প্রসঙ্গ দুর্নীতি: মন্ত্রিত্ব খোয়ালেন পবন-অশ্বিনী

শুক্রবার সন্ধেই প্রধানমন্ত্রীর সঙ্গে দেখা করেছিলেন কংগ্রেস সভানেত্রী সোনিয়া গান্ধী। তার কয়েক ঘণ্টার মধ্যেই ৭ রেস কোর্স রোডে পৌঁছন রেলমন্ত্রী পবন বনসল ও কেন্দ্রীয় আইনমন্ত্রী অশ্বিনী কুমার। প্রধানমন্ত্রীর বাসভবন থেকে বেড়িয়ে আসার পথেই ইশারায় বনসল বুঝিয়ে দেন, মন্ত্রিত্ব খুইয়েছেন তিনি। পরে তিনি সাংবাদিকদের জানান, "হ্যাঁ, আমি ইস্তাফা দিয়েছি।" কংগ্রেস সূত্রে জানা গিয়েছে, পদত্যাগপত্র জমা দিয়েছেন অশ্বিনী কুমারও। তবে দুই মন্ত্রীর ইস্তফা নিয়ে সরকারি ভাবে এখনও কেউই মুখ খোলেননি।

রেল বাজেটে রাজ্য পেল ৭টি নতুন ট্রেন

রেল বাজেটে রাজ্যের প্রাপ্তি মাত্র ৫টি দূরপাল্লার ট্রেন। কলকাতা-সীতামারি, কলকাতা আগরা, কাটিহার- হাওড়া এবং হাওড়া নিউ জলপাইগুড়ি বাতানুকুল সাপ্তাহিক ট্রেনের ঘোষণা করেছেন রেলমন্ত্রী। ঘোষণা হয়েছে হাওড়া-চেন্নাই বাতানুকূল দ্বিসাপ্তাহিক এক্সপ্রেসের। এছাড়া শিয়ালদা-বহরমপুর কোর্ট মেমু এবং কাটোয়া-জঙ্গিপুর ডেমু ট্রেনের ঘোষণা করেছেন রেলমন্ত্রী।

রেলের ক্ষতি ২৪ হাজার কোটি: বনসল

সংসদে রেল বাজেট পেশ করেছেন রেলমন্ত্রী পবন কুমার বনসল। রেলের ভাড়ার যে ক্রমেই শূন্য হচ্ছে সে কথা স্বীকার করে নিলেন রেলমন্ত্রী। যাত্রীদের রেল যাত্রাকে আরও সুরক্ষিত করতে বিশাল রেল নেটওয়ার্কের অর্থনৈতিক নির্ভরতা বাড়ানো দরকার আছে বলে মনে করেন তিনি। রেলমন্ত্রী বলেন, "দ্রুত রেল ব্যবস্থায় পরিকাঠামোর উন্নয়ন ঘটানো দরকার। অর্থনীতির সঙ্গে সাযুজ্য রেখে যাত্রী ও ফ্রেড ভাড়া নির্ণয় প্রয়োজন।" রেলের উন্নয়নের সঙ্গেই দেশের উন্নতি জড়িত বলে মনে করেন রেলমন্ত্রী।

মহিলা সুরক্ষা নিশ্চিত হোক, দাবি রেলমন্ত্রীর স্ত্রীর

মহিলাদের নিরাপত্তা বিষয়টিতে প্রাধান্য দিয়ে ২৪ ঘণ্টার জন্য হেল্পলাইন শুরু করার প্রয়োজন রয়েছে বলে মনে করছেন খোদ রেলমন্ত্রীর স্ত্রী মধু বনসল। বিপদের সময় রেলযাত্রীরা যাতে দ্রুত পুলিসি সহায়তা পান, সে জন্য এই হেল্পলাইন সক্রিয় করা উচিৎ বলে মনে করেন পবন জায়া। পবন বনসলের প্রথম রেল বাজেট পেস করার দিন সকালেই এ কথা জানিয়েছেন রেলমন্ত্রীর স্ত্রী।

বাড়ছে না ভাড়া, জনমুখি রেলবাজেটের পথেই হাঁটছেন রেলমন্ত্রী

আগামিকাল সংসদে পেশ হতে চলেছে রেল বাজেট ২০১৩। আসন্ন লোকসভা নির্বাচনকে মাথায় রেখে রেলবাজেটকে জনমুখি করে তুলতে কোনও কসুর রাখতে চায় না মনমোহন সিংয়ের সরকার। বাজেট পেশের আর বাকি নেই ২৪ ঘণ্টাও। ইতিমধ্যেই বেশকিছু ইঙ্গিত মিলতে শুরু করেছে মন্ত্রক সূত্রে। জানাগিয়েছে যাত্রীভাড়ায় সরাসরি কোনও বৃদ্ধি হওয়ার সম্ভাবনা নেই। রেলমন্ত্রী পবন কুমার বনসল সম্প্রতি জানিয়েছিলেন ডিজেলের মুল্যবৃদ্ধিতে রেলের ভাড়া বাড়ায় রেলের আয় বেড়েছে ৩ হাজার ৩০০ কোটি টাকা।