তামিলনাডুর কাছে ৬৯ রানে হেরে গেল সাইরাজ বহুতুলের বাংলা

তামিলনাডুর কাছে ৬৯ রানে হেরে গেল সাইরাজ বহুতুলের বাংলা

মুস্তাক আলি ট্রফির দ্বিতীয় ম্যাচেই মুখ থুবড়ে পড়ল বাংলা। তামিলনাডুর কাছে উনসত্তর রানে হেরে গেল সাইরাজ বহুতুলের দল। প্রথমে ব্যাট করে তামিলনাডু করে একশো একান্ন রান। জবাবে বিরাশি রানেই শেষ বাংলা। চোটের জন্য রবিবারের ম্যাচে খেলতে পারেননি মনোজ তিওয়ারি। শোনা যাচ্ছে, চোটের জন্য বাকি সৈয়দ মুস্তাক আলি ট্রফিতেই অনিশ্চিত বাংলার অধিনায়ক মনোজ তিওয়ারি। হ্যামস্ট্রিংয়ে চোটের জন্য মনোজের খেলা নিয়ে সংশয় রয়েছে। মনোজ খেলতে পারবেন না ধরেই দলের সঙ্গে যোগ দিচ্ছেন অভিমন্যু ঈশ্বরণ। অন্যদিকে জাতীয় দলে যোগ দেবেন পেসার মহম্মদ সামি। তার পরিবর্তে আসছেন তরুণ পেসার কুইলা। তাই বাংলা দলের শক্তি খানিকটা দুর্বল হয়ে গেল।

১২১ বলে ১৫১ রানের অসাধারণ ইনিংস মনোজ তিওয়ারির ১২১ বলে ১৫১ রানের অসাধারণ ইনিংস মনোজ তিওয়ারির

বিশ্বকাপের আগে নির্বাচকদের নোটবুকে নাম লেখাতে মনোজ তিওয়ারি মরিয়া হয়ে উঠলেন। দেওধর ট্রফির সেমিফাইনালে পূর্বাঞ্চলের জার্সিতে উত্তরাঞ্চলের বিরুদ্ধে মনোজ করলেন ১২১ বলে ১৫১ রান। মনোজ মারলেন ১৫টা বাউন্ডার, আর চারটে ওভার বাউন্ডারি। বিজয় হাজারে ট্রফিতে ঝকঝকে শতরান করার পর আজকের এই ১৫১ রানের ইনিংস মনোজের জাতীয় দলে ফেরার লড়াইকে জোরদার করবে। মনোজ আর শ্রীবত্‍স ছাড়া পূর্বাঞ্চলের আর কেউ বলার মত রান করতে পারলেন না। পনির্ধারিত ৫০ ওভারে পূর্বাঞ্চল করল ৮ উইকেটে ২৭৩ রান।  জবাবে ব্যাট করতে নেমে শুরুতেই উইকেট হারায় যুবরাজ সিংয়ের উত্তরাঞ্চল।

ধোনির সংসারে ঢোকার লাইফলাইন পেলেন মনোজ তিওয়ারি ধোনির সংসারে ঢোকার লাইফলাইন পেলেন মনোজ তিওয়ারি

বিশ্বকাপের ঠিক আগে ভারতীয় দলে ঢোকার লাইফলাইন পেয়েছেন মনোজ তিওয়ারি। আর  এই সুযোগকে কাজে লাগাতে মরিয়া বাংলার এই ব্যাটসম্যান। ওয়েস্টইন্ডিজের বিরুদ্ধে দুটি একদিনের প্রস্তুতি ম্যাচে ভারতীয় এ দলকে নেতৃত্ব দেবেন মনোজ। একদিকে অধিনায়কত্ব ,অন্যদিকে ব্যাটসম্যান হিসেবে জাতীয় দলে ফেরার লড়াই। দুটো ভূমিকাতে সফল হওয়ার চ্যালেঞ্জ মনোজের কাছে। তবে নেতৃত্ব ছাপিয়ে ব্যাটসম্যান হিসেবে সফল হওয়াই প্রথম টার্গেট এই মিডল ওর্ডার ব্যাটসম্যানের। ওয়েস্টইন্ডিজের বিরুদ্ধে একদিনের সিরিজে টিম ধোনিতে কামব্যাক করতে এই দুটো ম্যাচকেই পাখির চোখ করেছেন মনোজ।

মনোজ, গৌতমের গম্ভীর প্রত্যাবর্তনে অসিরা দিশাহীন

ভারত সফরটা যে কঠিন হতে চলেছে সেটা বুঝতে পারলেন মাইকেল ক্লার্কের দলের বোলাররা। ভারতীয় এ দলের বিরুদ্ধে প্রস্তুতি ম্যাচের প্রথম দিনে অসি বোলারদের অনভিজ্ঞতাকে সামনে এনে দিলেন এমন দুজন, যারা এখন ফিরে আসার ল়ডাই চালাচ্ছেন। প্রথম জন গৌতম গম্ভীর। যিনি ১১২ রানের ঝাঁ চকচকে ইনিংস খেলে টেস্ট দল থেকে বাদ পড়ার `প্রতিবাদ`জানালেন। আর অন্যজন মনোজ তিওয়ারি। চোটের পর জাতীয় দলে ফিরে আসার যিনি মরিয়া চেষ্টা চালাচ্ছেন। মনোজ ৭৭ রান করে অপরাজিত আছেন। সব মিলিয়ে প্রত্যাবর্তকদের লড়াইয়ে অসি বোলিংকে দিশাহীন দেখাল। দুই প্রধান স্ট্রাইক বোলার মিচেল স্টার্ক আর পিটার সিডল কোনও উইকেটই পেলেন না।