার  পার্শ্ববর্তী  এলাকায় ঘূর্ণাবর্ত বা নিম্নচাপের পরিস্থিতি তৈরি  না হওয়ায় এই মুহূর্তে বৃষ্টি বা কালবৈশাখীর কোনও সম্ভাবনা নেই।  ফলে গরম আরও বাড়বে।  আগামিকাল থেকে দক্ষিণবঙ্গের জেলাগুলিতে তাপপ্রবাহের পূর্বাভাস দিয়েছে আবহাওয়া দফতর। সোমবার  দক্ষিণবঙ্গের যে সব জেলায় ভোট রয়েছে সেখানে লু বইবে বলে জানিয়েছেন আবহবিদেরা। এবার দক্ষিণবঙ্গের পরিস্থিতি অন্যান্য বারের তুলনায় আলাদা।  অন্যান্য বার  গ্রীষ্মে বাতাসে জলীয় বাষ্পের পরিমাণ বেশি থাকায় আপেক্ষিক আদ্রতা বাড়ে। ফলে ঘাম হয়। কিন্তু এবার পশ্চিমের রাজ্যগুলির মত  শুষ্ক আবহাওয়া দক্ষিণবঙ্গে। ফলে বইছে গরম হাওয়া ।

সোমবার থেকেই স্কুলগুলিতে গরমের ছুটি দিচ্ছে বিদ্যালয় শিক্ষা দফতর! সোমবার থেকেই স্কুলগুলিতে গরমের ছুটি দিচ্ছে বিদ্যালয় শিক্ষা দফতর!

সবে এপ্রিলের ৯ তারিখ। এখন এপ্রিল বাসের ২১ দিন তো বটেই। সঙ্গে যোগ হবে মে মাস এবং জুন মাসের খানিকটা। কিন্তু এখন থেকেই হু হু করে বাড়ছে গরমের দাপট। তাই সোমবার থেকেই স্কুলগুলিতে গরমের ছুটি দিচ্ছে বিদ্যালয় শিক্ষা দফতর। ভোট প্রক্রিয়া চলাকালীন তৃণমূল ভবন থেকে ঘোষণা পার্থ চট্টোপাধ্যায়ের। জানালেন, দফতরের প্রধান সচিব বিজ্ঞপ্তি পাঠাবেন জেলায় জেলায়।  ভোটের মুখে দলের অফিস থেকে এমন ঘোষণা কী আদৌ করতে পারেন শিক্ষা মন্ত্রী? উঠছে প্রশ্ন।

 মহানগরের পারদ ছুঁয়েছে চল্লিশ ডিগ্রি! বাঁকুড়ায় তাপমাত্রা ছুঁয়েছে পঁয়তাল্লিশ ডিগ্রি সেলসিয়াস! মহানগরের পারদ ছুঁয়েছে চল্লিশ ডিগ্রি! বাঁকুড়ায় তাপমাত্রা ছুঁয়েছে পঁয়তাল্লিশ ডিগ্রি সেলসিয়াস!

এপ্রিলের সবে শুরু। কিন্তু ভোটের উত্তাপ গায়ে মেখে গ্রীষ্মের শুরুতেই উত্তপ্ত হয়ে উঠছে রাজ্য। তাপমাত্রার পারদ চড়ছে হু হু করে।কাল মরুশহর রাজস্থানকে পিছনে ফেলে মহানগরের পারদ ছুঁয়েছে চল্লিশ ডিগ্রি। আজ সকালে এক দু পশলা বৃষ্টি হলেও পরিস্থিতির যে উন্নতি হবে না তা আগেই জানিয়ে রেখেছে আবহাওয়া দফতর। আগামী দু-এক দিনে পরিস্থিতি এরকমই থাকবে, গরম আরও বাড়বে বলেই পূর্বাভাস দিয়েছেন আবহাওয়াবিদরা। ঝাড়খণ্ড থেকে গরম হাওয়া ঢুকছে বলেই তাপপ্রবাহের পূর্বাভাস।  

গরমকে জয় করার 'টিপস' গরমকে জয় করার 'টিপস'

বসন্ত এসে গেছে। বাতাসে রংয়ের গন্ধ। একটু গরম, পরক্ষণেই ছিটে ফোটা বৃষ্টি।  সবমিলিয়ে আবহাওয়াটা মন্দ নয়। কিন্তু এই সুখ আর বেশিদিনের থাকবে না, সামনেই আসছে গরম। সঙ্গে নিয়ে আসছে কাঠফাটা রোদ, প্যাচপ্যাচে ঘাম, নানারকম রোগ।