মন্ত্রিসভায় আসতে পারেন একগুচ্ছ নতুন মুখ

আগামিকাল কেন্দ্রীয় মন্ত্রিসভায় রদবদল। তার আগে আজই মন্ত্রিসভা থেকে ইস্তফা দিলেন রেলমন্ত্রী সিপি যোশী। ইতিমধ্যেই আবাসন মন্ত্রী অজয় মাকেনও মন্ত্রিসভা থেকে ইস্তফা দিয়েছেন। লোকসভা ভোটের আগে দল ও কেন্দ্রীয়

কেন্দ্রীয় মন্ত্রিসভায় রদবদলের সম্ভাবনা

ফের রদবদলের সম্ভাবনা কেন্দ্রীয় মন্ত্রিসভায়। চলতি মাসের ১৫ তারিখের মধ্যে এই রদবদল  হতে পারে। পবন বনসল ও অশ্বিনী কুমারের পদত্যাগের পর রেল ও আইন মন্ত্রকে পূর্ণ সময়ের কোনও মন্ত্রী নেই।

বিক্ষোভ তৃণমূলের অন্দরে

রাজ্য মন্ত্রিসভায় রদবদলের পর তৃণমূল কংগ্রেসের ঘরের লড়াই এখন তুঙ্গে। অভিজ্ঞ বিধায়কদের এবারও কেন মন্ত্রিসভায় ঠাঁই হল না? কোন যুক্তিতে কংগ্রেস ছেড়ে এসে একেবারে ক্যাবিনেট মন্ত্রী হয়ে গেলেন কৃষ্ণেন্দু

মন্ত্রিসভায় মুখ বদলেও ইমেজ ফিরবে কি? উঠছে প্রশ্ন

মনমোহন সরকারের ইতিহাসে মন্ত্রিসভার সর্ববৃহৎ রদবদল হয়ে গেল। কিন্তু রাজধানীর আকাশে বাতেস সবচেয়ে বড় প্রশ্ন এতবড় রদবদল করে জনগণের আস্থা ফিরবে কি? কংগ্রেস কিন্তু এই রদবদল থেকে অক্সিজেন পেতে মরিয়া।

মন্ত্রিসভায় শপথ নিলেন অধীর, দীপা, ডালু

রাজ্য থেকে মন্ত্রী হলেন  আবু হাসেম খান চৌধুরী, দীপা দাশমুন্সি ও অধীররঞ্জন চৌধুরী। গতকালই প্রধানমন্ত্রী ফোন করে দিল্লিতে ডেকে পাঠিযেছিলেন তাঁদের। আজ বেলা সাড়ে এগারোটা নাগাদ সাত জন পূর্ণমন্ত্রী সহ মোট

রাজ্য মন্ত্রিসভায় রদবদল আসন্ন

সামনের সপ্তাহেই রাজ্য মন্ত্রিসভায় রদবদলের সম্ভাবনা রয়েছে। কংগ্রেসের মন্ত্রীরা ইস্তফা দেওয়ার পরই মন্ত্রিসভা রদবদল সম্ভাবনা তৈরি হয়। তার ওপর মালদার প্রভাবশালী নেতা কৃষ্ণেন্দুনারায়ণ চৌধুরীর কংগ্রেস-